ভোট দিলেন পশ্চিমবঙ্গের সেলিব্রেটিরাও

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, কলকাতা
বাবা-মাকে সঙ্গে ভোট দিয়েছেন অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিক/ ছবি: বার্তা২৪

বাবা-মাকে সঙ্গে ভোট দিয়েছেন অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিক/ ছবি: বার্তা২৪

  • Font increase
  • Font Decrease

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের শেষ দফায় উৎসাহের সঙ্গে ভোট দিলেন পশ্চিমবঙ্গের চলচ্চিত্র জগতের সেলিব্রেটিরা। কলকাতা দক্ষিণ লোকসভা কেন্দ্রে ভোট দেন বসিরহাটের তৃণমূল কংগ্রেসের তারকা প্রার্থী অভিনেত্রী নুসরাত জাহান। তাকে ঘিরে সংবাদ মাধ্যম ও উৎসাহীদের ভিড় জমে যায়। সকলকে ভোট দানের কথা মনে করিয়ে দিয়ে নুসরত জাহান আশা প্রকাশ করেন, ভোট হবে শান্তিপূর্ণ।

কলকাতার বাঙ্গুর হাইস্কুলে ভোট দেন অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিক। তার সঙ্গে ছিলেন সস্ত্রীক রঞ্জিত মল্লিক। ভোটগ্রহণকে গণতন্ত্রের উৎসব বলে বর্ণনা করেন কোয়েল। রঞ্জিত মল্লিক সবাইকে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানান।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/19/1558252425815.jpg
অভিনেত্রী শতাব্দী রায়/ ছবি: বার্তা২৪

 কলকাতার বাসন্তী দেবী কলেজে ভোট দেন অভিনেত্রী তথা বীরভূমের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী শতাব্দী রায়। ভোট দিতে এসে তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে জানান, তীব্র গরমের মধ্যেও মানুষের ভোট দেওয়ার উৎসাহ প্রবল।

তার নিজের কেন্দ্র বীরভূম সম্বন্ধে বলতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘বীরভূমে তার জয় নিশ্চিত।’ নির্বাচনে বিভিন্ন নেতা-নেত্রীর প্রচারে কু-মন্তব্য নিয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে শতাব্দী রায় বলেন, ‘ভাষা মানুষের সাংস্কৃতিক পরিচয়, এই ধরণের মন্তব্য বন্ধ হওয়া দরকার।’

রোজার মাসে প্রবল গরমের মধ্যে ভোটগ্রহণের বিষয় নিয়ে প্রশ্ন করলে শতাব্দী রায় জানান, ‘পশ্চিমবঙ্গের মানুষ তাদের গণতান্ত্রিক অধিকার নিয়ে যথেষ্ট সচেতন। তাই তারা কষ্ট উপেক্ষা করেও ভোটের লাইনে দাঁড়িয়েছেন।’

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/19/1558252504647.jpg
অভিনেতা চিরঞ্জিত চক্রবর্তী/ ছবি: বার্তা২৪

কলকাতার চারু চন্দ্র কলেজে সকাল সকাল ভোট দেন তৃণমূলের বিধায়ক তথা অভিনেতা চিরঞ্জিত চক্রবর্তী। তিনি জনগণকে নির্ভয়ে, শান্তিপূর্ণভাবে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানান। কলকাতার কার্মেল হাইস্কুলে ভোট দেন অভিনেত্রী তথা বিধায়ক দেবশ্রী রায়। তিনি বলেন, ‘পশ্চিমবঙ্গে নির্বাচন একটি উৎসব। মানুষ এখানে উসবের মেজাজেই ভোট দিচ্ছেন।’

নির্বাচন কমিশন থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী ভারতীয় সময় সকাল সাড়ে ১১টা পর্যন্ত ভোট পড়েছে ৩২ দশমিক ১৫ শতাংশ।

আপনার মতামত লিখুন :