তীব্র শীতের আশঙ্কা, কেনা হবে সাড়ে ৭ লাখ কম্বল

ভোরের কুয়াশা/ছবি: সুমন শেখ

তীব্র শীতের আশঙ্কায় ৭ লাখ ৪০ হাজার ৬৪০টি কম্বল কেনার পরিকল্পনা করেছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়। শীতার্থ, অসহায় ও দুঃস্থ মানুষদের মাঝে বিনামূল্যে এসব কম্বল বিতরণ করা হবে। মোট পাঁচটি লটে এসব কম্বল কিনতে খরচ হবে ৫৪ কোটি ৯৯ হাজার টাকা।

এ সংক্রান্ত একটা প্রস্তাব ৮ নভেম্বর ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটিতে উপত্থাপন করা হবে। অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত সভায় সভাপতিত্ব করবেন।

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, অবহাওয়াবিদরা আশঙ্কা করছেন- গত কয়েক বছরের চেয়ে এবছর শীত একটু তীব্র হবে। বিশেষ করে, প্রশান্ত মহাসাগরে লা নিনার উদ্ভব হলে স্বাভাবিকের চেয়ে একটু বেশি ঠাণ্ডা পড়বে এবং অতি বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া পূর্ব প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে সমুদ্র পৃষ্ঠের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি নিচে নেমে গেলে আবহাওয়া অস্বাভাবিক পরিবর্তন হতে পারে। এর প্রভাব সারা পৃথিবীতে এমনকি বাংলাদেশেও পড়তে পারে। ওয়েদার এনোম্যালির কারণে চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে অল্প কয়েকদিন তীব্র শীত পড়তে পারে। ফলে ওই আশঙ্কা থেকে এসব কম্বল কেনার পরিকল্পনা করেছে মন্ত্রণালয়।

সাধারণত বাংলাদেশে কয়েক বছর ধরে অক্টোবর মাসে শীত অনুভূত হয় না। কিন্তু চলতি বছরের অক্টোবর মাস কিছুটা ব্যতিক্রম। গ্রাম এলাকায় এখনি সন্ধ্যার পর সামান্য ঠাণ্ডা অনুভূত হচ্ছে। আর শেষ রাতে শীতের তীব্রতা বাড়ছে। এসব লক্ষণ দেখে আবহাওয়া বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, আসন্ন শীত দীর্ঘ হতে পারে।

মন্ত্রণায়ল সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি কম্বল কিনতে দরপত্র আহ্বান করা হলে ৪১টি আবেদন জমা পড়ে। এর মধ্যে কাগজপত্র ও কম্বলের গুণগত মান যাচাই করে ৫টি লটের জন্য ৫টি প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে ক্রয় কার্যক্রম সম্পন্ন করা হবে।

প্রস্তাব অনুযায়ী, প্রতিটি কম্বলের সর্বনিম্ন দাম ধরা হয়েছে ৭৪১-৭৪৪ টাকা। সর্বনিম্ন পাঁটি দরদাতা প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে ৫ লটে এসব কম্বল কেনা হবে। প্রতিষ্ঠানগুলো হলো- মেসার্স তালুকদার অ্যান্ড কো., স্ট্যান্ডার বিজনেস লাইন, মের্সাস প্রভাতী অ্যান্ড কো., মের্সাস কাজলা ট্রেডিং, মের্সাস তালুকদার অ্যান্ড কোং।

 

 

অর্থনীতি এর আরও খবর