'প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগে অনিয়ম সহ্য করা হবে না'

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
সমন্বয় সভায় প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী, ছবি: বার্তা২৪.কম

সমন্বয় সভায় প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী, ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় কোনো প্রকার অনিয়ম সহ্য করা হবে না বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন।

তিনি বলেছেন, 'সরকার প্রশ্নফাঁসের অভিযোগের বিষয়ে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে। গত দুই ধাপের পরীক্ষায় প্রশ্নফাঁসের অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত চলছে। সত্যতা পেলে এ বিষয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।'

বুধবার (১৯ জুন) প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরে অনুষ্ঠিত রাজস্ব খাতভুক্ত প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা সংক্রান্ত সমন্বয় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, 'সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসন, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের যে সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী পরীক্ষা সংশ্লিষ্ট দায়িত্ব পালন করবেন, তাদের সকলকে গুরুত্ব দিয়ে প্রতিটি পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হবে।' পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও গোয়েন্দা সংস্থাগুলোও সতর্ক অবস্থানে রয়েছে বলেও জানান তিনি।

যেকোনো উদ্ভূত পরিস্থিতিতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সরাসরি সহযোগিতা নেয়ার আহ্বান জানান প্রতিমন্ত্রী।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় ও প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর হতে জেলাভিত্তিক মনিটরিং টিম প্রেরণ করার পাশাপাশি এবার মন্ত্রণালয় এবং এর অধীনের দফতরসমূহের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা বিভাগীয় শহরের পরীক্ষা কার্যক্রম পরিদর্শন করবেন।

উল্লেখ্য, গত ২৪ ও ৩১ মে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ ২০১৮-এর প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। চার ধাপে অনুষ্ঠিতব্য রাজস্ব খাতভুক্ত এই নিয়োগে অংশগ্রহণ করছে প্রায় ২৪ লক্ষ চাকরি প্রত্যাশী।

আপনার মতামত লিখুন :