পোশাক খাত সংস্কারে আরএসসি গঠন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হক, ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হক, ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

দেশের তৈরি পোশাক কারখানাগুলো সংস্কারে আরএমজি সাসটেইনিবিলিটি কাউন্সিল (আরএসসি) গঠন করা হয়েছে। এতে পোশাক খাতে বিশ্বের নামিদামি ব্র্যান্ড, ট্রেড ইউনিয়ন, অ্যাকর্ড এবং বিজিএমইএসহ সবাই একমত হয়েছে।

মঙ্গলবার (৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় রাজধানীর গুলশানের একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে এই কাউন্সিল গঠনের ঘোষণা দেয়া হয়। ঢাকায় দু’দিনব্যাপী আলোচনার মাধ্যমে শান্তিপূর্ণভাবে ঐক্যমতে পৌঁছেছ সকল পক্ষ।

অনুষ্ঠানে বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হক বলেন, ‘আজ আমাদের আনন্দের দিন। আমরা কোনোরকম ঝামেলা ছাড়াই সমঝোতায় উপনীত হয়েছি। অ্যাকর্ড, আইএলও আমাদের সহায়তা করেছে। আমরা এক সঙ্গে সলিউশন করব। এটা হবে স্টেকহোল্ডারদের একটা প্ল্যাটফর্ম।’

তিনি আরও বলেন, ‘আরএসসির খসড়া অক্টোবরের শেষ দিকে শেয়ার করা হবে। ৩০ অক্টোবরের মধ্যে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এছাড়া ২৫ নভেম্বরের মধ্যে খসড়া চূড়ান্ত করা হবে।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে রুবানা হক বলেন, ‘আমরা সকলেই আরএসসি চালাব। আমরা এই আরএসসির প্রস্তাব দিয়েছিলাম। তারা মেনে নিয়েছে। এই আরএসসি দুইভাবে কাজ করতে পারে। একটি হচ্ছে ফাউন্ডেশন গঠনের মাধ্যমে এবং অন্যটি কোম্পানির মাধ্যমে হতে পারে। যাই হোক আমরা সরকারের সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের কাছে রেজিস্ট্রেশন করব। আমাদের আইনগত বাইন্ডিং থাকবে। সরকারের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে অনুদান পুষ্ট হয়ে কাজ করা হবে। আমরা পারস্পরিক আলোচনার মাধ্যমে এখন যে জায়গায় এসেছি, সেখান থেকে পিছিয়ে আসার কোনো সুযোগ নেই।’

কেন আরএসসির প্রয়োজন হলো এমন প্রশ্নের জবাবে রুবানা হক বলেন, ‘আগে কিন্তু আমরা অ্যাকর্ডের কমিটিতে ছিলাম না। আমাদের যা প্রটোকল ছিল আমরা তা মেনেছি। সেই অনুযায়ী আমরা নানা রকম সংশোধন করেছি। কিন্তু শেষ পর্যন্ত আমাদের এক জায়গায় দাঁড়াতে হবে। আমরা মনে করি দাঁড়ানোর সময় এসেছে। আমরাই এ প্রস্তাব দিয়েছি। অ্যাকর্ড সেটা সুন্দরভাবে গ্রহণ করেছে।

ব্রিফিংয়ে যৌথ ইশতেহার ঘোষণা করেন আরএসসির জেনারেল সেক্রেটারি জেড এম কামরুল আনাম। যৌথ ইশতেহারে বলা হয়েছে, অ্যাকর্ডের স্টিয়ারিং কমিটির প্রতিনিধিরা গত ৮ মে স্বাক্ষরিত স্মারক অনুসারে আরএসসি প্রতিষ্ঠার বিষয়ে আলোচনা করতে ঢাকায় দু’দিনের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ঘোষণাপত্রে আরও বলা হয়েছে, পক্ষগুলো সম্মত হয়েছে যে, তারা আরএসসি’র সংঘ স্মারক/ সংঘবিধি এবং অ্যাকর্ডের দায়িত্ব হস্তান্তর চুক্তি একটি নির্দিষ্ট সময়সীমার মধ্যে এক সঙ্গে প্রস্তুত করবে। বিজিএমইএ এবং অ্যাকর্ডের গঠনমূলক আলোচনা অব্যাহত রাখতে এবং পোশাক শিল্পের কর্মপরিবেশ নিরাপদ রাখার উদ্দেশ্যে ঐক্যবদ্ধ হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :