Alexa

দেশে ফিরেছে ক্রিকেট দল, বিমানবন্দরে আবেগঘন দৃশ্য!

দেশে ফিরেছে ক্রিকেট দল, বিমানবন্দরে আবেগঘন দৃশ্য!

দেশে ফিরেছে ক্রিকেট দল, বিমানবন্দরে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ

নিউজিল্যান্ড সফরে এবার একটা ম্যাচও জিতেনি বাংলাদেশ। মাঠে গড়ানো কোন ম্যাচেই হার বাঁচাতে পারেনি। কিন্তু তারপরও শনিবার রাতে হযরত শাহজালাল আর্ন্তজাতিক বিমানবন্দরে পা রেখেই বুক ভরে স্বস্তির নিঃশ্বাস নিলেন ক্রিকেটাররা।

শনিবার রাত ১০ টা ৪৬ মিনিটে দেশের মাটিতে পা রেখেই আবেগে আপ্লুত হয়ে পড়ে পুরো দল! বিমানবন্দরে উপস্থিত নিকট আত্মীয়স্বজনদের দেখে এনে অন্যকে জড়িয়ে ধরেন। কোন ম্যাচ জিতেনি বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। কিন্তু যা ‘জিতেছে’ তা ক্রিকেটের চেয়ে অনেক বেশি প্রয়োজনীয়, অনেক বেশি মূল্যবান; এই জয়ের নাম-জীবন।

নিউজিল্যান্ড সফর থেকে এবার ক্রিকেটাররা ফিরে এসেছে জীবন নিয়ে। এটাই যে এই সফরের সবচেয়ে বড় পাওয়া!

ক্রাইস্টচার্চের মসজিদের উন্মাদ খুনির বন্দুকের নল থেকে সামান্য সময়ের হের ফেরের জন্য প্রাণে বেঁচে গেছেন ক্রিকেটাররা। প্রায় মৃত্যুমুখ থেকে প্রিয়জনদের অক্ষত ফিরে আসতে দেখে আনন্দ-আবেগে কান্না ধরে রাখতে পারেননি বিমানবন্দরে ক্রিকেটারদের আত্মীয়-স্বজনরা।

শুক্রবার (১৫ মার্চ) ক্রাইস্টচার্চের হ্যাগলি পার্কের কাছের একটি মসজিদে উগ্র জাতীয়বাদী ও সন্ত্রাসীদের পরিকল্পিত হামলা ৪৯ জন নিহত হন। এই মসজিদেই জুম্মার নামাজ পড়ার জন্য গিয়েছিলেন বাংলাদেশের ক্রিকেটাররাও। কিন্তু মসজিদে একটু দেরিতে যাওয়াটাই ক্রিকেটারদের প্রাণ বাঁচিয়ে দেয়। মসজিদ চত্বরে গিয়ে তামিম, মুশফিক, মিরাজ, তাইজুল, মাহমুদউল্লাহরা দেখেন চারধারে শুধু লাশ আর লাশ। রক্তাক্ত শরীরে নিরীহ মুসল্লিরা প্রাণ বাঁচাতে দৌড়াচ্ছেন। ভয়ানক আতঙ্ক নিয়ে ক্রিকেটাররাও সেখান থেকে কেউ দৌড়ে, কেউ জোরে হেঁটে মাঠে চলে আসেন। পরে সেখান থেকে তাদেরকে নিয়ে কড়া নিরাপত্তা হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয়। ঘটনার ভয়াবহতায় ক্রাইস্টচার্চ টেস্ট বাতিল করা হয়।

জরুরি ভিত্তিতে বিমান টিকেটের ব্যবস্থা করে ক্রিকেটারদের দেশে ফিরিয়ে আনার উদ্যোগ নেয়া হয়। শুক্রবারের গোটা দিন এবং রাত ক্রিকেটাররা আতঙ্কে কাটানোর পর শনিবার রাতে দেশে ফিরেছেন।

আপনার মতামত লিখুন :