পাবনায় বখাটেদের হামলায় মা-মেয়েসহ আহত ৩

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
দুর্বৃত্তের হামলায় আহতরা, ছবি: সংগৃহীত

দুর্বৃত্তের হামলায় আহতরা, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

পাবনায় যৌন হয়রানির প্রতিবাদ করায় বাড়িতে এসে মা, মেয়ে ও ছেলেকে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করেছে বখাটে সন্ত্রাসীরা।

সোমবার (১৭ ডিসেম্বর) সকালে পাবনা পৌর এলাকার সাধুপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। আহতদের পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহতরা হলেন, সাধুপাড়া এলাকার আবু মুসার স্ত্রী সখিনা খাতুন (৪০), তার মেয়ে মুসলিমা খাতুন (২৭) ও ছেলে সাদ্দাম হোসেন (৩০)। আহত সখিনা ও সাদ্দাম হোসেন জানান, ২ বছর আগে মুসলিমা সৌদি আরবে চাকরি করার সময় তার স্বামী সাইফুল ইসলামকে সৌদি আরবে নিয়ে যান।

এরপর মুসলিমা দেশে ফেরার পর তার স্বামী কোন সংসার খরচ দেন না। তাদের সংসারে একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। সম্প্রতি স্বামীর সাথে ছাড়াছাড়ি হওয়ার পর মুসলিমা খাতুন পেটের তাগিদে একটি গরুর খামারে কাজ শুরু করেন। কর্মস্থলে যাতায়াতে রাস্তায় বের হলেই মুসলিমা খাতুনকে প্রায়ই নানাভাবে অশ্লীল ভাষায় যৌন হয়রানি করে স্থানীয় কয়েকজন বখাটে।

এ ঘটনার প্রতিবাদ করেন মুসলিমার মা সখিনা খাতুন ও ছেলে সাদ্দাম হোসেন। এরই জের ধরে এলাকার বখাটে সন্ত্রাসীরা সোমবার সকালে বাড়িতে এসে চড়াও হয়ে মা সখিনা খাতুন, মেয়ে মুসলিমা খাতুন ও ছেলে সাদ্দামকে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করে চলে যায়। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ব্যাপারে জেনারেল হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক রেজিষ্টার ডা : আকসাদ আল মাসুর বলেন, 'আমরা তিনজন আহত রোগী পেয়েছি। তাদের মধ্যে সখিনা খাতুনের মাথা ফাটা, মুসলিমার হাতে ও শরীরের জখম এবং সাদ্দাম হাত ভাঙ্গা অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে আসে। তাদের মধ্যে সখিনার অবস্থা গুরুতর।'

পাবনা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ওবাইদুল হক জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তবে কি কারণে তাদের উপর হামলা হয়েছে সে বিষয়টি পরিষ্কার নয়। তারপরও পুলিশ তদন্ত করে দেখছে। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার মতামত লিখুন :