বিদেশি পর্যটকদের মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চল ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চল ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা, ছবি: সংগৃহীত

মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চল ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বিদেশি পর্যটকদের মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চল ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। একইসঙ্গে এ অঞ্চলের পর্যটন কেন্দ্রগুলোতে স্বদেশী নাগরিকদের এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৫ আগস্ট) উত্তরাঞ্চলীয় শান স্টেটে সশস্ত্র বিদ্রোহী জোটের হামলার পরে বিদেশিদের জন্য পাইয়ন ওও লুইন, ন্যাংচো এবং থিবাবের ভ্রমণ বাতিল করতে ট্র্যাভেল এজেন্সিগুলোকে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Aug/17/1566022354804.jpg

 

মিয়ানমার পর্যটন উদ্যোক্তা সমিতির কার্যালয়ের কর্মকর্তা ইউ ময়ো ইয়ে বলেন, ট্র্যাভেল এজেন্সিগুলোকে বলা হয়েছে তারা যেন এখন বিদেশি পর্যটক এদিকে না নিয়ে আসে।

বৃহস্পতিবার মিয়ানমারে বিদ্রোহী গোষ্ঠী একজোট হয়ে আর্মি একাডেমিসহ ছয়টি স্থানে সমন্বিত হামলা চালায়। এটি ভয়াবহ ঘটনা। কারণ এ বিদ্রোহী জোটটি আক্রমণগুলিতে ১০৭ মিলিমিটার রকেট ব্যবহার করেছে বলে নিশ্চিত হয়েছে দেশটির সেনাবাহিনী। হামলায় সামরিক বেসামরিকসহ কমপক্ষে ১৪ জন নিহত হয়েছেন।

আরাকান আর্মি (এএ), মিয়ানমার ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক অ্যালায়েন্স আর্মি এবং তাআং ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি এক জোট হয়ে এ হামলা চালায়।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Aug/17/1566022335753.jpg

 

পর্যটন উদ্যোক্তা সমিতির কার্যালয়ের কর্মকর্তা ইউ ময়ো ইয়ে বলেন, কিছু বিদেশ ভ্রমণকারী ইতোমধ্যে থিবা পৌঁছেছে এবং কিছুদিনের জন্য সেখানে তারা আটকে যেতে পারে। আমরা তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি তবে আমরা জানি না কতজন সেখানে আটকে রয়েছেন। আমরা পর্যটন এজেন্সিগুলোকে সতর্কতা  অবলম্বন এবং ট্যুর বাতিল করতে বলেছি। ট্র্যাভেল এজেন্টদের যে অঞ্চলে  যুদ্ধ চলছে সে এলাকায় যেতে সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

পর্যটক নির্দেশক ইউ থান নাইং জানান, বর্ষাকাল হওয়ায় পাইয়ন ওও লুইন, ন্যাংচো এবং থিবাওতে দেশি পর্যটকদের সংখ্যা কম। তবে শুধুমাত্র ইউরোপীয় দেশগুলির পর্যটকরা বর্ষাকালে এই জায়গাগুলি পরিদর্শন করেন। কিন্তু ইতিমধ্যে অনেকে তাদের ভ্রমণ বাতিল করেছেন।

আরও পড়ুন, 

মিয়ানমারে বিদ্রোহী গোষ্ঠী একজোট হয়ে হামলা চালাচ্ছে

আপনার মতামত লিখুন :