নারীদের কটূক্তি: দল থেকে বাদ পান্ডিয়া, রাহুল

কফি উইথ করনে অতিথি হিসেবে ছিলেন পান্ডিয়া ও রাহুল

সেন্ট্রাল ডেস্ক, বার্তা২৪.কম

নারীদের নিয়ে অশালীন মন্তব্যের শাস্তি পেতেই হলো ভারতে দুই তারকা ক্রিকেটার হার্দিক পান্ডিয়া ও লোকেশ রাহুলকে। অস্ট্রেলিয়ায় শুরু হওয়া প্রথম ওয়ানডেতে বাদ পড়েছেন দুজনই। শুধু তাই নয় পুরো সিরিজেই খেলা হচ্ছে না দুই ক্রিকেটারের। তাদেরকে ফেরত পাঠানো হচ্ছে দেশে। জানা গেছে, অনির্দিষ্টকাল পর্যন্ত তারা ক্রিকেট থেকে নির্বাসনে থাকবেন।

ভারতের জনপ্রিয় টেলিভিশন টক শো ‘কফি উইথ করনে’ একটি পর্বে অতিথি ছিলেন পান্ডিয়া ও রাহুল। অনুষ্ঠানটি প্রচার হতেই সেখানে পান্ডিয়ার কিছু মন্তব্য সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়। এরপর রীতিমতো সমালোচনার ঝড় ওঠে ভারতজুড়ে।

অবশ্য বুধবার (৯ জানুয়ারি) পান্ডিয়া তার ই‌ন্সটাগ্রাম পোস্টে লেখেন, ‘কফি উইথ করনে আমার মন্তব্যের জন্য আমি দুঃখিত। আমি যদি কাউকে কষ্ট দিয়ে থাকি তার জন্য আমি ক্ষমা চাইছি। সত্যি কথা বলতে কী শো-এর চরিত্রের সঙ্গে আমি কিছুটা বয়ে গিয়েছিলাম। আমি কোনওভাবেই কারও আবেগ বা সম্মানকে আঘাত করতে চাইনি।’

এরপর ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই) থেকে তাদের কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়। পান্ডিয়া বুধবার তার জবাব দিলেও উত্তরে সন্তুষ্ট ছিলেন না ‘কমিটি অফ অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্স’ প্রধান বিনোদ রাই। এরপরই ভারতীয় বোর্ড, অস্ট্রেলিয়া থেকে তাদের দেশে ডেকে পাঠায়। দলীয় শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে সর্বশেষ ৮২ বছর আগে কোন ক্রিকেটারকে বিদেশ সফর থেকে ভারতে ডেকে পাঠানো হয়েছিল।

এদিকে পান্ডিয়া ও রাহুলকে শোকজ করার আইনি দিক নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। শুধু তাই নয়, এই দুই খেলোয়াড়কে টিভি শো-তে যাওয়ার অনুমতি কে দিল, সেটা নিয়েও তদন্তের দাবি উঠেছে। নিয়ম অনুযায়ী বিসিসিআই-এর চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারদের কোনও অনুষ্ঠানে যেতে হলে অনুমতি নিতে হয় বোর্ডের।

চলতি বছরেই বিশ্বকাপ। বিশ্বকাপে ভারতের অন্যতম তুরুপের তাস হার্দিক পান্ডিয়া। কিন্তু অনাহুত বিতর্কে হুট করেই বিপাকে পড়ল ভারতীয় ক্রিকেট দল। পান্ডিয়া ও রাহুলের নির্বাসন কতটা দীর্ঘ হয় সেটা দেখতে হলে তাই অপেক্ষা করতে হবে।

খেলা এর আরও খবর