Alexa

শাবিপ্রবিতে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক চিন্তাধারার ওপর সেমিনার

শাবিপ্রবিতে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক চিন্তাধারার ওপর সেমিনার

শাবিপ্রবিতে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক চিন্তাধারার ওপর সেমিনার, ছবি: বার্তা২৪

ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে সেমিনার ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (১৭ এপ্রিল) সকাল ১০টা বিশ্ববিদ্যালয়ের মিনি অডিটরিয়ামে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান: রাজনৈতিক চিন্তাধারা’ শীর্ষক প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন সেন্টার ফর পলিসি ডায়লগ (সিপিডি) এর সম্মানীয় ফেলো অধ্যাপক ড. রওনক জাহান। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ সভা ও সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন। পলিটিকাল স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক ড. জায়েদা শারমিন অনুষ্ঠানে সঞ্চালনা করেন।

শাবিপ্রবি’র বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গবেষণা সেলের উদ্যোগে আয়োজিত এই সেমিনার ও আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক হিসেবে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সরকার ও রাজনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. আল মাসুদ হাসান উজ্জামান, বিশেষ অতিথি হিসেবে শাবিপ্রবির কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. আনোয়ারুল ইসলাম এবং সমন্বয়ক হিসেবে গবেষণা সেলের পরিচালক অধ্যাপক ড. এসএম হাসান জাকিরুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া বক্তব্য রাখেন সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. আব্দুল গনি, শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রুহুল আমিন, সাধারণ সম্পাদক ইমরান খান।

আলোচনা সভায় অধ্যাপক ড. রওনক জাহান বলেন, ‘আমাদের প্রজন্ম, যারা বাংলাদেশকে স্বাধীনভাবে আবির্ভূত হতে দেখেছে এবং স্বাধীনতার পেছনে বঙ্গবন্ধুর অসামান্য অবদান প্রত্যক্ষ করেছেন। তাদের পক্ষে বঙ্গবন্ধু কর্মকাণ্ড এবং রাজনৈতিক চিন্তাধারা সহজ ভাষায় ব্যক্ত করা অত্যন্ত কঠিন। ১৯৭১ সালের উত্তাল দিনগুলি নিজ চোখে দেখেছি এজন্য নিজেকে ভাগ্যবান মনে করি। খুব কম লোকেরই ভাগ্য হয় ইতিহাস সৃষ্টি হতে দেখা।'

তিনি আরও বলেন, 'স্বাধিকার আন্দোলনকে স্বাধীনতার আন্দোলনে রূপান্তর হতে দেখেছি। এসব ঘটনার পিছনে বঙ্গবন্ধু অবদান অপরিসীম। প্রবন্ধটিতে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক চিন্তাধারার চারটি বৈশিষ্টের কথা বলা হয়েছে। যা পরবর্তীতে সংবিধানের মূলনীতি হিসেবে দেখতে পাওয়া যায়। বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক জীবন শুরু হয় একজন কর্মী হিসেবে কিন্তু খুব অল্প সময়ে তিনি হয়ে উঠেন কোটি কোটি মানুষের অবিসংবাদিত নেতা।’

শাবিপ্রবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. ফরিদ উদ্দিন আহমেদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর সুনির্দিষ্ট কিছু আদর্শ ছিল, মূল্যবোধ ছিল, লক্ষ্য ছিল এবং সেই লক্ষে পৌঁছাবার জন্য তিনি একনিষ্ঠভাবে ও নিরলসভাবে কাজ করেছেন। বঙ্গবন্ধুর অসামান্য অবদানের কারণে আজকে আমরা স্বাধীন জাতি হিসেবে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে আছি। তার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে আমরা অর্থনৈতিক মুক্তির দিকে এগিয়ে যাচ্ছি।

প্রসঙ্গত, এটি বঙ্গবন্ধু গবেষণা সেলের উদ্যোগে আয়োজিত দ্বিতীয় সেমিনার। সেমিনার শেষে বঙ্গবন্ধু রাজনৈতিক চিন্তাধারার ওপর প্রশ্নোত্তর অনুষ্ঠিত হয়।

আপনার মতামত লিখুন :