বরিশালের বাজারে ইলিশ কম, দাম বেশি

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, বরিশাল
বরিশালের বাজারে অল্প কিছু ইলিশ পাওয়া গেলেও চড়া দাম হাঁকছেন বিক্রেতারা/ ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর

বরিশালের বাজারে অল্প কিছু ইলিশ পাওয়া গেলেও চড়া দাম হাঁকছেন বিক্রেতারা/ ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর

  • Font increase
  • Font Decrease

বৈরী আবহাওয়া ও সাগরে নিম্ন চাপের কারণে খুব বেশি মাছ ধরতে পারছেন না জেলেরা। ফলে ভরা মৌসুমেও তেমন ইলিশ নেই বরিশালের বাজারে। যে কয়টা ইলিশ পাওয়া যাচ্ছে সেগুলোর দাম অনেক বেশি হাঁকছেন বিক্রেতারা।

টানা ৬৫ (২০ মে থেকে ২৩ জুলাই) ইলিশ মাছ ধরা বন্ধ থাকার সাগরে নেমেছিলেন জেলেরা। মাছ ধরাও পড়ে অনেক। বরিশালের বাজারে ইলিশ ভরেও গিয়েছিল। দামও ছিল নাগালের মধ্যে। কিন্তু আবহাওয়া হঠাৎ সব বদলে দিয়েছে।

সোমবার (২৯ জুলাই) নগরীর পোর্ট রোড এলাকায় মাছের পাইকারি ও খুচরা বাজারে গিয়ে দেখা যায়, মাত্র ছোট দু’টি ট্রলার সাগর থেকে মাত্র পাঁচ মণ ইলিশ নিয়ে এসেছে। স্থানীয় নদী থেকে ইলিশ ধরার কয়েকটি নৌকাও এসেছে ঘাটে। তাতেও ইলিশ কম। সব মিলিয়ে পাইকারি বাজার তুলনামূলকভাবে ইলিশশূন্য।

মৎস্য ব্যবসায়ী মহিউদ্দিন বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে বলেন, ইলিশ শিকারের নিষেধাজ্ঞা শেষ হওয়ার পরই সাগরে প্রচুর পরিমাণে জেলেদের জালে মাছ ধরা পরে। তখন ইলিশের সরবরাহ অনেক বেশি ছিল। কিন্তু এখন খারাপ আবহাওয়া ও নিম্নচাপের কারণে জেলেরা সাগরে ইলিশ ধরতে যেতে পারছেন না। ফলে ইলিশের সরবরাহও কম, দামও বেশি। আমরা আড়ৎদারদের কাছে গড়ে মণ প্রতি ২৫ থেকে ২৭ হাজার টাকা দরে ইলিশ বিক্রি করছি।

বরিশালে ইলিশ

পোর্ট রোডের মৎস্য আড়ৎয়ের ব্যবসায়ী সামসুল আলম নাদিম বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে বলেন, নিষেধাজ্ঞা শেষে এই পাইকারি বাজারে টানা চার দিন প্রায় ৯০০ মণ ইলিশ নিয়ে সাগর থেকে অন্তত ২৫টি ফিশিং বোট এই ঘাটে নোঙর করে। তখন ইলিশ সরবরাহ বেশি থাকায় সাগরের ইলিশের দাম মণ প্রতি ১৮ থেকে ২০ হাজার দরে বিক্রি করা হত। কিন্তু এখন সরবরাহ কমে যাওয়ায় হঠাৎ করে দাম বেড়ে গেছে। আর বরাবরই স্থানীয় নদী থেকে ইলিশ কম ধরা পড়ে। ফলে ওই সবের দাম এমনিতেই বেশি। সাগরের ইলিশ না আসা পর্যন্ত বাজারগুলোতে দাম চড়া থাকাই স্বাভাবিক।

পাইকারি বাজারে ইলিশ কিনতে এসেছেন মাসুদ রানা। বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে তিনি বলেন, বাজারে এসে দেখি ইলিশের দাম অনেক বেশি। তারপরও পরিবারের চাহিদা অনুযায়ী ৭০০ থেকে ৮০০ গ্রাম ওজনের চারটি ইলিশ কিনলাম। এই নদীর ইলিশ ৩৪০০ টাকায় কিনেছি।

বরিশাল জেলা মৎস্য কর্মকর্তা (ইলিশ) বিমল চন্দ্র দাস বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে জানান, বর্তমানে সাগরে নিম্নচাপের কারণে জেলেরা কোনোভাবেই সাগরে ইলিশ শিকারে যেতে পারছেন না। তাদের প্রশাসনের পক্ষ থেকেও সর্তক করা হচ্ছে। স্বাভাবিকভাবে ইলিশ সরবরাহ কম থাকায় বাজারগুলোতে স্থানীয় নদীর ইলিশ মিলছে। তবে দাম একটু চড়া। সাগরের ইলিশ আসার পর আবার বাজার স্বাভাবিক হবে।

বরিশালে ইলিশ

বরিশাল নগরীর পোর্ট রোডের ইলিশের বিভিন্ন মোকাম ঘুরে দেখা গেছে, সোমবার সকালে এক কেজি ইলিশের প্রতিমণ ৪৮/৫০ হাজার, এক কেজির ওপরে ৫৫/৫৮ হাজার এবং দেড় কেজি ওজনের হলে প্রতিমণ প্রায় ৯০ থেকে এক লাখ টাকা দরে বিক্রি হয়েছে। এছাড়া ভেলকা মাপের ২৮/৩০ হাজার, এলসি মাপের ইলিশ (৬০০ থেকে ৯০০ গ্রাম ওজন) ৩৩/৩৫ হাজারে বিক্রি হয়; যা গত সপ্তাহের প্রতিটা মাপের ইলিশের মণ প্রতি ছয় হাজার টাকা থেকে শুরু করে ১০/১২ হাজার টাকা পর্যন্ত কম ছিল।

এছাড়া নগরীর বাংলা বাজার, নতুন বাজার ও পোর্ট রোড বাজারে এক কেজি ওজনের ইলিশ ১৬শ থেকে ১৮শ টাকা পর্যন্ত বিক্রি হয়েছে। এছাড়াও ৬শ থেকে ৯শ গ্রাম ওজনের ইলিশ এক হাজার থেকে ১২০০ টাকায় বিক্রি হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :