সর্বক্ষেত্রে অতি রাজনীতি ব্যাধিতে পরিণত হয়েছে: পীর সাহেব চরমমোনাই

ঢাকা: নিরাপদ সড়কের দাবিতে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক আন্দোলনে সরকার শক্তি প্রয়োগ করেছে বলে অভিযোগ করেছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর সৈয়দ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই। কোনো মানবিক সরকারের পক্ষে এমন আচরণ করা সম্ভব নয় বলে মন্তব্য করেন তিনি।

শুক্রবার (১০ আগস্ট) রাজধানীর বায়তুল মোকাররমের পূর্ব গেইটে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের ২৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘একটি গণতান্ত্রিক দেশে সাধারণ মানুষ ও সাধারণ শিক্ষার্থীদের মনে আতংক তৈরি করা হয়েছে। কোমলমতি শিক্ষার্থীদের সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক আন্দোলনকে সরকার শক্তি প্রয়োগ ও হামলা-মামলার মাধ্যমে দমন করছে। কোনো মানবিক সরকারের পক্ষে এমন আচরণ করা সম্ভব না।’

সর্বক্ষেত্রে অতি রাজনীতি ব্যাধিতে পরিণত হয়েছে মন্তব্য তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক আন্দোলনে সরকার তথাকথিত রাজনীতির গন্ধ পেয়ে হামলা-মামলা করেছে শিক্ষার্থী ও সাংবাদিকদের ওপর। অন্য দিকে কেউ কেউ এই আন্দোলনে ভর করে ক্ষমতায় যাওয়ার পাঁয়তারা করছে। এভাবে সর্বক্ষেত্রে অতি রাজনীতি সবার জন্যই ক্ষতিকর।’

সরকারের সমালোচনা করে তিনি বলেন, ‘দেশের প্রতিটি ক্ষেত্রে দুর্নীতি, অনিয়ম ও জবর-দখলের সয়লাব চলছে। মন্ত্রী-বিচারপতি ও পুলিশ বাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারাও সড়ক আইন মানছেন না। নির্বাচনের নামে ভোট ডাকাতি হচ্ছে, ব্যাংক লুটপাট হচ্ছে। এভাবে দেশ চলতে পারে না।’

পীর সাহেব চরমোনাই আরও বলেন, আগামী জাতীয় নির্বাচন নিয়ে কোনো ধরনের ছলচাতুরী সহ্য করা হবে না। দেশ পরিচালনায় জনমতের যথার্থ প্রতিফলন ঘটাতে হবে। সিইসি যদি এই দায়িত্ব পালনে সাহস না করে, তাহলে তারা পদত্যাগ করুক। কিন্তু অবাধ-সুষ্ঠু নির্বাচন হতেই হবে।

ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি শেখ ফজলুল করীম মারুফের সভাপতিত্বে এবং সেক্রেটারি জেনারেল এম. হাছিবুল ইসলামের সঞ্চালনায় সমাবেশে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুস আহমাদ, যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক এটিএম হেমায়েত উদ্দিন, যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম ও ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা শেখ ফজলে বারী মাসউদসহ অন্য নেতারা বক্তব্য রাখেন।

অন্যান্য দল এর আরও খবর

//election count down