সড়কটির খবর রাখে না কেউ

নূর আহমদ, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
সড়কটির খবর রাখে না কেউ। ছবি: বার্তা২৪.কম

সড়কটির খবর রাখে না কেউ। ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

কোম্পানীগঞ্জ-ছাতক-আমবাড়ি পাকা রাস্তাটি ভেঙে যান চলাচল অনেকটাই বন্ধ হয়ে গেছে। সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগের আওতাধীন এই সড়কটি জরুরি ভিত্তিতে সংস্কার প্রয়োজন। কোম্পানীগঞ্জ ও ছাতক উপজেলার সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা যেকোনো সময় বিচ্ছিন্ন হয়ে যেতে পারে।

২০০৪-০৫ সালে সড়ক ও জনপথ বিভাগ (সওজ) কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে সুনামগঞ্জের ছাতক পর্যন্ত ১০ কিলোমিটার দীর্ঘ পাকা রাস্তা নির্মাণ করে। পরে ২০১৫ সালে রাস্তাটি সওজকে দেখভালের দায়িত্ব দেওয়া হয়। নির্মাণের পর থেকে রাস্তাটিতে আর মেরামত কাজ হয়নি। ফলে সড়কটি চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

বুড়িডহর গ্রামের বাসিন্দা জুয়েল আহমদ জানান, দিন দিন ব্রিজটির উভয় পাশের মাটি সরে যাচ্ছে। যেকোনো সময় যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যেতে পারে।

তিনি জানান, কেবল ব্রিজের এপ্রোচ-ই নয়, সংস্কারের অভাবে ছাতক-কোম্পানীগঞ্জ সড়কটির স্থানে স্থানে পিচের আস্তরণ উঠে গিয়ে গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে যানবাহন।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Oct/15/1539604648604.jpg

লামনীগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আফতাব আলী জানান, রাস্তাটি চলাচলের অনুপযোগী হওয়ায় স্কুলের শিক্ষার্থীরা ভোগান্তিতে রয়েছে। জনগুরুত্বপূর্ণ এ রাস্তাটি জরুরি ভিত্তিতে মেরামত করা না হলে ভোগান্তি আরও বাড়বে বলে জানান তিনি।

তেলিখাল ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আপ্তাব আলী কালা মিয়া জানান, এ সড়ক সংস্কারের জন্য স্থানীয় সংসদ সদস্য ইমরান আহমদ মন্ত্রণালয়ে ডিও লেটার দিয়েছেন। শিগগিরই সড়কটির সংস্কার কাজ শুরু হবে।

তিনি জানান, শুরুতে সড়কটির মাটির কাজ এলজিইডি করলেও পরবর্তীতে সওজের কাছে এর দায়িত্ব হস্তান্তর করা হয়। মাঝখানে কিছুদিন এ সড়ক নিয়ে এলজিইডি-সওজের মধ্যে রশি টানাটানি হয়েছে।

স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) কোম্পানীগঞ্জের উপজেলা প্রকৌশলী শাহ আলম জানান, সড়কটি স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে নির্মাণ করা হয়নি। এটি সওজ করেছে। বর্তমানে এটির দেখভালের দায়িত্বও সওজের। তাই তাদের সঙ্গে কথা বলে মেরামতের দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া যেতে পারে।

আপনার মতামত লিখুন :