রমজানে নিত্যপণ্যের বিশেষ মূল্যছাড়



ইসলাম ডেস্ক
রোজাদারদের সম্মানে নিত্যপণ্যের বিশেষ মূল্যছাড় ঘোষণা করেছে আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীরা, ছবি: সংগৃহীত

রোজাদারদের সম্মানে নিত্যপণ্যের বিশেষ মূল্যছাড় ঘোষণা করেছে আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীরা, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

পবিত্র রমজান মাসে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম না বাড়ানোর বিষয়ে সরকারের ঘোষণা দেওয়ার পর পরই বাজারে অস্থিরতা শুরু হয়েছে। এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী রমজান মাস আসার আগেই জিনিসপত্রের দাম বাড়ানো শুরু করেছেন।

ইতোমধ্যে রমজান মাসে বহুল ব্যবহৃত পণ্যগুলোর দাম বাড়তে শুরু করেছে। রমজান আসার আগে আরও কয়েক দফায় দাম বাড়তে পারে। অবশ্য সরকারের পক্ষ থেকে রমজান মাসে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে বিভিন্ন পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

রমজানকে কেন্দ্র করে অসাধু ব্যবসায়ীদের এমন মনোভাব কোনোভাবেই কাম্য নয়। অনেক মুসলিম দেশে দেখা যায়, রমজান মাসে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসে মূল্যছাড় দিতে।

রমজান মাসকে স্বাগত জানিয়ে এবং রোজাদারদের সম্মানে আগেভাগেই নিত্যপণ্যের বিশেষ মূল্যছাড় ঘোষণা করেছে আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীরা। এজন্য অধিকাংশ নিত্যখাদ্য পণ্যের দোকান বা বড় বড় সুপার মার্কেটগুলোতে লাগানো হয়েছে বিশেষ মূল্যছাড় সম্পর্কিত নানা রকম ঘোষণা সম্বলিত পোস্টার, ব্যানার ও ফেস্টুন।

এমনকি মসজিদগুলোতে নামাজ আদায় শেষে মুসল্লিরা যাওয়ার সময় তাদের হাতেও ধরিয়ে দেওয়া হচ্ছে এ সংক্রান্ত লিফলেট। আবার বাসা-বাড়িতেও পোস্টার বিতরণ করতে দেখা গেছে।

রমজানে আল্লাহতায়ালার নৈকট্য লাভের অপূর্ব সুযোগ হারাতে চাচ্ছেন না তারা। ফলে রমজান আসার আগেই রোজাদারদের প্রতি ব্যবসায়ীদের আগাম এই অপার শ্রদ্ধাবোধের বহিঃপ্রকাশ।

অথচ বাংলাদেশে মাহে রমজান আসার আগে থেকেই নিত্যপণ্যের দাম সহনীয় পর্যায়ে রাখতে সরকারের পক্ষ থেকে ব্যবসায়ীদের প্রতি বারবার তাগিদ দিয়ে আসলেও অবস্থাদৃষ্টে মনে হচ্ছে কে শোনে কার কথা। যেন সারা বছর এ মাসটির জন্য অপেক্ষায় থাকেন মুনাফাখোর ব্যবসায়ীরা। আর মাহে রমজান আসার আগেই বিশেষ মূল্যছাড় প্রতিযোগিতায় নেমে পড়েন আরব আমিরাতসহ মধ্যপ্রাচ্যের অধিকাংশ দেশের ব্যবসায়ীরা।