Alexa

ওসি মোয়াজ্জেমের পালানো ঠেকাতে বেনাপোলে সতর্কতা

ওসি মোয়াজ্জেমের পালানো ঠেকাতে বেনাপোলে সতর্কতা

ওসি মোয়াজ্জেম হোসেন, ছবি: সংগৃহীত

মাদরাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলায় ফেনী সোনাগাজী থানার সাবেক ওসি মোয়াজ্জেম হোসেনেকে দেশ ত্যাগে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কর্তৃপক্ষ। নিষেধাজ্ঞায় বেনাপোল চেকপোস্ট ইমিগ্রেশন ও বাংলাদেশ বর্ডার গার্ডকে (বিজিবি) সর্বোচ্চ সর্তক থাকার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার (১৪ জুন) দিবাগত রাতে সতর্কতার বিষয়টি বেনাপোল ইমিগ্রেশন ও বিজিবি কর্তৃপক্ষ বার্তা২৪.কম-কে নিশ্চিত করেছেন।

কর্তৃপক্ষ জানান, যোগাযোগ ব্যবস্থা সহজ হওয়ায় বেনাপোল ইমগ্রেশন ও সীমান্ত পথে বিভিন্ন কৌশলে ভারতে যাওয়ার সুযোগ থাকে।

এদিকে ওসি মোয়াজ্জেম হোসেনের গ্রামের বাড়ি যশোরে হওয়ায় সীমান্ত পথে ভারতে পালিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকতে পারে। এজন্য কর্তৃপক্ষ বেনাপোল সীমান্তে নজরদারি বাড়িয়েছেন।

বাংলাদেশ বর্ডার গার্ড বিজিবির বেনাপোল ক্যাম্পের সুবেদার সাইফুল ইসলাম শুক্রবার দিবাগত রাতে বার্তা২৪.কম-কে জানান, সীমান্ত পথে চোরাচালান ও অবৈধ অনুপ্রবেশ রোধে তারা সবসময় সতর্ক আছেন।

বেনাপোল ইমিগ্রেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) আবুল বাশার শুক্রবার দিবাগত রাতে বার্তা২৪.কম-কে জানান, ঢাকা পুলিশের এসবি (স্পেশাল ব্রাঞ্চ) থেকে একটি নির্দেশনায় ওসি মোয়াজ্জেমের বেনাপোল ইমিগ্রেশন হয়ে দেশ ত্যাগ না করতে পারার বিষয়ে সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

এর আগে, মাদরাসাছাত্রী নুসরাত জাহানকে আপত্তিকর প্রশ্ন করে এবং তা ভিডিও ধারণ করে সামাজিক মাধ্যমে ছড়ানোর অভিযোগে ওসি মোয়াজ্জেমের বিরুদ্ধে মামলাটি করেন ব্যারিস্টার সৈয়দ সাইয়েদুল হক সুমন। এ মামলায় তার বিরুদ্ধে গত ২৭ মে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। বর্তমানে তিনি পলাতক অবস্থায় আছেন।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের ২৭মার্চ সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদরাসার আলিম পরীক্ষার্থী নুসরাত জাহান রাফিকে যৌন নিপীড়নের দায়ে ওই মাদরাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ-দৌলার নামে থানায় অভিযোগ করা হয়। পরে পুলিশ মাদরাসা অধ্যক্ষ সিরাজ উদ-দৌলাকে আটক করে। পরে ৬ এপ্রিল ওই মাদরাসা কেন্দ্রের সাইক্লোন শেল্টারের ছাদে নিয়ে অধ্যক্ষের সহযোগিরা তার শরীরে আগুন ধরিয়ে দেয়। টানা পাঁচদিন মুত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ে মারা যায় নুসরাত জাহান রাফি।

আপনার মতামত লিখুন :