আরেকটি জয়ের খোঁজে আবাহনী

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট,বার্তা২৪.কম
সংবাদ সম্মেলনে দুই দলের কোচ ও অধিনায়ক- ছবি: বাফুফে

সংবাদ সম্মেলনে দুই দলের কোচ ও অধিনায়ক- ছবি: বাফুফে

  • Font increase
  • Font Decrease

নেপালের চ্যাম্পিয়ন ক্লাব মানাং মার্সিয়াংদিকে হারিয়ে শুরু। প্রতিপক্ষের মাঠ ১-০ গোলের জয়ের পর এবার দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন দলটির প্রতিপক্ষ ভারতের মিনেরভা পাঞ্জাব এফসি। এক দল আছে ছন্দে। আরেক দল চেনা পথ হারিয়ে খেলতে এসেছে বাংলাদেশে। ভারতের আই লিগ চ্যাম্পিয়ন মিনেরভার মুখোমুখি হচ্ছে আবাহনী লিমিটেড।

এএফসি কাপে আরেকটি জয়ের খোঁজে ধানমন্ডির ক্লাবটি। বুধবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা পৌনে ৬টায় ‘ই’ গ্রুপের ম্যাচে লড়বে আবাহনী ও মিনেরভা। দুই দলই খেলতে নামবে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচ। এরমধ্যে আবাহনী জয়ে শুরু করলেও শুরুতে হোঁচট খেয়েছে ভারতের ক্লাবটি। চেন্নাই এফসির সঙ্গে নিজেদের গোলশূন্য ড্রতে হারিয়েছে পয়েন্ট।

এ অবস্থায় আরেকটি জয়ের খোঁজে আবাহনী। দলের কোচ মারিও লেমোস প্রতিপক্ষ দলটিকে নিয়ে বেশ হোমওয়ার্ক করেছেন। জানিয়ে রাখলেন, ‘তাদের রক্ষণভাগ বেশ শক্তিশালী। ওদের দুই সেন্ট্রাল ডিফেন্ডারই বিদেশি। সঙ্গে স্থানীয় খেলোয়াড়রাও বেশ খেলছে। তবে আমাদের আক্রমণভাগও শক্তিশালী। আমরা শেষ পাঁচ ম্যাচে পেয়েছি ১২ গোল। আমাদের দলের ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড ওয়েলিংতন সিরিনো প্রিওরি প্রথম ম্যাচ ভালো খেলেছে। ওর কাছে এরচেয়েও ভাল ফুটবল প্রত্যাশা করি। দলকে অনেক কিছু দেওয়ার আছে ওর।’

অবশ্য টানা ফুটবলে অবশ্য কিছুটা চিন্তিতও আবাহনী কোচ। মারিও লেমোস মঙ্গলবার সংবাদ সম্মেলনে বলছিলেন, ‘দেখুন, মাত্র দুইদিন আগে শেখ জামালের বিপক্ষে খেলেছি। এএফসি কাপের ম্যাচটি খেলার আগে দুই দিন সময় পেয়েছি। ওদের ফিটনেস রিকভারির জন্য বিশ্রাম দেওয়া খুবই দরকার ছিল। আমরা কিছু বিষয় নিয়ে কাজ করেছি। আশা করছি এই ম্যাচটাও জিতবো।’

এই ম্যাচেও আবাহনীর তুরুপের তাস হতে পারেন সানডে চিজোবা আর নাবীব নেওয়াজ জীবন। সঙ্গে ওয়েলিংতন সিরিনো ঝলসে উঠলে জয় আবাহনীরই হবে।

অবশ্য প্রস্তুত ভারতের দলটিও। মঙ্গলবার মিনেরভার কোচ শচিন বারদে বলছিলেন, ‘আমরা খুবই আত্মবিশ্বাসী; ছেলেরা জয়ে ফিরতে কঠিন পরিশ্রম করছে। তবে অবশ্যই আবাহনী ভালো দল। ওদের খেলা দেখেছি। কিন্তু আমরা জিততেই মাঠে নামবো।’

আপনার মতামত লিখুন :