Barta24

বুধবার, ২১ আগস্ট ২০১৯, ৬ ভাদ্র ১৪২৬

English

লে মেরিডিয়ানের দখলে ফুটপাত, ওভারব্রিজ নির্মাণও বন্ধ

লে মেরিডিয়ানের দখলে ফুটপাত, ওভারব্রিজ নির্মাণও বন্ধ
লে মেরিডিয়ান-ছবি/বার্তা২৪
সাব্বির আহমেদ
সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

বিমানবন্দর সড়কের ফুটপাত দখলে রেখে হোটেল ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে ‘লে মেরিডিয়ান’। রীতিমতো ফুটপাতের সামনে নিরাপত্তা প্রহরী বসিয়েছে হোটেল কর্তৃপক্ষ। ফলে সাধারণ মানুষের চলাচলে বাঁধার সৃষ্টি হচ্ছে। এমনকি সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর (সওজ) আপত্তি জানালেও ফুটপাত ছাড়েনি হোটেল কর্তৃপক্ষ। এছাড়াও সেখানে একটি ফুটওভার ব্রিজ নির্মাণ কাজে বাঁধা হয়ে দাঁড়িয়েছে হোটেলটি।

গত শুক্রবার (২৯ সেপ্টেম্বর) সরেজমিনে দেখা গেছে, নিরাপত্তা প্রহরী ফুটপাতে দাঁড়িয়ে হোটেলে প্রবেশের গাড়িগুলো তল্লাশি করছে। ফলে পথচারীদের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে  সড়কের ওপর দিয়ে চলাচল করতে হচ্ছে।

সওজের সড়ক রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তারা জানান, সড়কের জায়গা দখলে রেখে হোটেল সংলগ্ন একটি ফুটওভারব্রিজের নির্মাণ কাজ বন্ধ রেখেছে হোটেল কর্তৃপক্ষ। এক্ষেত্রে তারা পুলিশকে ‘নিরাপত্তা অজুহাত’ দেখিয়েছে।

সড়ক রক্ষণাবেক্ষণকারী প্রতিষ্ঠানের প্রকৌশলী মামুন রশীদ জানান, লে মেরিডিয়ানের সমানে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে রাস্তা পারাপার হওয়ায় প্রায়ই হতাহতের ঘটনা ঘটে। তাই সেখানে ফুটওভার নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেয় সওজ। কিন্তু হোটেল কর্তৃপক্ষ পুলিশ পাঠিয়ে কাজ বন্ধ করে দেয়।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Sep/30/1538276324277.jpg

অভিযোগ আছে ট্রাফিক পুলিশ (ঢাকা উত্তর)-এর ডিসি প্রবীর কুমার রায় এ নির্মাণ কাজ বন্ধ করার নির্দেশ দিয়েছেন। যোগাযোগ করা হলে তিনি বার্তা২৪.কম’কে বলেন, ‘এখানে ফুটওভার ব্রিজের কোনো প্রয়োজন নেই। তাছাড়া নির্মাণের আগে পুলিশেরও অনুমতি নেওয়া হয়নি।’

তবে সড়কে কোনো নির্মাণ কাজে পুলিশের অনুমতির প্রয়োজন হয় না। ফলে ফুটওভার ব্রিজের নির্মাণ আকারও শুরু করে সওজ। কিন্তু এবার ক্ষিলক্ষেত থানা পুলিশ শ্রমিকদের ধরে নেওয়ারও হুমকি দেখিয়ে নির্মাণ বন্ধ করে দেয়। খিলক্ষেত থানার ওসি শহিদুল ইসলাম বার্তা২৪.কম’কে বলেন, ‘পুলিশের ওপর মহলের নির্দেশে ব্রিজ নির্মাণে বাধা দিয়েছি।’

এ বিষয়ে সওজ’র প্রকৌশলী মামুন বার্তা২৪.কম’কে বলেন, ‘লে মেরিডিয়ান থেকে ফুটপাত দখলমুক্ত করা যায়নি। বাঁধার মুখে  নির্মাণ কাজ শেষ করা যাচ্ছে না।’

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Sep/30/1538276340476.jpg

এদিকে, সওজ মনে করে-  বিমানবন্দর সড়কে আরও দুটি স্থানে অভিজাত হোটেলের পাশে ফুটওভার ব্রিজ রয়েছে। তাদের কোনো সমস্যা হচ্ছে না। তাহলে লে মেরিডিয়ানের কেন হবে? মূলত অবৈধ সুবিধা দিতেই পুলিশ অনৈতিকভাবে এটাতে জড়িয়েছে।

উদাহারণ দিয়ে সংস্থাটি জানায়, লে মেরিডিয়ানের এক কিলোমিটার আগে খিঁলক্ষেত ফুটওভার ব্রিজের পাশে ঢাকা রিজেন্সি ও দুই কিলোমিটার পেছনে রেডিসনের পাশেই ফুটওভার ব্রিজ আছে। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে রেডিসনের সামনে আন্ডারপাস নির্মাণ চলছে।

এদিকে সড়ক ঢাকা সার্কেল সূত্রে জানা গেছে, ফুটপাত ছাড়তে হোটেল কর্তৃপক্ষকে এবং নির্মাণ কাজে সহায়তা করতে ঢাকা মহানগর পুলিশকে (ডিএমপি) চিঠি দেওয়া হবে।

এ বিষয়ে বক্তব্য জানতে লে মেরিডিয়ান হোটেলের মালিক আমিন আহমাদের মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেন নি। তবে নাম প্রকাশ না করার শর্তে হোটেল ম্যানেজমেন্টের একজন কর্মকর্তা বার্তা২৪.কম’কে বলেন, ‘আমি এ বিষয়ে কিছুই জানি না, মালিকপক্ষ বলতে পারবেন।’

আপনার মতামত লিখুন :

জম্মু ও কাশ্মীর নিয়ে বাংলাদেশের অবস্থান

জম্মু ও কাশ্মীর নিয়ে বাংলাদেশের অবস্থান
ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশ এক বিবৃতিতে বলেছে, ভারত সরকার কর্তৃক ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিল করা দেশটির অভ্যন্তরীণ বিষয়।

বুধবার (২১ আগস্ট) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ সর্বদা নীতিগতভাবে সমর্থন জানিয়েছে যে আঞ্চলিক শান্তি ও স্থিতিশীলতা বজায় রাখার পাশাপাশি উন্নয়নের বিষয়টিও সব দেশের অগ্রাধিকার হওয়া উচিত।

এদিকে মঙ্গলবার (২০ আগস্ট) পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন বলেছেন, 'কাশ্মীর সম্পর্কে তারা (ভারত) আমাদের কাছ থেকে কিছু জানতে চায়নি। তারা এ নিয়ে আমাদের বিব্রতকর কোনো প্রশ্ন করেনি। এটা তাদের ব্যাপার-স্যাপার। আমরা এই অঞ্চলে শান্তি, স্থিতিশীলতা, উন্নয়ন এবং মানুষের প্রত্যাশা চাই।'

রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন যমুনায় বাংলাদেশ-ভারত পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের দ্বিপক্ষীয় বৈঠক শেষে এক ভিডিও বার্তায় এসব কথা বলেন তিনি।

'ইতিবাচক দিকে এগিয়ে যেতে আমাদের অটুট বন্ধন দেখে ভাল লাগছে'

'ইতিবাচক দিকে এগিয়ে যেতে আমাদের অটুট বন্ধন দেখে ভাল লাগছে'
ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর, ছবি: সংগৃহীত

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর বুধবার (২১ আগস্ট) তিন দিনের সফর শেষে ঢাকা ছাড়ার আগে এক টুইট বার্তায় বলেছেন 'ইতিবাচক দিকে এগিয়ে যেতে আমাদের অটুট বন্ধন দেখে ভাল লাগছে।'

বাংলাদেশ ছাড়ার আগে সকালে এক টুইট বার্তায় জয়শঙ্কর বলেন, 'বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন এর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা সেরে ঢাকা ছাড়ছি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানাই আমাকে সাক্ষাৎ দেবার জন্য। ইতিবাচক দিকে এগিয়ে যেতে আমাদের অটুট বন্ধন দেখে ভাল লাগছে।'

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Aug/21/1566365953697.jpg

 

সোমবার (১৯ আগস্ট) রাত ৯টার দিকে তিনি বাংলাদেশ সফরে আসেন। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দক্ষিণ এশিয়া ডেস্কে মহাপরিচালক তারিক মোহাম্মদ ও ঢাকাস্থ ভারতীয় হাইকমিশনের কর্মকর্তারা তাকে বিদায় জানান।

এর আগে পররাষ্ট্র সচিব হিসেবে বাংলাদেশ এলেও পররাষ্ট্রমন্ত্রী হওয়ার পর এটাই তার প্রথম ঢাকা সফর ছিল। এ সফরে বাংলাদেশ ও ভারতের দ্বিপক্ষীয় বিভিন্ন বিষয় আলোচনা হয়েছে। তবে কোনো চুক্তি হয়নি।

এদিকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২ অক্টোবর দিল্লি যাচ্ছেন। ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের ইন্ডিয়ান চ্যাপ্টার বা রিজিওনাল এজেন্ডা ইন্ডিয়ান ইকোনমিক সামিটে অংশ নেয়ার কথা রয়েছে তার। 

এ ফোরামের যোগদানের পাশাপাশি এ  সফরে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক হবার সম্ভবনা রয়েছে। সে বিষয়ে ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জয়শঙ্কর বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেনের সঙ্গে আলোচনা করেছেন।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র