'স্থানীয় সরকারের বিকেন্দ্রীকরণ না করলে প্রবৃদ্ধি ব্যাহত হবে'

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ঢাকা, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

স্থানীয় সরকারের বিকেন্দ্রীকরণ ও শক্তিশালীকরণ নিশ্চিত না করতে পারলে দেশের প্রবৃদ্ধি ব্যাহত হবে বলে মন্তব্য করেছেন পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় (এলজিআরডি) মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম।

রোববার (৭ এপ্রিল) বিকালে স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর সঙ্গে সচিবালয়ে তাঁর অফিস কক্ষে বাংলাদেশে নিযুক্ত জাতিসংঘের আবাসিক সমন্বয়কারী ও ইউএনডিপির আবাসিক প্রতিনিধি প্রতিনিধিদলের সাক্ষাৎকালে তিনি এ কথা জানান। মিয়া সেপ্পোর নেতৃত্বে  প্রতিনিধিদলটি  এলজিআরডি মন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাত করে।

এসময় স্থানীয় সরকারকে আরও বিকেন্দ্রীকরণ ও নিজস্ব উৎস থেকে অর্থ সংগ্রহ করার বিষয়ে গুরুত্বারোপ করে প্রতিনিধিদল।

সাক্ষাৎকালে তারা জাতিসংঘ ও এর বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্ক ও সহযোগিতার কথা তুলে ধরেন। তারা শিক্ষা, স্বাস্থ্য, স্যানিটেশনসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশের অগ্রগতির প্রশংসা করেন।

প্রতিনিধিদল জানান, বাংলাদেশে বর্তমানে প্রায় ৩০ শতাংশ লোক শহরে বাস করে এবং আগামীতে প্রায় ৫০ শতাংশ লোক শহরে বাস করবে। ফলে সেবাখাতসমূহ ব্যয়বহুল ও সমস্যাবহুল হয়ে পড়বে। এ সমস্যা মোকাবিলায় তারা সরকারের সঙ্গে আরও কিছু প্রকল্প শুরু করার প্রস্তাব করেন।

মন্ত্রী প্রতিনিধিদলকে জানান, ‘সরকার সম্প্রতি ভবন নির্মাণ, ফায়ার সেফটি, নিরাপদ সড়ক প্রভৃতি ক্ষেত্রে বাড়তি গুরুত্ব দিচ্ছে। বিভিন্ন পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে।’

মন্ত্রী জাতিসংঘ ও এর অঙ্গ সংগঠনসমূহের অব্যাহত সহযোগিতার প্রশংসা করেন। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার ২, ৩ ও ৬ নং লক্ষ্য অর্জনে তাদের আরও ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান।

স্থানীয় সরকার মন্ত্রী ঢাকা উত্তর, ঢাকা দক্ষিণ, গাজীপুর ও কুমিল্লা সিটি করপোরেশন এলাকায় Food Change System and Nutrition প্রকল্প শুরু করায় জাতিসংঘের প্রশংসা  করেন। পাশাপাশি জাতিসংঘের সঙ্গে বাংলাদেশের বিদ্যমান সহযোগিতা ও সম্পর্ক অব্যাহত থাকবে বলে আশা প্রকাশ করেন।

প্রতিনিধিদলে অন্যান্যের বাংলাদেশে জাতিসংঘের সমন্বয় বিশ্লেষক রুমানা খান, খাদ্য ও কৃষি সংস্থা (FAO) এর প্রতিনিধি রবার্ট সিম্পসন, ইউনিসেফের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাইরুজ মাউজি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

 

আপনার মতামত লিখুন :