Alexa

ইয়াবা ব্যবসায়ীদের খুঁজছেন বদি

ইয়াবা ব্যবসায়ীদের খুঁজছেন বদি

কক্সবাজার-২ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনের সাবেক আলোচিত সাংসদ আব্দুর রহমান বদি। ছবি: বার্তা২৪.কম

মুহিববুল্লাহ মুহিব, স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, কক্সবাজার, বার্তা২৪.কম

ইয়াবা ব্যবসায়ীদের খুঁজতে মাঠে নেমেছেন কক্সবাজার-৪ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনের সাবেক আলোচিত সাংসদ আব্দুর রহমান বদি।

সোমবার (১৪ জানুয়ারি) বিকেলে টেকনাফ উপজেলার নয়াপাড়া, সাবরাংসহ বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে ইয়াবার মালিক ও ব্যবসায়ীর বিষয়ে তল্লাশি চালিয়েছেন বদি।

রাত ৮টার দিকে এ বিষয়ে জানতে চাইলে আব্দুর রহমান বদি বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে একটি ইয়াবা প্রতিরোধ কমিটি করেছি। এ কমিটিতে সাংবাদিক ও বিভিন্ন সামাজিক ব্যক্তিদেরকে রাখা হয়েছে। এরা প্রশাসনকে সহযোগিতা করবে।’

আব্দুর রহমান বদি বলেন, ‘গতকাল ১৩ জানুয়ারি রোববার ভোরে একটি পরিত্যক্ত সিএনজি থেকে ১ লাখ ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে বিজিবি। এ বিষয়ে একটি মামলাও হয়েছে। কিন্তু তার পেছনে কারা রয়েছে সে বিষয়ে কিছুই জানা যায়নি। আমি এ কমিটি নিয়ে সেসব মালিককে খুঁজছি।’

সাবেক সাংসদ বদির এ উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে সুশাসনের জন্য নাগরিকের (সুজন) কক্সবাজার শাখার সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমান বার্তা২৪.কমকে জানান, প্রকৃত ইয়াবা ব্যবসায়ীদের বাদ দিয়ে যদি এ তল্লাশি চালানো হয় তাহলে তা আলোরমুখ দেখবে না। যদি টপ ইয়াবা ব্যবসায়ীদের ক্ষেত্রে তা হয়, তাহলে অবশ্যই বিষয়টি সুনামের দাবিদার।

পিপলস ফোরামের মুখপাত্র এইচ এম নজরুল ইসলাম বার্তা২৪.কমকে জানান, আব্দুর রহমান বদি গরিবের বন্ধু হিসেবে অনেকটা পরিচিত। তার জনপ্রিয়তাও রয়েছে। তার উদ্যোগ অবশ্যই প্রশংসার দাবি রাখে। তবে শুধুমাত্র ছোট ইয়াবা ব্যবসায়ীই নয়, শীর্ষদের ক্ষেত্রেও তা করতে হবে।

টেকনাফস্থ ২ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল আছাদুদ জামান চৌধুরী বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘তার এ উদ্যোগকে আমরা পজেটিভলি দেখছি। এভাবে যদি সামাজিক প্রতিরোধ করা যায়, তাহলে ইয়াবা নির্মূল সম্ভব।’

এর আগে, ইয়াবা ব্যবসায়ীদের আগামী ৫ দিনের মধ্যে আত্মসমর্পণের জন্য আহ্বান জানান বদি। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে তুমুল আলোচনা।

উল্লেখ্য, গতকাল রোববার (১৩ জানুয়ারি) ভোরে একটি সিএনজির সিটের নিচ থেকে ১ লাখ ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করে বিজিবি। টেকনাফের সাবরাংয়ের আলীর ডেইল এলাকা থেকে এসব ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত ইয়াবার মূল্য আনুমানিক সাড়ে তিন কোটি টাকা বলে জানিয়েছিল বিজিবি।

জেলা এর আরও খবর