Alexa

এগিয়ে যাবার, এগিয়ে রাখার বার্তা২৪.কম

এগিয়ে যাবার, এগিয়ে রাখার বার্তা২৪.কম

ছবি: বার্তা২৪.কম

কিছু মানুষ আছেন, যাদের জন্মই হয়েছে এগিয়ে যাবার জন্য, এগিয়ে রাখার জন্য। বলছি, কোটি কোটি মানুষের ভিড়ে একজন অসাধারণ মানুষের গল্প। যে কিনা বিস্ময় বালক। হ্যাঁ, সে এখনো মনে-প্রাণে, সাহসে, বয়সে এক সুদীপ্ত বালক। তার মাঝে তারুণ্যময় কর্মস্পৃহা এখনো বলীয়ান। শুধু নিজের জন্য নয়, তিনি যেন সবার জন্য এক অতুলনীয় মানুষ।

তার মেধা, সৃষ্টি, দক্ষতা, অর্জন, চিন্তাধারা, পরিকল্পনা, মননশীলতা সবই রঙিন। আলোময়, ঝলমলে, হাস্যোজ্জ্বল। কখনো পিছিয়ে পড়ার গল্প নেই তার জীবনালেখ্যে। তিনি শুধুই এগিয়ে গেছেন, যাচ্ছেন, আরও যাবেন। তবে তিনি একা নয়, তার সৃষ্টি কর্মে যুক্ত মানুষদেরও এগিয়ে রেখেছেন তিনি।

আমি যার কথা বলতে চাচ্ছি তিনি মেঠো পথ ধরে হাঁটতে হাঁটতে ক্লান্ত হননি। দম ফুরিয়ে যায়নি তার। গাঁও জয় করে শহর বন্দর নগর জয় করেছেন তিনি। জয় করেছেন অগণিত মানুষের মন। সৃজনশীল সৃষ্টিতে পটু এ অসাধারণ মানুষটির ভক্ত, শ্রোতা, পাঠক, গুণগ্রাহী, গুণমুগ্ধ অসংখ্য।

এই অসাধারণ মানুষটির নাম আলমগীর হোসেন। যার নামের মধ্যে আলো লুকায়িত। আলোকিত এ মানুষটির স্বপ্নগুলোই সবার স্বপ্ন।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/19/1558254416801.jpg

তার বিস্ময়ময় সৃষ্টির মধ্যে সবচেয়ে আলোচিত নাম ‘বার্তা২৪.কম’। মাত্র ৩৬৫ দিনে এ দেশের প্রথম মাল্টিমিডিয়া অনলাইন নিউজ পোর্টাল হিসেবে জনপ্রিয়তার তুঙ্গে বার্তা২৪.কম। রহস্য প্রথম শব্দটিতে। বার্তা২৪.কমের আগে আরও অনেক পোর্টালের জন্ম হয়েছে বটে, তবে এতো আলোচনা হয়নি।

পাঠক ও শ্রোতার প্রত্যাশাকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয় বার্তা২৪.কম। এ কারণে গতানুগতিক ধারা থেকে বেরিয়ে এসে নতুনত্বের ছোঁয়ায় মাল্টিমিডিয়া অনলাইন মোবাইল জার্নালিজমকে জাগ্রত করেছেন বার্তা২৪.কমের এডিটর ইন চিফ আলমগীর হোসেন। সবকিছুতে প্রথম হওয়া মানুষটির হাতেই দেশের প্রথম অনলাইন নিউজ পোর্টাল বিডিনিউজের সূচনা। এ কারণে তিনি অনলাইন নিউজ পোর্টাল ও অনলাইন সাংবাদিকতার জনকও।

এখন তার হাতে গড়া বার্তা২৪.কম দেশের প্রথম এবং সেরা মাল্টিমিডিয়া অনলাইন নিউজ পোর্টাল। হাঁটি হাঁটি পা পা করে আজ বার্তা২৪.কম দ্বিতীয় বর্ষে পদার্পণ করেছে। এই এক বছর বার্তা২৪.কম যেভাবে এগিয়ে গিয়েছে, তা আমার কাছে বিস্ময়ের। একই ভাবে আমিও বার্তা২৪.কমের সহযোদ্ধা হিসেবে বেশ এগিয়েছি। এখন আমাকে অনেকজন চেনেন, জানেন ও নিয়মিত দেখেন। এক বছর আগে এভাবে আমাকে কেউ জানত না, চিনত না।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/19/1558254440260.jpg

আমি এক যুগেরও বেশি সময় ধরে লেখালেখি শিখছি। কিন্তু কখনো ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়ে সমস্যা, সম্ভাবনা, উন্নয়ন, বিড়ম্বনাসহ এগিয়ে যাবার গল্প বলার সুযোগ হয়নি। গত এক বছরে বার্তা২৪.কমে সেই সুযোগ আমাকে বারবার দেয়া হয়েছে। আমার মতো অন্যরাও এ সুযোগ পেয়েছে, কিন্তু পরিতৃপ্তির জায়গাতে আমি তৃপ্ত, ধন্য, গর্বিত।

গত এক বছরে যা পেয়েছি, শিখেছি, দেখেছি, জেনেছি তা আগামীতে আমাকে অনেক দূর এগিয়ে রাখবে। এতে আমি আমরা যেমন এগিয়ে যাব, তেমনি এগিয়ে যাবে বার্তা২৪.কম। আমার কাছে বার্তা২৪.কমের প্রথম বছরটি বিস্ময়ের বছর। এতো অল্প সময়ে এতো বড় অর্জন, সফলতা, আর লাখ লাখ পাঠক-দর্শক ও শ্রোতা সৃষ্টি করতে পারাটা সত্যি বিস্ময়ের। আর এই বিস্ময়ের জন্মটা দিয়েছেন বিস্ময় বালক আলমগীর হোসেন। যার সঙ্গে থাকলে জীবনের সঙ্গে কর্মক্ষেত্রেও এগিয়ে থাকা সম্ভব, এগিয়ে যাওয়া সম্ভব।

আপনার মতামত লিখুন :