Alexa

মাটি চাপা দেয়া শিশুকে জীবিত উদ্ধার করল কুকুর

মাটি চাপা দেয়া শিশুকে জীবিত উদ্ধার করল কুকুর

হিরো বনে যাওয়া পিং পং, ছবি: সংগৃহীত

এ যেন সিনেমার গল্পকেও হার মানায়।

আমরা অনেক সিনেমাতেই দেখেছি কুকুর বিভিন্ন বিপদের হাত থেকে নায়ক বা নায়িকাদের বাঁচিয়েছে। বিশেষ করে হলিউডের সিনেমাগুলোতে সবচেয়ে বেশি দেখা যায় শিশুদের বিপদের হাত থেকে রক্ষা করে ঘরের পোষা কুকুর। বাস্তবে এসব তেমন একটা দেখা না গেলেও থাইল্যান্ডে সদ্য জন্ম নেয়া একটি শিশুকে নিশ্চিত মৃত্যুর হাত থেকে বাঁচিয়ে রীতিমত ‘হিরো’ বনে গিয়েছে একটি কুকুর।

বিবিসির বরাত দিয়ে জানা গেছে, সদ্য জন্ম নেয়া একটি শিশুকে জীবন্ত অবস্থায় মাটি চাপা দেয় শিশুটির মা। নিজের অন্তঃসত্ত্বার খবর মা-বাবার কাছে গোপন রাখতেই এমন কাজ করে ১৫ বছর বয়সী কিশোরী মা।

থাইল্যান্ডের ব্যান নং খাম গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটে।

জানা যায়, গ্রামে পিং পং নামের একটি কুকুর মাটি চাপা দেয়া স্থানটি খুঁজে পায়। এ সময় কুকুরটি চিৎকার করতে থাকে এবং মাটি খুঁচিয়ে তুলতে থাকে। কুকুরটির মালিক জানিয়েছে, কুকুরটির অমন কর্মকাণ্ডের এক পর্যায়ে মাটির নিচ থেকে একটি শিশুর পা বেড়িয়ে আসে।

তাৎক্ষণিকভাবে শিশুটিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। ডাক্তাররা শিশুটিকে পরিষ্কার শেষে সুস্থ আছে বলে নিশ্চিত করেন।

পিং পং এর মালিক ঊষা নিসাইকা জানান, গাড়ির আঘাতে পিং পং একটি পা হারায়। এরপর থেকে কুকুরটি তার সঙ্গে থাকে।

শিশুটির মায়ের বিরুদ্ধে হত্যা চেষ্টা ও শিশু পরিত্যাগের কারণ দেখিয়ে চার্জশিট দাখিল করেছে পুলিশ।

চুম ফোয়াং পুলিশ ষ্টেশনের অফিসার পানুয়াত পুত্তাকাম জানিয়েছে, শিশুটির কিশোরী মা আপাতত তার পিতা-মাতা ও মনোবিশেষজ্ঞের পরিচর্চায় থাকবেন।

শিশুটির মা তার কাজের জন্য গভীরভাবে অনুতপ্ত। মেয়েটির পিতা-মাতাই শিশুটিকে বড় করার দায়িত্ব নিয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :