Alexa

গুজরাটে প্রচারণায় প্লেন ও হেলিকপ্টার ব্যবহারে এগিয়ে বিজেপি

গুজরাটে প্রচারণায় প্লেন ও হেলিকপ্টার ব্যবহারে এগিয়ে বিজেপি

বিজেপি নেতাদের হেলিকপ্টার প্রচারণা, ছবি: সংগৃহীত

আহমেদাবাদ থেকে: গুজরাটের নির্বাচনী প্রচারণার সময় ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি) বিমান ও হেলিকপ্টার ব্যবহারে কংগ্রেসকে ছাড়িয়ে গেছে।

গুজরাটে বিজেপি রাষ্ট্রীয় নেতাদের বহন করার জন্য ছয় সিটের তিনটি প্লেন এবং দুইটি হেলিকপ্টার ভাড়া নিয়েছে। সেখানে কংগ্রেস এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় নেতাদের নিতে একটি হেলিকপ্টার ভাড়া করেছে।

বিজেপির নির্বাচন পর্যটন বিভাগের অফিসারদের মতে, একই দিনে দুই বা তিনটি লোকসভা কেন্দ্রকে কভার করার জন্য তারকা প্রচারকদের জন্য এগুলো ব্যবহার করা হবে। বিমানবাহিনী ও হেলিকপ্টার ব্যবহারের তত্ত্বাবধানে দায়িত্ব পালনকারী একজন সিনিয়র নেতা সংবাদ মাধ্যমে বলেন, ১৫ দিন হলো পার্টি তিনটি বিমান এবং দুটি হেলিকপ্টার ভাড়া করেছে।

প্রতিটি চার্টার্ড প্লেন একই সঙ্গে ছয়জনকে নিতে পারে, আর হেলিকপ্টারগুলোতে চারজন ব্যক্তি বহন করার ক্ষমতা রয়েছে। ১৫ এপ্রিলের পর দল আরও হেলিকপ্টার ভাড়া নিতে পারে, যখন রাজ্যে প্রচারণা আরো বেশি গতি পাবে।

জাতীয় স্তরের তারকা প্রচারণার পাশাপাশি বিজেপির ভাড়া করা বিমান ও হেলিকপ্টারগুলো ব্যবহার করছে মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি, উপ-মুখ্যমন্ত্রী নিতিন প্যাটেল, রাষ্ট্রীয় সাধারণ সম্পাদক ভিক্ষু দাল সানিয়া, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী পারশোটাম রূপালা ও মনসুখ ম্যান্ডভিয়া।

কংগ্রেসের এক সিনিয়র নেতা বলেন, বেশিরভাগ তারকা প্রচারক, বিশেষ করে জাতীয় নেতারা ১৫ এপ্রিলের পর গুজরাতে প্রচারণা চালাবেন এবং তাই এখনই পার্টিটি এক হেলিকপ্টার ভাড়া নিয়েছে।

কংগ্রেস আরো একটি হেলিকপ্টার ভাড়া করবে যখন রাহুল গান্ধী, প্রিয়াঙ্কা গান্ধী এবং অন্যান্য জাতীয় তারকা গুজরাটে আসবেন।

ভারতের নির্বাচন কমিশন তার ক্ষমতা বলে ১.৩০ লাখ টাকা থেকে ৩.৪৮ লাখের মধ্যে হেলিকপ্টারের জন্য প্রতি ঘণ্টায় ভাড়া অনুমোদন দিয়েছে।

এ্যারোপ্লেনের জন্য প্রতি ঘণ্টায় ৯০ হাজার থেকে ৫.২৪ লাখ টাকার সীমা নির্ধারণ করেছে। গুজরাটের প্রচারণার সময় বিজেপি বিমান ভ্রমণে কয়েক কোটি রুপি ব্যয় করতে পারে।

আপনার মতামত লিখুন :