Alexa

হোয়াইটওয়াশের লজ্জায় ডুবল পাকিস্তান

হোয়াইটওয়াশের লজ্জায় ডুবল পাকিস্তান

প্রোটিয়া বোলারদের সামনে দাঁড়াতে পারল না পাকিস্তান

কোন প্রতিরোধই গড়তে পারল না সরফরাজ আহমেদের দল। আগের দুই টেস্টে হেরে সিরিজ জেতার সম্ভাবনা শেষ হয়েছিল আগেই। জোহানেসবার্গে ছিল হোয়াইটওয়াশ এড়ানোর লড়াই। কিন্তু সেই আগের মতোই ব্যর্থতা সঙ্গী সফরকারীদের। জোহানেসবার্গে সোমবার হোয়াইটওয়াশের লজ্জায় ডুবেছে পাকিস্তান।

সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টেস্টটি ১০৭ রানে জিতল দক্ষিণ আফ্রিকা। সব মিলিয়ে ৩-০ ব্যবধানে টেস্ট সিরিজ জিতে নিয়েছে প্রোটিয়ারা।

অবশ্য জোহানেসবার্গে শুরুটাই বাজে ছিল পাকিস্তানের। এরপর আর ঘুরে দাঁড়ানো হয়নি। দক্ষিণ আফ্রিকা ১ম ইনিংসে ২৬২ রান তুললেও সফরকারীরা অলআউট ১৮৫ রানে। তারপর স্বাগতিকরা তুলে ৩০৩। জিততে সরফরাজদের সামনে দাঁড়ায় ৩৮১ রানের বড় লক্ষ্য। অবশ্য সেই চ্যালেঞ্জে বেশ ভালই লড়ছিল। ৩ উইকেটে ১৫৩ রান তুলে জবাব দিচ্ছিল পাকিস্তান। কিন্তু কে জানতো সেই ইনিংসটাই শেষ হয়ে যাবে ২৭৩ রানে!

বড় লক্ষ্যের সামনে টেস্ট ড্রয়ের সুযোগ ছিল না। কারণ হাতে ছিল দুই দিন। সোমবার চতুর্থ দিনে এ কারণেই আক্রমনাত্মক ক্রিকেটই বেছে নেয় সরফরাজ আহমেদের দল। আসাদ শফিক ৪৮ ও বাবর আজম ১৭ রান নিয়ে শুরু করেন। কিন্তু দিনের শুরুতেই বাবর আজমকে (২১) সাজঘরের পথ দেখিয়ে দেন ডোয়াইন অলিভিয়ের। এরপরই সরফরাজ আহমেদকে (০) তিনিই বিদায় করলে মহা বিপর্যয়ে পড়ে পাকিস্তান।

সেই ধাক্কা আর সামলে উঠা হয়নি। এর মধ্যে আসাদ শফিক তুলে নেন হাফসেঞ্চুরি। তিনি শুধু হারের ব্যবধানটাই কমাতে পেরেছেন। শেষ অব্দি ৬৫ রানে ফিরেন আসাদ। তারপর সাত নম্বরে নেমে যা একটু লড়লেন শাদাব খান। অন্য প্রান্তে নিয়মিত উইকেট হারিয়েছে সফরকারীরা। ১১০ বলে ৪৭ রানে অপরাজিত ছিলেন শাদাব।

দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে তিনটি করে উইকেট শিকার করেছেন ভারনন ফিলেন্ডার ও ডোয়াইন অলিভিয়ের। ডেল স্টেইনের শিকার দুই উইকেট। তিন ম্যাচ সিরিজে দুর্দান্ত বোলিং করে সিরিজসেরা অলিভিয়ের। সেঞ্চুরিয়ান কুইন্টন ডি ককের জোহানেসবার্গ টেস্টের ম্যাচসেরা।

সোমবার পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করে সুখবরই পেল দক্ষিণ আফ্রিকা। টেস্ট র‌্যাংকিংয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে প্রোটিয়ারা। সাতে নেমে গেল পাকিস্তান।

সংক্ষিপ্ত স্কোর-

দক্ষিণ আফ্রিকা ১ম ইনিস: ২৬২/১০
পাকিস্তান ১ম ইনিংস: ১৮৫/১০
দক্ষিণ আফ্রিকা ২য় ইনিংস: ৩০৩/১০
পাকিস্তান ২য় ইনিংস: ৬৫.৪ ওভারে ২৭৩/১০ (শফিক ৬৫, আজম ২১, সরফরাজ ০, শাদাব ৪৭*, আশরাফ ১৫, আমির ৪, হাসান ২২, আব্বাস ৯; স্টেইন ২/৮০, ফিল্যান্ডার ১/৪১, অলিভিয়ের ৩/৭৪, রাবাদা ৩/৭৫)
ফল: দক্ষিণ আফ্রিকা ১০৭ রানে জয়ী
সিরিজ: তিন ম্যাচের সিরিজে ৩-০ ব্যবধানে জয়ী দক্ষিণ আফ্রিকা
ম্যাচসেরা: কুইন্টন ডি কক
সিরিজসেরা: ডোয়াইন অলিভিয়ের

আপনার মতামত লিখুন :