২০২৮ লস এঞ্জেলস অলিম্পিকে ক্রিকেট!

স্পোর্টস এডিটর,বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম
আইসিসি’র প্রধান নির্বাহী মানু সোহনি

আইসিসি’র প্রধান নির্বাহী মানু সোহনি

  • Font increase
  • Font Decrease

পৃথিবীর এতো খেলা আছে অলিম্পিকে, নেই শুধু ক্রিকেট। সেই অভাব এবং শূন্যতা পুরণের উদ্যোগ নিয়েছে এমসিসি’র ক্রিকেট কমিটি। সবকিছু ঠিক থাকলে ২০২৮ সালের লস এঞ্জেলস অলিম্পিকে ক্রিকেট শুরু হতে পারে।

আইসিসি’র প্রধান নির্বাহী মানু সোহনির সঙ্গে বৈঠক শেষে এমসিসি’র ক্রিকেট কমিটির চেয়ারম্যান মাইক গ্যাটিং সাংবাদিকদের এই তথ্য জানান।

গ্যাটিং জানান-‘আমরা এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণের জন্য কাজ করছি। আইসিসি’র প্রধান নির্বাহীও আশাবাদি যে ২০২৮ সালের অলিম্পিকে আমরা ক্রিকেটও দেখতে পাবো। ভারত সহ অন্যান্য দেশগুলোকে নিয়ে অলিম্পিকের আসরে ক্রিকেটের আয়োজন করতে পারলে খেলাটার বিশ্বায়ন হবে। এটা সম্ভবপর করতে পারলে ক্রিকেট উন্নতির জন্য তা বেশ বড় একটা পদক্ষেপ হবে।’

গ্যাটিং জানাচ্ছিলেন-‘খুব বেশি নয়, অলিম্পিকে ক্রিকেট হবে দু’সপ্তাহের মতো। মাসখানেকের মতো লম্বা সময় এতে লাগবে না। তাছাড়া প্রতি চার বছর পর একবার। এতো লম্বা সময়ের পরপর মাত্র দু’সপ্তাহের জন্য ক্রিকেট আয়োজন করাটা তেমন সমস্যা হওয়ার কথা নয়। একটু আগে থেকেই পরিকল্পনা করলে অলিম্পিকের জন্য ক্রিকেট অবশ্যই সময় বের করে নিতে আসতে পারবে।’

তবে অলিম্পিকে ক্রিকেটের অভিষেক হওয়ার অনেক আগেই কমনওয়েলথ গেমস কিন্তু ক্রিকেট ঠিকই দেখেছে। ১৯৯৮ সালের কুয়ালালামপুরের কমনওয়েলথ গেমসে ক্রিকেটের অভিষেক হয়। ২০২২ সালে বার্মিংহ্যামে পরবর্তী কমনওয়েলথ গেমসেও মেয়েদের ক্রিকেট থাকছে বলে এমসিসি’র ক্রিকেট কমিটির চেয়ারম্যান মাইক গ্যাটিং নিশ্চিত করেছেন।

পাকিস্তানে বিদেশি দলগুলোর ক্রিকেট সিরিজ ও সফর পুনরায় চালুর প্রস্তাবের পক্ষেও সায় দিচ্ছে এমসিসি ক্রিকেট কমিটি। তবে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দেয়ার আগে এমসিসি ক্রিকেট কমিটি পাকিস্তানের নিরাপত্তা ব্যবস্থা দেখার জন্য নিরাপত্তা দল পাঠানোর কথাও জানিয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :