Alexa

ট্রাম্প-ওবামাদেরও অভিনন্দনে ভাসছেন টাইগার

ট্রাম্প-ওবামাদেরও অভিনন্দনে ভাসছেন টাইগার

আনন্দে আত্মহারা টাইগার উডস

যেন নতুন জন্ম হলো টাইগার উডসের! হারিয়েই গিয়েছিলেন তিনি। যার হাতে নিয়মিত উঠেছিল ট্রফি সেই গলফার কীনা ব্যর্থ হচ্ছিলেন বছরের পর বছর। অবশেষে ১১ বছর পর আবারো দেখা দিয়েছে সাফল্য! ক্যারিয়ারের ১৫তম মেজর ট্রফি জিতে এখন উড়ছেন উডস।

অগাস্টা মাস্টার্সের শিরোপা জয়ের পর থেকেই অভিনন্দনে ভেসে যাচ্ছেন টাইগার উডস। যুক্তরাষ্ট্রের এই গলফারের বন্দনায় মেতেছেন খোদ দেশটির প্রেসিডেন্ট। ডোনাল্ড ট্রাম্প, বারাক ওবামা থেকে শুরু করে টেনিস কিংবদন্তি সেরেনা উইলিয়ামস সবারই মুখে এই গলফারের বন্দনা। এমন ঐতিহাসিক প্রত্যাবর্তনের প্রতীক্ষাতেই যেন ছিলেন সবাই!

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ট ট্রাম্প টুইটারের লিখেছেন, ‘অভিনন্দন টাইগার উডস! সত্যিকারের গ্রেট চ্যাম্পিয়ন। চাপেও যারা নিজের লক্ষ্যে স্থির থাকতে পারেন, তাদের আমি ভালবাসি। অসাধারণ প্রত্যাবর্তনই!’

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Apr/16/1555398192845.jpg

সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামাও মেতেছেন টাইগার বন্দনায়। টুইটারে লিখেছেন, ‘অভিনন্দন! এতোটা উত্থান-পতন সামাল দিয়ে মাস্টার্স জয়ে তুমি দেখিয়ে দিয়েছো- তোমার দক্ষতা, জেদ আর দৃঢ় চরিত্রকে।’

অগাস্টা মাস্টার্সে টাইগার উডসের সাফল্য চোখ জলে নিয়ে এসেছে সেরেনা উইলিয়ামসের। ২০০৮ সালের পর যে গলফার ব্যক্তিগত জীবন, ইনজুরি আর অফ ফর্মে হারিয়েই গিয়েছিলেন তিনি। ১১ বছর পর উডসের সাফল্যে খুশি এই টেনিস তারকা বলছিলেন, ‘ওর জয় দেখে চোখ অশ্রুসজল হয়ে উঠেছিল। চোট-আঘাত ওকে অনেক ভুগিয়েছে। সেই ধাক্কা সামলে ও ঘুরে দাঁড়িয়েছে। তোমাকে দেখে আমি ভীষণ ভাবে অনুপ্রাণিত।’

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Apr/16/1555398208138.jpg

অনেক প্রতীক্ষা শেষে এই সাফল্য, দারুণ খুশি টাইগার উডসও। চোট, অস্ত্রোপচার আর পারিবারিক সমস্যা কাটিয়ে ফিরতে পারবেন সেই বিশ্বাসটা ছিল কিংবদন্তি এই গলফারের। জানাচ্ছিলেন, ‘আমি জানতাম এই দিনটা আসবে। নিজের ওপর আস্থা ছিল আমার।’ তার চেয়েও খুশি হয়েছেন ছেলে চার্লি উডস। এ বছরই স্কুলে ‘২০১৯ সালের লক্ষ্য কী’ জানতে চাইলে চার্লি লিখেছিল, ‘আবারও বাবাকে চ্যাম্পিয়ন হতে দেখতে চাই।’

ছেলের সেই লক্ষ্যটা বাবা চটজলদি পূরণ করে দিয়েছেন। রোববার জর্জিয়ার ন্যাশনাল গলফ কোর্সে ট্রফি জয়ের পরই চার্লিকে জড়িয়ে ধরে আনন্দে চিৎকার করে উঠেন টাইগার! বলতে থাকেন, ‘আমি সত্যিই ফের জিতেছি।’

আপনার মতামত লিখুন :