খুলনায় ভোটার তালিকা হালনাগাদ শুরু

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, খুলনা, বার্তা২৪.কম
ছবি: বার্তা২৪

ছবি: বার্তা২৪

  • Font increase
  • Font Decrease

সারাদেশের মতো খুলনা বিভাগেও শুরু হয়েছে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম। মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) দুপুরে খুলনা সরকারি মহিলা কলেজ অডিটোরিয়ামে এই কর্মসূচির উদ্বোধন করেন বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, ভোটার তালিকা হালনাগাদ করতে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) নিয়োগ করা তথ্য সংগ্রহকারীরা মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) থেকে বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করবেন। প্রথম পর্যায়ে ১৩ মে পর্যন্ত দেশের ৬৪টি জেলার ১৩৫টি উপজেলায় তথ্য সংগ্রহ কার্যক্রম চলবে।

এরমধ্যে খুলনা জেলার সোনাডাঙ্গা, দৌলতপুর ও খুলনা সদর উপজেলা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। এ সময়ের মধ্যে ২০০৪ সালের ১ জানুয়ারি বা তার পূর্বে জন্মগ্রহণকারী বাংলাদেশি যারা ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত নন, তাদের তথ্য সংগ্রহ করা হবে। এছাড়া এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায় ভোটার স্থানান্তর ও মৃত ভোটারদের তথ্য সংগ্রহ কার্যক্রমও চলবে। এবারের হালনাগাদে হিজড়া জনগোষ্ঠী হিজড়া হিসেবে ভোটার তালিকায় নিবন্ধিত হতে পারবেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া বলেন, ভবিষ্যতে জাতীয় পরিচয়পত্র ছাড়া কোনো কাজ করা যাবে না। স্কুলে ভর্তি, পাসপোর্ট গ্রহণ, সরকারি চাকরিপ্রাপ্তিসহ অন্যান্য সেবা পেতে জাতীয় পরিচয়পত্র আবশ্যক হবে। ভোটার তালিকার জন্য তথ্য সংগ্রহ মানেই জাতীয় পরিচয়পত্রের জন্য তথ্য নেওয়া।

তথ্য সংগ্রহে জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতা করার আহবান জানিয়ে তিনি আরও বলেন, দেশের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি অতীতের যেকোনো সময়ের তুলনায় ভালো। তা সত্ত্বেও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী তথ্য সংগ্রহকারীদের নিরাপত্তার বিষয়ে নজর রাখবে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের যুগ্মসচিব (প্রশাসন ও অর্থ) মো. কামাল উদ্দিন বিশ্বাস, খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার সরদার রকিবুল ইসলাম, খুলনা রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি মো. হাবিবুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (এলএ) মো. ইকবাল হোসেন এবং কেসিসির প্যানেল মেয়র আলী আকবার টিপু। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন খুলনার আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ইউনুচ আলী। অনুষ্ঠানে স্বাগত জানান জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা এম মাজহারুল ইসলাম।

উল্লেখ্য, খুলনায় ভোটার তালিকা হালনাগাদে প্রায় ১ লাখ ৮০ হাজার নাগরিকের তথ্য সংগ্রহের টার্গেট নিয়ে মাঠে নামছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। প্রথম পর্যায়ে শুধু খুলনা সিটি করপোরেশন এলাকার পাঁচটি থানায় তথ্য সংগ্রহ করা হবে। এ কাজ করবেন ২৪৪ জন তথ্য সংগ্রহকারী এবং ৫১ জন সুপারভাইজার। পরবর্তীতে জেলার নয়টি উপজেলায় তথ্য সংগ্রহ করা হবে।

আরও পড়ুন: দেশব্যাপী ভোটার তালিকা হালনাগাদ শুরু

আপনার মতামত লিখুন :