পিছিয়ে গেল কিউই ক্রিকেটারদের সংবর্ধনা

স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
কেন উইলিয়ামসনদের পারফরম্যান্সে খুশি দেশটির ক্রিকেটপ্রেমীরা

কেন উইলিয়ামসনদের পারফরম্যান্সে খুশি দেশটির ক্রিকেটপ্রেমীরা

  • Font increase
  • Font Decrease

অবিশ্বাস্য ফাইনালে নিউজিল্যান্ড বিশ্বকাপ শিরোপার দেখা পায়নি ঠিকই। কিন্তু ক্রিকেট অনুরাগীদের মন ছুঁয়েছে তাদের মাঠের পারফরম্যান্স। আম্পায়ার কুমার ধর্মসেনা ভুল করে ইংল্যান্ডকে এক রান বাড়তি না দিলে বিশ্ব শিরোপা মাথার ওপর উঁচিয়ে ধরতো তারাই। কিন্তু রুদ্ধশ্বাস ও হাড্ডাহাড্ডি লড়াই শেষে রানার্স-আপের তকমা নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে তাদের।

কিন্তু নিউজিল্যান্ডের এ অর্জন কম কিসে। টানা দুই বিশ্বকাপের রানার্স-আপ তারা। দেশে বীরোচিত সংবর্ধনাই পাওয়ার যোগ্য কেন উইলিয়ামসনরা। কিউই সরকার সেটা করবেও। তবে একটু দেরিতে। কারণটা অবশ্য যৌক্তিক।

ঘটা করে স্বাগত জানাতে গেলে সব ক্রিকেটারদের এক সঙ্গে দেশে থাকতে হবে। কিন্তু সেটা এখন হচ্ছে না। কারণ সব ক্রিকেটার এক সঙ্গে দেশে ফিরছেন না। কয়েকজন ক্রিকেটার ছুটি কাটানোর জন্য যুক্তরাজ্যেই থেকে যাবেন। তাই ক্রিকেটারদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠান পিছিয়ে দিয়েছে নিউজিল্যান্ড সরকার।

সব ক্রিকেটারদের এক সঙ্গে না পাওয়ার কারণটা ব্যাখ্যা করেন  নিউজিল্যান্ড ক্রিকেটের প্রধান নির্বাহী ডেভিড হোয়াইট, ‘কয়েকজন ক্রিকেটার ভিন্ন ভিন্ন সময়ে দেশে ফিরবেন। কয়েকজন ফিরবেনই না। অন্যদের অন্য কোথাও খেলার প্রতিশ্রুতি রয়েছে। এটাই এখন বাস্তবতা।’

দিনক্ষণ এখনো ঠিক হয়নি। সংবর্ধনা অনুষ্ঠান আয়োজন করতে কয়েক সপ্তাহ লেগে যাবে। এমনটাই জানান হোয়াইট, ‘আমরা প্রশংসার দাবী রাখে এমন অনুষ্ঠান আয়োজন করতে চাচ্ছি। কিন্তু বাস্তবতার কারণে তা করতে কয়েক সপ্তাহ সময় লেগে যাবে।’

হোয়াইট আরো বলেন, ‘ক্রীড়া ও বিনোদন মন্ত্রী গ্র্যান্ট রবার্টসনের সঙ্গে আমরা আলোচনা করেছি। ক্রিকেটারদের সংবর্ধনা দিতে প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগের কথা আমাদের মনে আছে।’

রোববার লর্ডসে বিশ্বকাপ শিরোপা হাতছাড়া করেছে কেন উইলিয়ামসনরা। টুর্নামেন্টের ফাইনাল ম্যাচে বাউন্ডারি হাঁকানোর হিসেবে পিছিয়ে থাকায় ইংল্যান্ডের কাছে শিরোপা হাতছাড়া করে ব্ল্যাক ক্যাপরা।

১০০ ওভার খেলা শেষে কোনো দলই জিততে পারেনি। নিউজিল্যান্ডের সমান ২৪১ রান করে ম্যাচ টাই করে স্বাগতিকরা। ম্যাচের ভাগ্য গড়ায় সুপার ওভারে। সেখানে ইংল্যান্ডের সমান ১৫ রান তুলে টাই করে বসে নিউজিল্যান্ড। কিন্তু বাউন্ডারি হাঁকানোর হিসাবে এগিয়ে থাকায় শিরোপা জিতে নেয় ইয়ন মরগানরা।

আপনার মতামত লিখুন :