Alexa

ভারত ম্যাচের পর পরিবার সঙ্গে রাখতে পারবে পাকিস্তান

ভারত ম্যাচের পর পরিবার সঙ্গে রাখতে পারবে পাকিস্তান

স্ত্রী-সন্তানকে কাছে রাখতে পারছেন মোহাম্মদ আমিররা

আগের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। বিশ্বকাপ চলাকালে হোটেলে স্ত্রী ও সন্তানকে সঙ্গে রাখার ব্যাপারে পিসিবি নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিলো। সেই নিষেধাজ্ঞা এখন শিথিল হয়েছে। নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ১৬ জুনের ম্যাচের পর পাকিস্তান ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়রা একই হোটেলে নিজ পরিবারকে সঙ্গে রাখতে পারবেন।

১৬ জুন ওল্ড ট্রাফোর্ডে পাকিস্তানের ম্যাচ ভারতের বিপক্ষে। সেই ম্যাচে নামার আগে বিশ্বকাপে পাকিস্তান আরো চারটি ম্যাচ খেলবে। মুলত ভারতের বিপক্ষে সেই ম্যাচের পরই পাকিস্তান এবারের বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে খেলতে পারবে কিনা- সে সম্পর্কে স্পষ্ঠ একটা ধারণা পাওয়া যাবে।

ভারতের বিপক্ষে ১৬ জুনের আগে পাকিস্তান আরো যে চারটি ম্যাচ খেলতে তাতে তাদের প্রতিপক্ষ থাকছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ, ইংল্যান্ড, শ্রীলঙ্কা ও অস্ট্রেলিয়া।

এই পাঁচ ম্যাচের আগে পাকিস্তান দলের মনোযোগ যেন অন্য কোনো দিকে না যায়- সম্ভবত সেই ধারণা থেকেই এই সময়ের জন্য হোটেলে পরিবার-পরিজন সঙ্গে রাখার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে।

তবে দলের দুজন ক্রিকেটার এই সার্বিক নিষেধাজ্ঞার বাইরে থাকছেন। আসিফ আলী ও ইমাদ ওয়াসিম। তারা বিশ্বকাপ চলাকালে পুরোটা সময় পরিবারকে সঙ্গে রাখার বিশেষ অনুমতি পেয়েছেন। পারিবারিক কারণেই পিসিবি তাদের এই বিশেষ অনুমতি দিয়েছে।

বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের সময় অবশ্য পাকিস্তান দলের ক্রিকেটাররা তাদের সঙ্গে একই হোটেলে পরিবার-পরিজন সঙ্গে রেখেছিলেন। ৩১ মে বিশ্বকাপের দ্বিতীয়দিন পাকিস্তান তাদের প্রথম ম্যাচ খেলতে নামছে। নটিংহ্যামশায়ারে এদিন পাকিস্তান মুখোমুখি হবে ওয়েস্ট ইন্ডিজের।

বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ম্যাচের শুরুটা পাকিস্তানের ভালো হয়নি। প্রথম প্রস্ততি ম্যাচে তারা আফগানিস্তানের কাছে হেরেছে ৩ উইকেটে। দ্বিতীয় এবং শেষ প্রস্তুতি ম্যাচে পাকিস্তান লড়বে ২৬ মে, রোববার। ম্যাচটি হবে কার্ডিফের সোফিয়া গার্ডেনে। সেই ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ বাংলাদেশ।

আপনার মতামত লিখুন :