ডিএসই’র প্রধান সূচক কমেছে ৪৯, সিএসইতে ৯৮ পয়েন্ট

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, ঢাকা
ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সপ্তাহের চতুর্থ কার্যদিবসে প্রধান সূচক কমে শেষ হয়েছে দিনের লেনদেন।

বুধবার (১০ জুলাই) ডিএসইতে প্রধান সূচক ডিএসইএক্স কমেছে ৪৯ পয়েন্ট এবং সিএসইতে সিএসসিএক্স কমেছে ৯৮ পয়েন্ট।

এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৪০৮ কোটি ৮৮ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। গত কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ৫১২ কোটি ৯১ লাখ টাকা। আর সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১৮ কোটি ৭৮ লাখ টাকা। গত কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ১৯ কোটি ৫১ লাখ শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট।

ডিএসই ও সিএসই’র ওয়েবসাইট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ডিএসই
এদিন ডিএসইতে লেনদেনের শুরুতে সূচক কমে। লেনদেনের শুরু হয় সাড়ে ১০টায়, শুরুতেই সূচক কমে যায়। প্রথম ৫ মিনিটেই ডিএসইএক্স সূচক কমে ২ পয়েন্ট। বেলা ১০টা ৪০ মিনিটে সূচক কমে ৫ পয়েন্ট।

এরপর থেকে সূচক একটানা কমতে থাকে। বেলা ১০টা ৪৫ মিনিটে সূচক ৫ পয়েন্ট কমে যায়। বেলা ১০টা ৫০ মিনিটে সূচক কমে ১০ পয়েন্ট। বেলা ১০টা ৫৫ মিনিটে সূচক ১২ পয়েন্ট কমে। বেলা ১১টায় সূচক ২২ পয়েন্ট কমে। বেলা ১২টায় সূচক ৪০ পয়েন্ট কমে। বেলা ১টায় সূচক কমে ২৯ পয়েন্ট। বেলা ২টায় সূচক ৪৩ পয়েন্ট কমে এবং বেলা আড়াইটায় লেনদেন শেষে ডিএসইএক্স সূচক ৪৯ পয়েন্ট কমে দাঁড়ায় ৫ হাজার ২৩০ পয়েন্ট।

অন্যদিকে, ডিএসই-৩০ সূচক ১৪ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ৮৬০ পয়েন্টে এবং ডিএসই শরিয়াহ সূচক ৯ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ১৯৮ পয়েন্টে। এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৪০৮ কোটি ৮৮ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড।

লেনদেন শেষে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দাম বেড়েছে ৫১টির, কমেছে ২৭৯ এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৩টি কোম্পানির শেয়ারের দাম।

বুধবার দাম বৃদ্ধির ভিত্তিতে ডিএসই’র শীর্ষ দশ কোম্পানির তালিকায় আছে- ন্যাশনাল লাইফ ইন্স্যুরেন্স, রূপালী ইন্স্যুরেন্স, রানার অটোমোবাইল, সিনো বাংলা ইন্ডাস্ট্রিজ, পাইওনিয়ার ইন্স্যুরেন্স, সিঙ্গার বিডি, এটিসিএসএলজিএফ, ঢাকা ইন্স্যুরেন্স, প্যারামাউন্ট ইন্স্যুরেন্স এবং প্রাইম ইন্স্যুরেন্স।

সিএসই
অন্যদিকে, লেনদেন শেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সাধারণ সূচক (সিএসইএক্স) ৯৮ পয়েন্ট কমে ৯ হাজার ৭২৭ পয়েন্টে, সিএসই-৩০ সূচক ৯৬ পয়েন্ট কমে ১৪ হাজার ১৩৮ পয়েন্টে এবং সিএএসপিআই সূচক ১৬৯ পয়েন্ট কমে ১৬ হাজার ৩০ পয়েন্টে অবস্থান করে।

লেনদেন শেষে সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১৮ কোটি ৭৮ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট।

এদিন দাম বাড়ার ভিত্তিতের সিএসই’র শীর্ষ কোম্পানিগুলো হলো- নিটল ইন্স্যুরেন্স, প্রিমিয়ার ইন্স্যুরেন্স, বিডি ওয়েল্ডিং, পিপলস ইন্স্যুরেন্স, পাইওনিয়ার ইন্স্যুরেন্স, স্ট্যান্ডার্ড সিরামিকস, ঢাকা ইন্স্যুরেন্স, সিনোবাংলা ইন্স্যুরেন্স, এপেক্স ফুড এবং সিএপিএম আইবিবিএল মিউচ্যুয়াল ফান্ড।

আপনার মতামত লিখুন :