Barta24

শনিবার, ২০ জুলাই ২০১৯, ৫ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

অস্ট্রেলিয়াকে উড়িয়ে ইংল্যান্ড ফাইনালে

অস্ট্রেলিয়াকে উড়িয়ে ইংল্যান্ড ফাইনালে
জেসন রয়ের ব্যাটেই ইংল্যান্ড পেলো অনায়াস জয়- ছবি: আইসিসি
এম. এম. কায়সার
স্পোর্টস এডিটর
বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
বার্মিংহ্যাম
ইংল্যান্ড থেকে


  • Font increase
  • Font Decrease

ইংল্যান্ড যে সহজ কায়দায় সেমিফাইনাল জিতলো, দেখে মনে হলো যেন বিকেলে বাগানে বেড়িয়ে এলো!

এতই সহজ! এতই অনায়াস!

৮ উইকেটের বড়ো জয় নিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে উড়িয়ে দিয়ে বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠে এলো ইংল্যান্ড। তখনো ম্যাচের ১০৭ বল বাকি! সেমিফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার কষ্টকর ২২৩ রান ইংল্যান্ড টপকে গেলো আয়েশি ও দাপুটে ভঙ্গিতে, হেসে-খেলে। ঐ যে বাগানে হেঁেট আসার মতো সহজ আনন্দে!

দীর্ঘ ২৭ বছর পর ইংল্যান্ড আরেকবার বিশ্বকাপের ফাইনালে নাম লেখালো। ১৪ জুলাই লর্ডসে যে ফাইনালে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড। দু’দলের কেউ এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপের ফাইনালে জেতেনি। সেই হিসেব বদলে যাচ্ছে ১৪ জুলাই।

এর আগে চারবার বিশ্বকাপ ফাইনালে খেলেছে ইংল্যান্ড। নিউজিল্যান্ড খেলেছে একবার। কিন্তু কোনবারই চ্যাম্পিয়ন হতে পারেনি এই দু’দলের কেউ। সেই হিসেবও বদলে যাচ্ছে এবার। বিশ্বকাপ ক্রিকেট এবার নতুন চ্যাম্পিয়ন পাচ্ছে।

এজবাস্টনের সেমিফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার মামুলি ২২৩ রানের তাড়া করতে নেমে ইংল্যান্ডের দুই ওপেনার জ্যাসন রয় ও জনি বেয়ারস্টোর মারকুটো ব্যাটিংয়েই মুলত এই ম্যাচের সমাধান পেয়ে যায় ইংল্যান্ড। ওপেনিং জুটিতে তারা তুলে ১২৪ রান। তাও আবার মাত্র ১৭.২ ওভারে। ৪৩ বলে ৩৪ রান করে বেয়ারস্টো আউট হন। অন্যপ্রান্তে জ্যাসন রয়ের ব্যাটে তখন ধুমধাড়াক্কা ব্যাটিংয়ের সুর। মাত্র ৬৫ বলে ৮৫ রানে হাসলো তার ব্যাট। ৯ বাউন্ডারি ও ৫ ছক্কায় সাজানো জ্যাসন রয়ের এই ব্যাটিংই অস্ট্রেলিয়ার বোলিং বিভাগকে উড়িয়ে দিলো।
উইকেট পড়ছে না দেখে পার্টটাইম স্পিনার স্টিভেন স্মিথকে আক্রমণে আনেন অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক অ্যারেন ফিঞ্চ। দারুণ ফর্মে থাকা জ্যাসন রয় স্টিফেন স্মিথের সেই ওভারে টানা তিন বলে তিন ছক্কা হাঁকান। সেই ওভারে স্মিথ খরচা গুনেন ২১ রান!

যেভাবে খেলছিলেন জ্যাসন রয় তাতে নিজের অভিষেক বিশ্বকাপে নিজের দ্বিতীয় সেঞ্চুরির খুব কাছে পৌছে গিয়েছিলেন। কিন্তু আম্পায়ার কুমার ধর্মাসেনা সেটা হতে দিলেন কই? চরম ভুল সিদ্ধান্ত দিয়ে ধর্মসেনা তাকে আউট ঘোষণা করলেন। বল তার ব্যাটেই লাগেনি। অথচ ধর্মসেনা জানালেন তিনি ক্যাচ আউট। ইংল্যান্ডের রিভিউ আগেই শেষ হয়ে গিয়েছে। তাই রিভিউ নেয়ার কোনো সুযোগ নেই। আম্পায়ারকে শাপ-শাপান্ত করতে করতে মাঠ ছাড়লেন জ্যাসন রয়, সেঞ্চুরি থেকে মাত্র ১৫ রান দুরুত্বে তখন তিনি।

২০ ওভারে ১৪৭ রানে ২ উইকেট হারানো ইংল্যান্ডকে জয়ের পথ দেখান অধিনায়ক ইয়ূন মরগান ও জো রুট।

সকালে টস জয়ী অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিংয়ের কোমরটা ভেঙ্গে যায় পাওয়ার প্লে’তেই। ১৪ রানে শুরুর ৩ উইকেট হারানো অস্ট্রেলিয়ার সেই যে ধুঁকে চলা শুরু, ব্যাস ব্যাটিংয়ের কোমরটা সোজা হলো না! অ্যালেক্স ক্যারি চোট নিয়েও লড়ে গেলেন। এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যানের ৪৬ এবং স্টিভেন স্মিথের ৮৫ রান ছাড়া অস্ট্রেলিয়ার বাকি সবাই ব্যর্থ ব্যাটসম্যান।

২২৩ রান নিয়ে ইংল্যান্ডের মতো অসাধারণ ব্যাটিংয়ের দলকে আটকানো যায় না। বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল থেকে প্রথমবারের মতো বিদায় নিয়ে এখন সেই দুঃখেই কাতর অস্ট্রেলিয়া।

পরিসংখ্যান জানাচ্ছে-অস্ট্রেলিয়া তাদের আগের ছয়টি বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে কখনো হারেনি। সেমিফাইনাল জয়ের সেই রেকর্ড আর তাদের অটুট রইলো না।

এবারের বিশ্বকাপ শুরুর আগে থেকেই ইংল্যান্ড হট ফেভারিট। সেই মর্যাদা নিয়েই ১৪ জুলাইয়ের ফাইনালে উঠে এলো স্বাগতিকরা।

ইটস্ কামিং হোম-গানটা বার্মিংহ্যামের এজবাস্টন ক্রিকেট গ্রাউন্ড ছাপিয়ে এখন পুরো ইংল্যান্ড জুড়েই শোনা যাচ্ছে!

সংক্ষিপ্ত স্কোর-

অস্ট্রেলিয়া: ৪৯ ওভারে ২২৩/১০ (ওয়ার্নার ৯, ফিঞ্চ ০, স্মিথ ৮৫, হ্যান্ডসকম ৪, কেয়ারি ৪৬, স্টয়নিস ০, ম্যাক্সওয়েল ২২, কামিন্স ৬, স্টার্ক ২৯, বেহরেনডর্ফ ১, লায়ন ৫*; ওকস ৩/২০, আর্চার ২/৩২, উড ১/৪৫,  রশিদ ৩/৫৪)।
ইংল্যান্ড: ৩২.২ ওভারে ২২৬/২ (রয় ৮৫, বেয়ারস্টো ৩৪, রুট ৪৯*, মরগান ৪৫*; স্টার্ক ১/৭০, কামিন্স ১/৩৪)।
ফল: ইংল্যান্ড ৮ উইকেটে জয়ী
ম্যাচসেরা: ক্রিস ওকস

আপনার মতামত লিখুন :

কলম্বোতে পা রাখল বাংলাদেশ ক্রিকেট দল

কলম্বোতে পা রাখল বাংলাদেশ ক্রিকেট দল
নিরাপদেই শ্রীলঙ্কায় পৌঁছলেন তামিম-মোসাদ্দেক হোসেনরা

তামিম ইকবালের নেতৃত্বে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল এখন শ্রীলঙ্কায়। শনিবার দুপুরেই দেশ ছেড়েছিলেন টাইগার ক্রিকেটাররা। এরপর স্থানীয় সময় সন্ধ্যা ৬টার দিকে কলম্বোতে পা রাখেন তামিম-মুশফিকুর রহিমরা। তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ খেলতে অবশ্য পুরো দল একসঙ্গে যেতে পারেনি।

গত ২১ এপ্রিল শ্রীলঙ্কার হোটেল ও চার্চে ভয়ংকর সন্ত্রাসী হামলায় প্রাণ হারিয়েছিল আড়াই শর বেশি মানুষ। এরপর থেকেই জরুরি অবস্থা জারি করে শ্রীলঙ্কা। সেই ঘটনার পর প্রথম কোনো আন্তর্জাতিক দল হিসেবে বাংলাদেশ দল গেল শ্রীলঙ্কা সফরে। এ কারণেই বাংলাদেশ দলকে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দিচ্ছে শ্রীলঙ্কা। বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রীয় প্রতিনিধিদের জন্য যে নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকে তাই পাবেন তামিম ইকবালরা।

চট্টগ্রামে আফগানিস্তান ‘এ’ দলের বিপক্ষে সিরিজ ও ভারতে মিনি রঞ্জি ট্রফিতে খেলার কারণে ১৪ জনের দলের মধ্যে ৭ জন যাচ্ছেন পরে। এরমধ্যে শনিবার কলম্বো গেলেন তামিম ইকবাল, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মেহেদী হাসান মিরাজ, মুশফিকুর রহিম, সৌম্য সরকার, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত ও মুস্তাফিজুর রহমান। রোববার যাওয়ার কথা রুবেল হোসেনের। ইনজুরি সামলে নিয়েছেন এই পেস বোলার।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/20/1563635963858.jpg

আফগানিস্তানের ‘এ’ দলের বিপক্ষে দ্বিতীয় ওয়ানডে খেলে দ্বীপ দেশটিতে যাবেন এনামুল হক বিজয়, মোহাম্মদ মিঠুন, সাব্বির রহমান ও ফরহাদ রেজা। ভারত থেকে শ্রীলঙ্কায় যাবেন- তাসকিন আহমেদ ও তাইজুল ইসলাম।

এর আগে শুক্রবার ইনজুরিতে এই সফর শেষ হয়ে যায় অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজার। চোটের কারণে খেলতে পারছেন না পেসার মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনও। তাদের বদলে দলে আছেন তাসকিন আহমেদ ও ফরহাদ রেজা।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/20/1563635980900.jpg

আগামী ২৩ জুলাই একটি প্রস্তুতি ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে শ্রীলঙ্কা সফর। এরপর আগামী ২৬, ২৮ ও ৩১ জুলাই স্বাগতিকদের সঙ্গে তিনটি ওয়ানডে ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। ১ আগষ্ট দেশে ফেরার কথা টাইগার ক্রিকেটারদের।

শ্রীলঙ্কা সফরে বাংলাদেশ দল-

তামিম ইকবাল (অধিনায়ক), সৌম্য সরকার, এনামুল হক বিজয়, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মোসাদ্দেক হোসেন, সাব্বির রহমান, মোহাম্মদ মিঠুন, মুস্তাফিজুর রহমান, রুবেল হোসেন, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, ফরহাদ রেজা ও তাসকিন আহমেদ।

বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলেই অবসরে যাবেন মালিঙ্গা?

বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলেই অবসরে যাবেন মালিঙ্গা?
ক্যারিয়ারের শেষ প্রান্তে দাঁড়িয়ে লাসিথ মালিঙ্গা

অবসর নিয়ে চিন্তা-ভাবনা অনেক আগে থেকে শুরু করেছেন লাসিথ মালিঙ্গা। ইংল্যান্ড ও ওয়েলসে ক্রিকেট বিশ্বকাপ চলাকালে তার আভাসও দিয়ে ছিলেন শ্রীলঙ্কার এ ফাস্ট বোলার। দেশের মাটিতে দেশী দর্শকদের সামনে খেলেই ক্রিকেটকে বিদায় বলে দিতে চান মালিঙ্গা। তাই গণমাধ্যমে গুঞ্জন ছড়িয়ে পড়েছে- বাংলাদেশের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলেই অবসরে চলে যাচ্ছেন মালিঙ্গা।

বিশ্বকাপ চলাকালেই অবসরের আভাসটা দিয়ে রেখেছেন ৩৫ বছর বয়সী মালিঙ্গা, ‘লড়াই করতে করতে আমি এখন ক্লান্ত। প্রত্যাশা করি টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলতে পারব। কিন্তু বিশ্বকাপ শেষে আমি শ্রীলঙ্কায় ফিরব। এটা নিয়ে এসএলসির সঙ্গে কথা বলব। নিজের ভিশনটা তাদেকে দেখাব।’

সাবেক লঙ্কান ওয়ানডে অধিনায়ক মালিঙ্গা আরো বলেন, ‘যদি আমার ভিশনের সঙ্গে তাদের ভিশন মিলে যায়। তাহলে আমি থেকে যাব। অন্যথায় শিগগিরই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ছেড়ে দেব। বিশ্বকাপের পর শ্রীলঙ্কার হয়ে একটি ম্যাচ খেলে বিদায় বলে দিতে চাই।’

বিশ্বকাপ শেষে এখন শ্রীলঙ্কা সফরে আছে বাংলাদেশ। এর পর যাবে নিউজিল্যান্ড। মালিঙ্গা ইঙ্গিত দেন এ সিরিজ দুটিই হতে পারে তার শেষ আন্তর্জাতিক অ্যাসাইনমেন্ট। এনিয়ে মালিঙ্গা বলেন, ‘আমি ৩৬ বছরে পা রেখেছি। আগের মতো শক্তি নেই আমার।’

অবসর নেওয়ার আগে বাংলাদেশের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে ফাস্ট বোলিং আক্রমণে নেতৃত্ব দেবেন মালিঙ্গা। তার সঙ্গে থাকবেন কাসুন রাজিথা, নুয়ান প্রদ্বীপ ও লাহিরু কুমারা।

বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজের জন্য ঘোষিত ২২ জনের দলে ফিরেছেন নিরোশান ডিকভেলা, দানুশকা গুনাথিকালা, আকিলা ধনাঞ্জয়া ও লাকসান সান্দাকান।

তবে দল থেকে ছিটকে গেছেন মিলিন্দা সিরিবর্ধনা, জীবন মেন্ডিস, সুরঙ্গা লাকমল, জেফরে ভ্যান্ডারসে ও দিনেশ চান্দিমাল।

কলম্বোর আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশের বিপক্ষে শ্রীলঙ্কা তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলবে ২৬, ২৮ ও ৩১ জুলাই।

শ্রীলঙ্কার ওয়ানডে দল: দিমুথ করুনারত্নে, কুশল পেরেরা, আভিশকা ফার্নান্ডো, কুশল মেন্ডিস, অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস, লাহিরু থিরিমান্নে, শিহান জয়াসুরিয়া, ধনঞ্জয়া ডি সিলভা, নিরোশান ডিকভেলা, দানুশকা গুনাথিলাকা, দাসুন শানাকা, ভানিদু হাসারাঙ্গা, আকিলা ধনাঞ্জয়া, আমিলা আপোন্সো, লাকসান সান্দাকান, লাসিথ মালিঙ্গা, নুয়ান প্রদীপ, কাসুন রাজিথা, লাহিরু কুমারা, থিসারা পেরেরা, ইসুরু উদানা ও লাহিরু মাদুশঙ্কা।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র