Alexa

বাবর কী করেছিলেন তা আমাদের বিবেচ্য নয়: সুপ্রিম কোর্ট

বাবর কী করেছিলেন তা আমাদের বিবেচ্য নয়: সুপ্রিম কোর্ট

বাবরি মসজিদ, ছবি: সংগৃহীত

কলকাতা ডেস্ক

দীর্ঘদিন চলা অয্যোধ্যা মামলায়, মধ্যস্থতাকারী নিয়োগ নিয়ে বুধবারও (৬ ফেব্রুয়ারি) রায় স্থগিত রাখল ভারতের সুপ্রিম কোর্ট। তবে এই ইস্যুতে দেশের শীর্ষ আদালত যে দ্রুত নির্দেশ দিতে চায়, সে কথাও জানিয়ে দিয়েছে।

সেজন্য সংশ্লিষ্ট পক্ষগুলিকে সম্ভাব্য মধ্যস্থতাকারীদের নামও জানাতে বলেছে আদালত। পাশাপাশি প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈয়ের নেতৃত্বাধীন সুপ্রিম কোর্টের পাঁচ সদস্যের সাংবিধানিক বেঞ্চ বলেছে, 'এই মামলা শুধুমাত্র সম্পত্তি নিয়ে নয়। এর সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে আবেগ এবং আস্থা।'

রাম মন্দিরের পক্ষে প্রবীণ আইনজীবী সিএস বৈদ্যনাথন বলেন, 'অতীতে বারবার প্রচেষ্টা সত্ত্বেও মধ্যস্থতার রাস্তায় কোনো ফল মেলেনি। অন্যদিকে মুসলিম সংগঠনগুলি সুপ্রিম কোর্টের পরামর্শ মেনে মধ্যস্থতার প্রস্তাবকেই সমর্থন জানায়। তাদের বক্তব্য, আদালতে রুদ্ধদ্বার প্রক্রিয়ায় এটি হওয়া উচিত।'

প্রসঙ্গত, ১৯৯৪ সালে সাবেক প্রধানমন্ত্রী নরসিমা রাও -এর সরকার সুপ্রিম কোর্টে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, কখনও যদি প্রমাণ হয় সেখানে মন্দির ছিল, তাহলে ওই জমি মন্দির নির্মাণের জন্য দিয়ে দেওয়া হবে।

শুনানি চলাকালীন হিন্দু মহাসভা বুধবার সুপ্রিম কোর্টে বলে, 'কোনো রকম মধ্যস্থতায় রাজি নয় হিন্দুরা। বিষয়টি মধ্যস্থতার দিকে ঠেলে দেওয়া ঠিক হবে না। আমরা ১৯৫০ সাল থেকে এই মামলার ফলের দিকে তাকিয়ে রয়েছি।'

এর পরই সুপ্রিম কোর্টের তরফ থেকে বলা হয়, 'এই জমি বিতর্কের গভীরতা ও দেশের রাজনীতিতে মধ্যস্থতার মাধ্যমে সমাধানের প্রভাব সম্পর্কে আদালত যথেষ্ট সজাগ। এই মামলা শুধুমাত্র জমি সংক্রান্ত নয়। এর সঙ্গে আবেগ ও বিশ্বাস জড়িয়ে রয়েছে। মুঘল শাসক বাবর কী করেছিলেন, তারপর কী হয়েছিল, সেসব আমাদের বিবেচ্য নয়। বর্তমানে স্থাপনাটা নিয়ে কীসের অস্তিত্ব রয়েছে, সেটাই আমরা বিচার করে দেখব।'

কলকাতা এর আরও খবর