Barta24

বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯, ২ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

নাশকতার মামলায় বিএনপি নেতা হাসান উদ্দিন সরকারের বিচার শুরু

নাশকতার মামলায় বিএনপি নেতা হাসান উদ্দিন সরকারের বিচার শুরু
গাজীপুর-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য হাসান উদ্দিন সরকার, ছবি: সংগৃহীত
স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

নাশকতার মামলায় বিএনপির নেতা ও গাজীপুর-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য হাসান উদ্দিন সরকারসহ ৫ জনের বিচার শুরুর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

অপর আসামিরা হলেন- জুয়েল ওরফে বাঘা জুয়েল, সোলায়মান, শাখাওয়াত হোসেন সৈকত এবং আইনুল ইসলাম চঞ্চল।

সোমবার (১৩ মে) ঢাকার সন্ত্রাস বিরোধী বিশেষ ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. মজিবুর রহমান আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেন। এ সময় আসামিদের মামলায় দায় থেকে অব্যাহতির আবেদন করা হলে বিচারক তা নাকচ করে দেন। এর মধ্যে দিয়ে আসামিদের বিরুদ্ধে আনুষ্ঠানিক বিচার শুরু হলো।

হাসান উদ্দিন সরকার গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপি থেকে মেয়র প্রার্থী ছিলেন।

উল্লেখ্য, ২০১৫ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে বিএনপির জামায়াতের ডাকা হরতাল-অবরোধে শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ সরণীতে মহাখালী হতে সাতরাস্তাগামী একটি বলাকা মিনিবাস থেকে হৈ-চৈ শোনা যায়।

এ সময় চাদর পরিহিত এক যুবক বাস থেকে লাফ দিলে পুলিশ তাকে আটক করে। এ সময় তার কাছ থেকে এক লিটার সেভেন আপ বোতলে অকটেন পায়। তার সহযোগীকেও আটক করা হয়।

ওই মামলায় হাসান ‍উদ্দিন সরকারকে হুকুমের আসামি করা হয়।

আপনার মতামত লিখুন :

আপাতত বহাল রাজীবের ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণের রায়

আপাতত বহাল রাজীবের ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণের রায়
রাজীব হোসেন

রাজধানীতে দুই বাসের রেষারেষিতে হাত হারানোর পর মারা যাওয়া তিতুমীর কলেজের স্নাতকোত্তর ছাত্র রাজীবের হোসেনের দুই ভাইকে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার হাইকোর্টের রায় স্থগিত করেননি আপিল বিভাগের চেম্বার জজ আদালত। ফলে আপাতত হাইকোর্টের রায় বহাল থাকছে।

হাইকোর্টের রায় স্থগিত চেয়ে স্বজন পরিবহনের করা আবেদনের শুনানি শেষে বুধবার (১৭ জুলাই)  আপিল বিভাগের চেম্বার জজ বিচারপতি মো. নুরুজ্জামান আবেদনটি আগামী ১৩ অক্টোবর নিয়মিত বেঞ্চে শুনানির জন্য দিন নির্ধারণ করেন।

আদালতে স্বজন পরিবহনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী শফিকুল ইসলাম বাবুল। আর রাজীবের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী রুহুল কুদ্দুস কাজল।

আইনজীবী রুহুল কুদ্দুস কাজল বলেন, ‘রাজীবের দুই ভাইকে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে হাইকোর্ট যে রায় দিয়েছিলেন তা স্থগিত চেয়ে চেম্বার জজ আদালতে আবেদন করেছে স্বজন পরিবহন। তবে চেম্বার আদালত কোন স্থগিতাদেশ দেননি। ফলে আপাতত হাইকোর্টেও রায়র বহাল রয়েছে।,

ক্ষতিপূরণ প্রশ্নে জারি করা রুল গত ২০ জুন নিষ্পত্তি করে বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলম সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের দ্বৈত বেঞ্চ রাজীবের দুই ভাই মেহেদী হাসান ও আব্দুল্লাহ হৃদয়কে দুই মাসের মধ্যে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার রায় দেন। বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন করপোরেশন (বিআরটিসি) ও স্বজন পরিবহনকে ২৫ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে বলা হয় রায়ে। যাত্রী নিরাপত্তায় সাতদফা নির্দেশনা দেন হাইকোর্ট।

২০১৮ সালের ৩ এপ্রিল রাজধানীর কারওয়ান বাজারের সার্ক ফোয়ারার সামনে বিআরটিসি ও স্বজন পরিবহনের বাসের চাপায় রাজীব হোসেন ডান হাত বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৬ এপ্রিল ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান তিনি।

রাজীবের বিচ্ছিন্ন হাতের প্রতিবেদন গণমাধ্যমে প্রকাশ হলে পরদিন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী রুহুল কুদ্দুস কাজলের এক আবেদনের প্রেক্ষিতে রাজীবের পরিবারকে ১ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার অন্তবর্তীকালীন আদেশ এবং রুল জারি করেন হাইকোর্ট। এ রুল নিষ্পত্তি করে ৫০ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার রায় দেয়া হয়।

সিরাজগঞ্জে ট্রেন-মাইক্রোবাস সংঘর্ষ: নিহতদের ক্ষতিপূরণ দিতে নোটিশ

সিরাজগঞ্জে ট্রেন-মাইক্রোবাস সংঘর্ষ: নিহতদের ক্ষতিপূরণ দিতে নোটিশ
সিরাজগঞ্জে ট্রেনের ধাক্কায় মাইক্রোবাসের ১১ যাত্রী নিহত, ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় ট্রেন দুর্ঘটনায় বর-কনেসহ নিহত ১১ জনের প্রত্যেকের পরিবারকে এক কোটি টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। এছাড়া আহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণও দিতে বলা হয়েছে নোটিশে।

নোটিশ পাওয়ার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সংশ্লিষ্ট বিষয়ে কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করা না হলে উচ্চ আদালতে আইনগত পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে নোটিশে উল্লেখ করা হয়েছে।

রেল সচিব, স্থানীয় সরকার সচিব, রেলওয়ের মহাপরিচালক, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতরের (এলজিইডি) প্রধান প্রকৌশলীর প্রতি এ নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

বুধবার (১৭ জুলাই) মানবাধিকার সংগঠন ল অ্যান্ড লাইফ ফাউন্ডেশনের পক্ষে রেজিস্ট্রি ডাকযোগে নোটিশটি পাঠিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী হুমায়ুন কবির পল্লব।

নোটিশে গত ১৫ জুলাইয়ের ঘটনায় ক্ষতিপূরণ চাওয়া সহ নতুন করে রেলের লেভেল ক্রসিং নির্মাণ, অবৈধ লেভেল ক্রসিং বন্ধ, রেলের গেটম্যানদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা এবং ট্রেনের ছাদে যাত্রী তোলা বন্ধ করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করতে বলা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ১৫ জুলাই সন্ধ্যায় সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় রাজশাহী থেকে ঢাকাগামী পদ্মা ট্রেনের সঙ্গে একটি বিয়ের মাইক্রোবাসের সংঘর্ষে বর-কনেসহ ১১ জন নিহত এবং ৩ জন আহত হন।

আরও পড়ুন: সিরাজগঞ্জে ট্রেনের ধাক্কায় মাইক্রোবাসের ৯ যাত্রী নিহত

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র