পুঁজিবাজারে আবারও পতন প্রবণতা

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সপ্তাহের তৃতীয় কার্যদিবস মঙ্গলবার (৭ মে) সূচক ও লেনদেন কমে শেষ হয়েছে এ দিনের লেনদেন কার্যক্রম। ফলে আবারও পতন প্রবণতায় ফিরেছে উভয় পুঁজিবাজার।

এদিন ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স কমেছে ৫২ পয়েন্ট এবং সিএসইর প্রধান সূচক সিএসসিএক্স কমেছে ৯৯ পয়েন্ট।

অন্যদিকে, এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৪৩৩ কোটি ৫০ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। গত কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ৪৬৭ কোটি ৩৪ লাখ টাকা। আর সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ২৬ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। গত কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ২০ কোটি ৩১ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট।

ডিএসই

এদিন ডিএসইতে লেনদেনের শুরুতে সূচক বাড়ে। লেনদেনের শুরু হয় সকাল ১০টায়, এরপর প্রথম ১০ মিনিটেই ডিএসইএক্স সূচক ১০ পয়েন্ট বেড়ে যায়। এরপর থেকে সূচক বাড়তে থাকে। বেলা ১০টা ৩০ মিনিটে সূচক ১৬ পয়েন্ট বেড়ে যায়। তবে এর পর থেকে সূচক বাড়ার প্রবণতা কমতে থাকে। বেলা ১০টা ৪০ মিনিটে সূচক নেতিবাচক হতে থাকে, এই সময়ে সূচক গত কার্যদিবসের চেয়ে ৩ পয়েন্ট কমে। বেলা ১০টা ৫০ মিনিট থেকে সূচক আবার কিছুটা বাড়তে থাকে।

বেলা ১১টায় সূচক মাত্র তিন পয়েন্ট কমে যায়। আর বেলা সাড়ে ১১টায় সূচক আগের দিনের চেয়ে ১৪ পয়েন্ট কমে যায়। বেলা ২টায় সূচক গত কার্যদিবসের চেয়ে ৪৯ পয়েন্ট কমে। আর বেলা আড়াইটায় লেনদেনে শেষে ডিএসইএক্স সূচক ৫২ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৫ হাজার ২৮৯ পয়েন্টে।

অন্যদিকে, ডিএসই-৩০ সূচক ১৯ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ৮৬১ পয়েন্টে এবং ডিএসই শরিয়াহ সূচক ১১ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ২২২ পয়েন্টে। এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৪৩৩ কোটি ৫০ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড।

লেনদেন শেষে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দাম বেড়েছে ৫৭টির, কমেছে ২৬২ এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৮টি কোম্পানির শেয়ারের দাম।

মঙ্গলবার দাম বৃদ্ধির ভিত্তিতে ডিএসই’র শীর্ষ দশ কোম্পানির তালিকায় আছে- ফরচুন সু, পাওয়ার গ্রিড, বাংলাদেশ শিপিং করপোরেশন, এস্কার নিটিং, মুন্নু সিরামিকস, আইবিপি, ফাইন ফুড, ন্যাশনাল টিউবস, ন্যাশনাল পলিমার এবং গ্রামীণফোন।

সিএসই

অন্যদিকে, লেনদেন শেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সাধারণ সূচক (সিএসইএক্স) ৯৯ পয়েন্ট কমে ৯ হাজার ৮২৫ পয়েন্টে, সিএসই-৩০ সূচক ১৪৮ পয়েন্ট কমে ১৪ হাজার ৩৫৯ পয়েন্টে এবং সিএএসপিআই সূচক ১৬৩ পয়েন্ট কমে ১৬ হাজার ২৩১ পয়েন্টে অবস্থান করে।

লেনদেন শেষে সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ২৬ কোটি ৪৯ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট।

এদিন দাম বাড়ার ভিত্তিতের সিএসই’র শীর্ষ কোম্পানিগুলো হলো- তাকাফুল ইন্স্যুরেন্স, পিএফ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড, ইস্টল্যান্ড ইন্স্যুরেন্স, এইচআর টেক্সটাইল, ফিনিক্স ফাইন্যান্স, মুন্নু সিরামিকস, ইবিএল ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড, পাওয়ার গ্রিড, প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল এবং এলএইচবিএল।

আপনার মতামত লিখুন :

এ সম্পর্কিত আরও খবর