Alexa
independent day 2019

বিজিএমইএ’র সভাপতি পদে লড়বেন যারা

বিজিএমইএ’র সভাপতি পদে লড়বেন যারা

বিজিএমইএ-এর নির্বাচনে সভাপতি পদে ৩ প্রার্থী: (বাম থেকে) মো: সিদ্দিকুর রহমান, রুবানা হক ও মো: জাহাঙ্গীর আলম/ ছবি: বার্তা২৪.কম

ঊর্মি মাহবুব, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম

দেশের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনকারী পোশাক শিল্পের মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ (বাংলাদেশ পোশাক প্রস্তুতকারক ও রফতানিকারক সমিতি)-এর নির্বাচনের সময় ঘনিয়ে এসেছে।

কে হবেন আগামী দিনে পোশাক শিল্পের মালিকদের প্রতিনিধি তাই নিয়ে চলছে নানা হিসাব নিকাশ। সভাপতি পদে লড়াইয়ের জন্য সংগঠনটির তিনটি অংশ থেকে তিনজনের নাম ইতোমধ্যে নির্ধারিত হয়েছে বলে জানা যায় বিজিএমইএ সূত্রে।

জানা যায়, গত পাঁচ বছর যাবৎ সংগঠনটিতে কোনো নির্বাচন হচ্ছে না। ভোটাররা ভোট দেওয়া থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন গত এই পাঁচ বছর ধরে। তাই এবার ভোটাররা চাইছেন গণতান্ত্রিক নির্বাচন। মালিকদের তিনটি অংশ পরিষদ, ফোরাম ও স্বাধীনতা পরিষদের নেতৃবৃন্দ ইতোমধ্যে নির্বাচনেরপ্রস্তুতি নিচ্ছেন।

২২ জানুয়ারির মধ্যে তফসিল ঘোষণা করা হবে। তাই পরিষদ, ফোরাম ও স্বাধীনতা পরিষদও নির্বাচনে সভাপতি প্রার্থী কে হবেন তা ঠিক করে ফেলেছে। পরিষদের প্যানেলে সভাপতি পদে লড়বেন বিজিএমইএ-এর বর্তমান সভাপতি মো: সিদ্দিকুর রহমান, ফোরামের প্যানেল থেকে সভাপতি পদে নির্বাচনে থাকবেন রুবানা হক ও স্বাধীনতা পরিষদ থেকে থাকবেন মো: জাহাঙ্গীর আলম।

সূত্র জানায়, এবারো ২০১৫ সালের মতোই সমঝোতা চেয়েছিলো পরিষদ ও ফোরাম। কিন্তু বিপত্তি ঘটে স্বাধীনতা পরিষদকে নিয়ে। কিছুতেই সমঝোতায় রাজি হয়নি স্বাধীনতা পরিষদ। নির্বাচনে অংশ গ্রহণের ঘোষণা দেয় স্বাধীনতা পরিষদ।

এতেই ভেস্তে যায় সকল হিসাব নিকাশ। কারণএকজন প্রার্থীও যদি নির্বাচন করতে চান তাহলে সমঝোতা করা কিছুতেই সম্ভব নয়। আর তাই অবশেষে নির্বাচনী প্রক্রিয়া শুরু করে বিজিএমইএ-এর বর্তমান কমিটি।

সভাপতি পদে লড়াই এর বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন স্বাধীনতা পরিষদের আহ্বায়ক মো: জাহাঙ্গীর আলম।  তিনি বার্তা২৪কে বলেন, অনেকদিন পর বিজিএমইএ-তে গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় নির্বাচন হচ্ছে এটি অত্যন্ত আনন্দের বিষয়। স্বাধীনতা পরিষদ নির্বাচনে অবশ্যই অংশ নেবে। আমরা কোনো সমঝোতায় যাবো না।’

তিনি বলেন, ‘ভোটারদের ভোটাধিকার বাস্তবায়িত না হলে পোশাক শিল্পের অনেক সমস্যারই সমাধান করা সম্ভবহবে না। তাই আমরা নির্বাচন চাই। আর স্বাধীনতা পরিষদের সদস্যরা চাইলে অবশ্যই নির্বাচন করবো।’

২০১৩ সালে সর্বশেষ গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচনের মাধ্যমে বিজিএমইএ-এর সভাপতি নির্বাচিত হয়েছিলেন মো: আতিকুল ইসলাম। কিন্তু তারপর ২০১৫ সালে নির্বাচন না করে সমঝোতার মাধ্যমে সংগঠনটির দুটি অংশ পরিষদ ও ফোরাম সভাপতি নির্ধারণ করেন মো: সিদ্দিকুর রহমানকে। তারপর থেকে তিন দফায় নির্বাচনের সময় পিছিয়ে বর্তমান কমিটির মেয়াদ বাড়ানো হয়।

গত ৫ জানুয়ারি তিন সদস্যের নির্বাচনী পরিচালনা বোর্ড গঠন করেছে বিজিএমইএ পরিচালনা পর্ষদ। পরিচালনা বোর্ডের প্রধান করা হয়েছে বিটিএমএ-এর সাবেক সভাপতি জাহাঙ্গীর আল আমীনকে। নির্বাচনী পরিচালনা বোর্ডের পাশাপাশি গঠন করা হয়েছে আপিল বোর্ডও। আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন বাংলাদেশ এমপ্লয়ার্স ফেডারেশনের সভাপতি কামরান টি রহমান।

অর্থনীতি এর আরও খবর