কথা বলতে পারছেন না কাঙালীনি সুফিয়া

হাসপাতালে কাঙালীনি সুফিয়া / ছবি: বার্তা২৪

মঙ্গলবার (৪ ডিসেম্বর) রাতে ঢাকার সাভার পৌর এলাকার জামসিং মহল্লায় নিজ বাড়িতে হঠাৎ বুকে ব্যাথা অনুভব করতে করতে অসুস্থ হয়ে পড়েন লোক সংগীতশিল্পী কাঙালীনি সুফিয়া। পরে তাকে সাভারের এনাম মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।

বৃহস্পতিবার (৬ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় কাঙালীনি সুফিয়ার মেয়ে পুষ্প এমন তথ্যই জানিয়েছেন।

তিনি বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘হাসপাতালে ভর্তির পর চিকিৎসকের পরামর্শে ওষধপত্র দেয়ার পর একটু একটু করে কথা বলতে পারছে। তবে পুরোপুরিভাবে কথা বলতে পারছে না।’

তিনি আরও বলেন,‘চিকিৎসকরা জানিয়েছেন মা ব্রেনস্টোক করেছে। তার হার্টেও সমস্যা ধরা পড়েছে।’

লালন একাডেমি কুষ্টিয়ার সভাপতি ও জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. আসলাম হোসেন বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘কাঙালীনি সুফিয়া গুরুতর অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে বিষয়টি জানা নেই। তবে তার চিকিৎসার খোঁজখবর নেয়া হবে এবং তার পাশে থাকবো।’

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের প্রসিদ্ধ লোকসঙ্গীত শিল্পী নন্দিত বাউল রাণী কাঙ্গালিনী সুফিয়া। যার গানের সুনাম দেশ ছেড়ে রয়েছে ভিনদেশেও। সুরের মূর্ছনায় ভাসিয়ে জয় করে নিয়েছেন কোটি ভক্তের হৃদয়। ‘কোনবা পথে নিতাইগঞ্জে যাই’ ‘পরাণের বান্ধব রে’ প্রভৃতি গানের জন্য তিনি বিখ্যাত। কাঙ্গালিনী সুফিয়া মাত্র ১৪ বছর বয়সে গ্রাম্য একটি অনুষ্ঠানে গান গেয়ে শিল্পী হিসেবে পরিচিতি লাভ করেন।

বাউল গানের শিল্পী কাঙ্গালিনী সুফিয়া প্রায় ৩০টি জাতীয় ও ১০টি আন্তর্জাতিক পুরস্কার লাভ করেছেন। তিনি নিজে গান লিখেছেন প্রায় ৫০০টি।

জাতীয় এর আরও খবর

//election count down