বাজেটে বিশেষ বরাদ্দ চায় রংপুরবাসী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট বার্তা২৪.কম রংপুর
বাজেটে বিশেষ বরাদ্দের দাবিতে রংপুরে মানববন্ধন ও সমাবেশ/ ছবি: বার্তা২৪.কম

বাজেটে বিশেষ বরাদ্দের দাবিতে রংপুরে মানববন্ধন ও সমাবেশ/ ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

উন্নয়ন বৈষম্য দূরীকরণে আসন্ন বাজেটে অবহেলিত রংপুর বিভাগের জন্য বিশেষ বরাদ্দের দাবি জানিয়েছে রংপুরবাসী। দাবি বাস্তবায়নে আট দফা তুলে ধরে মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (১২ জুন) দুপুরে নগরীর কাচারি বাজারে রংপুর উন্নয়ন ফোরাম আয়োজিত সমাবেশ থেকে এ দাবি জানানো হয়।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, 'সারাদেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে, রংপুর তখন বাজেট বৈষম্যের কারণে পিছিয়ে যাচ্ছে। এ কারণে দরিদ্রতার অভিশাপ থেকে মুক্তি মিলছে বিভাগীয় এই অঞ্চলের। সারাদেশে দারিদ্রতার হার শতকরা ২৪ ভাগ হলেও রংপুরে এটি ৪৮ ভাগ।'

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/12/1560342209454.jpg

বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, 'গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে থেকে দেশের নেতৃত্ব দিচ্ছেন রংপুরের মানুষরা। এখানকার পুত্রবধূ প্রধানমন্ত্রী, জাতীয় সংসদের স্পিকার, ডেপুটি স্পিকার, বিরোধীদলীয় নেতা, তিনজন মন্ত্রী, দুইজন প্রতিমন্ত্রী, হুইপ ও বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ রংপুর বিভাগের মানুষ হলেও উন্নয়ন বৈষম্যের শিকার এ বিভাগ। রংপুরের খাদ্য শস্য গোটা দেশের চাহিদা মেটালেও বার বার অবহেলিতই থাকছে রংপুরের মানুষ।'

ফোরামের আহ্বায়ক সুলতান মাহমুদ টিটনের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব রাকিবুল ইসলাম রাকিবের সঞ্চালনায় সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ড. তুহিন ওয়াদুদ, কৃষক নেতা অধ্যক্ষ নজরুল ইসলাম হক্কানী, সনাক রংপুর জেলা সভাপতি মোশফেকা রাজ্জাক, যুবলীগ নেতা আতাউজ্জামান বাবু, ফোরামের যুগ্ম আহ্বায়খ রুম্মান ইসলাম, অনিন্দ্য রায়, বেলাল হোসেন প্রমুখ।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/12/1560342293658.jpg
বিভাগীয় কমিশনারের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি দেয় রংপুরবাসী/ ছবি: বার্তা২৪.কম

 

পিছিয়ে পড়া রংপুরকে সারাদেশের উন্নয়নের সাথে এগিয়ে না রাখলে দেশের কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন সম্ভব হবে না বলে জানান বক্তারা। এ সময় সকল বিভাগে সুষম উন্নয়ন নিশ্চিত করা, রংপুরে দুইটি সরকারি স্কুল প্রতিষ্ঠা, রংপুর থেকে ঢাকাগামী বিরতিহীন ও বুলেট ট্রেন চালু, বাজেটে রংপুরকে অগ্রাধিকার দিয়ে পর্যাপ্ত পরিমান বাজেট বরাদ্দ দেয়া, বিদেশে শ্রম রফতানিতে বৈষম্য দূর করা ও প্রণোদনা স্বাপেক্ষে রংপুরে শিল্পায়ন নিশ্চিত করারও দাবি জানানো হয়।

সমাবেশ শেষে রংপুরের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার আবু তাহের মোঃ মাসুদ রানা ও জেলা প্রশাসক এনামুল হাবীবের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি দেওয়া হয়।