ফুটবলে আরেকটি ‘যুদ্ধ’ জিততে প্রস্তুত বাংলাদেশ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট,বার্তা২৪.কম
বাংলাদেশ ফুটবল দল। ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশ ফুটবল দল। ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

একটা বিষয় পরিস্কার যে, উভয় দল একে অন্যকে নিয়ে গেমস শুরুর আগে মোটেও তেমন কোন পরিকল্পনা করেনি। দুরতম চিন্তায় আসেনি যে এই দুই দল এবারের এশিয়ান গেমসের দ্বিতীয় পর্বে মুখোমুখি হবে।

অথচ আজ সন্ধ্যায় সেই লড়াই। বাংলাদেশ বনাম উত্তর কোরিয়া। ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাড়ে ছ’টায়। এবারের এশিয়ান গেমসের ফুটবলে গ্রুপ পর্বে বাংলাদেশের সময়কালকে মনে হচ্ছে রূপকথার ভেলায় চড়ে সামনে এগিয়ে চলা। গ্রুপে শক্তিশালী প্রতিপক্ষ থাইল্যান্ড ও কাতারকে পেছনে ফেলে বাংলাদেশ এই গেমসের ফুটবলে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠে আসবে-এমনটা কে ভেবেছিল?

বাস্তবতা হল, কেউ ভাবেনি। না ফুটবল দল। না বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। দায় নিয়েই বলছি, এমনকি দেশের ক্রীড়া সাংবাদিকদের কাছেও বাংলাদেশ ফুটবল দলের গ্রুপ পর্বে এই সাফল্যটা ছিল অবাক হওয়ার মতোই!

এশিয়ান গেমস ফ্টুবল বাংলাদেশের কাছে নতুন কিছু নয়। এর আগে অনেকবারই এই আসরে খেলেছে বাংলাদেশ। কিন্তু প্রতিবারই প্রথম পর্ব থেকেই বিদায়। আর এবারের দল নিয়ে বাংলাদেশ যখন ইন্দোনেশিয়ায় খেলতে যায় তখন দলের র‌্যাঙ্কিং ১৯৪! গেমসে অংশ নেয়া দলগুলোর মধ্যে র‌্যাঙ্কিংয়ের এমন দুর্বল অবস্থা যে আর কারোর নেই। এই বাজে র‌্যাঙ্কিংয়ের একটি দল দ্বিতীয় পর্বে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে ফেলবে; গেমস শুরুর আগে এমন সম্ভাবনার কথা কেউ বললে, হয়তো তখন তাকে টিপ্পনি শুনতে হতো!

সেই তুলনায় ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে উত্তর কোরিয়া ১০৮ নাম্বার দল হলে এবারের গেমসে তারা অন্যতম হট ফেভারিট। এশিয়ান গেমসের দ্বিতীয় রাউন্ড তাদের জন্য মোটেও নতুনকিছু নয়। সর্বশেষ গেলবারের এশিয়ান গেমসের ফুটবলে ফাইনালেও খেলেছিল তারা। স্বর্নপদক জিততে পারেনি। রানার্সআপ হয়েই রৌপ্যপদক গলায় ঝুলিয়ে দেশে ফিরেছিল।

তবে এবারের আসরে শুরুটা মোটেও ভাল হয়নি তাদের। মিয়ানমারের সঙ্গে ড্র’য়ে শুরু। পরের ম্যাচে ইরানের কাছে ০-৩ গোলে হার! দুই ম্যাচে এক পয়েন্ট নিয়ে খাদের কিনারায় ঝুলছিল উত্তর কোরিয়া। গ্রুপের শেষ ম্যাচে এসে সৌদি আরবের বিপক্ষে ৩-০ গোলের দাপুটে জয়ে সব হিসেব বদলে দেয় উত্তর কোরিয়া। পয়েন্ট সমান হলেও গোলগড়ে তারা গ্রুপ রানার্সআপ হয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠে আসে।

যেখানে আজ তাদের প্রতিপক্ষ বাংলাদেশ।

মজার ঘটনা হল প্রথম পর্বে বাংলাদেশ ও উত্তর কোরিয়া উভয় দলের প্রথম দুই ম্যাচের হিসেব-নিকেষ একেবারে হুবহু এক। এক ম্যাচে হার। অন্য ম্যাচে ড্র। এই পর্যায়ে গোলের মাপজোখও একই রকম! হারা ম্যাচে গোলের ব্যবধান ৩-০। ড্র ম্যাচে ১-১। প্রথম দ্ইু ম্যাচে দু’দলের পয়েন্টও সমান সমান ছিল। মোটে ১!

গ্রুপের শেষ ম্যাচে দুই দলের সামনে অভিন্ন লক্ষ্য ছিল। টিকতে হলে জিততে হবে। দুই দলই সেটা করে দেখাল। এবং বেশ সার্থকভাবেই। ঠিক যাকে বলে খাদের কিনারা থেকে উঠে দাড়ানো; সেটাই করে দেখাল গ্রুপের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশ ও উত্তর কোরিয়া।

ফুটবলে সবসময় খাতা-কলমের হিসেব কষে সমাধান মেলে না। মাঠের পারফরমেন্সই সবকিছু। আর তাই ফুটবলে ফেভারিট দলই প্রতিদিন ম্যাচ জিতে না। আউটসাইডাররাও হিসেব বদলে দেয়। বাংলাদেশ এবারের এশিয়ান গেমসের সেই আউটসাইডার।

আজকের দ্বিতীয় রাউন্ডের লড়াইয়ে উত্তর কোরিয়ার বিপক্ষে ম্যাচেও সেই হিসেব নিয়েই নামছে বাংলাদেশ। সন্দেহতীতভাবে ম্যাচে ফেভারিট উত্তর কোরিয়া। ফেভারিট তত্ত্বের হিসেবটা কি আজও বদলে দিতে পারবে বাংলাদেশ।

দলের অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়ার সাফ কথা-দলের খেলা অনেক উন্নত হয়েছে। আমাদের টার্গেটও বদলে গেছে এখন। সামনের লক্ষ্য একটাই- কোয়ার্টার ফাইনাল!’

কাতার ম্যাচে জয়ের নায়ক জামাল ভূঁইয়া অবশ্য আজকের প্রতিপক্ষ উত্তর কোরিয়ার শক্তি সম্পর্কে সন্মান জানিয়ে বললেন-‘উত্তর কোরিয়া অবশ্যই বড় দল। শক্তিশালী দল। আমরা ভালই জানি এই ম্যাচটা আমাদের জন্য তেমন সহজ কিছু হবে না। তবে আমরা নিজেদের শক্তি এবং সমস্যা নিয়েই বেশি পরিকল্পনা করছি। এই ম্যাচের ওপরই আমাদের সব মনোযোগ এখন। নিজেদের ওপর আস্থা আছে আমাদের। হয়তো এই ম্যাচে আগের মতো তেমন বেশি সুযোগ আমরা পাবো না। তবে যখনই সুযোগ পাবো , সেটা কাজে লাগাতে হবে। আমাদের কাছে এখন এই ম্যাচটা একটা যুদ্ধের মতোই!’

এই ‘ফুটবল যুদ্ধে’ জিতে বাংলাদেশ কি পারবে এবারের এশিয়ান গেমসে সাফল্যের গল্পকে আরও উচুঁতে তুলতে?

বাংলাদেশের জন্য একরাশ শুভকামনা!

আপনার মতামত লিখুন :