Alexa

আবাহনীর জয়ের দিনে মোহামেডানের হার

আবাহনীর জয়ের দিনে মোহামেডানের হার

নোফেলের কাছে হেরেই গেলো মোহামেডান

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ ফুটবলে একই দিনে ভিন্ন অভিজ্ঞতা হলো দুই জনপ্রিয় ক্লাব আবাহনী লিমিটেড ও মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের। সোমবারের আরেক ম্যাচে চট্টগ্রাম আবাহনীর সঙ্গে ড্র করেছে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব। অবশ্য এদিন বড় অঘটনের জন্ম দিয়েছে নোফেল স্পোর্টিং ক্লাব। তারা হারিয়ে দিয়ে মোহামেডানকে। আরেক ম্যাচে সাইফ স্পোর্টিংকে অনায়াসে হারিয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে ফিরেছে আবাহনী।

এক সময়ের জায়ান্ট মোহামেডান এখন পথ হারিয়ে একেবারেই এক সাদামাটা দল। সাফল্য নেই। মাঠের ফুটবলেও হতাশ দর্শকরা। তারই একঝলক ফের দেখা গেল। সোমবার নোয়াখালীর শহীদ ভুলু স্টেডিয়ামে নবাগত নোফেলের বিপক্ষে ১-০ গোলে হেরে গেল দলটি।

ময়মনসিংহের রফিক উদ্দিন ভূইয়া স্টেডিয়ামে অনায়াস জয় নিয়েই মাঠ ছেড়েছে আবাহনী। ফেভারিটরা বুঝিয়ে দিয়েছে আরেকটি ট্রফি জয়ের জন্য তারা প্রস্তুত। খেলার নবম মিনিটে নাবীব নেওয়াজ জীবনের গোলে এগিয়ে যায় বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।

এরপরের সময়টুকু শুধুই সানডে চিজোবার। ২৮তম ও ৫৬তম মিনিটে দুটো গোল করে আবাহনীর জয় নিশ্চিত করেন। আর ৬৩তম মিনিটে সাইফের হয়ে ব্যবধান কমান দেনিস বলশেকভ (১-৩)।

এই জয়ে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে ১০ ম্যাচে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে প্রিমিয়ার ফুটবল লিগে শীর্ষস্থানে ফের আবাহনী।

নোয়াখালীর শহীদ ভুলু স্টেডিয়ামে সেই ব্যর্থতার পথেই হেটেছে মোহামেডান। নোফেল স্পোর্টিং পরিস্থিতি বুঝে খেলেছে দুর্দান্ত ফুটবল। তবে জয়সূচক গোলটি পেতে ৮৩ মিনিট পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়েছে। ইসমাইল বাঙ্গুরার পেনাল্টি গোলে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে নোফেল স্পোর্টিং।

এ অবস্থায় প্রিমিয়ার লিগে নয় ম্যাচে মাত্র ৫ পয়েন্ট মোহামেডানের। ৬টি ম্যাচেই হেরেছে দলটি। সমান ম্যাচে নোফেলের অর্জন ৮ পয়েন্ট।

এদিকে ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে শেখ জামালকে আটকে দেয় চট্টগ্রাম আবাহনী। দুই দলই গোল মিসের মহড়া দিয়ে শেষ অব্দি পয়েন্ট ভাগাভাগি করে নিয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :