সাম্প্রদায়িক অপশক্তি বাংলাদেশের শত্রু: কাদের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, ঢাকা
ঢাকেশ্বরী মন্দিরের সামনে জন্মাষ্টমীর শোভাযাত্রার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছেন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের/ ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

ঢাকেশ্বরী মন্দিরের সামনে জন্মাষ্টমীর শোভাযাত্রার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছেন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের/ ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

সাম্প্রদায়িক অপশক্তি শুধু সংখ্যালঘুদের নয়, সারা বাংলাদেশের শত্রু বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

শুক্রবার (২৩ আগস্ট) রাজধানীর ঢাকেশ্বরী মন্দিরের সামনে শ্রী কৃষ্ণ'র জন্মাষ্টমীর শোভাযাত্রার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

শেখ হাসিনার সরকার সংখ্যালঘুবান্ধব উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বাংলাদেশের হিন্দু সম্প্রদায় ও সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের লোকজনকে শুধু একটি কথাই বলব, শেখ হাসিনার সরকার মাইনরিটি-বান্ধব সরকার। শেখ হাসিনা যতদিন আছেন, আপনাদের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণ নেই।’

তিনি বলেন, ‘দুর্গাপূজাসহ অন্যান্য ধর্মীয় উৎসবগুলো শান্তিপূর্ণভাবে উদযাপিত হচ্ছে। এদিক দিয়ে শেখ হাসিনা সরকার আপনাদের কাছে সবচেয়ে বেশি নিরাপদ। আসুন আমরা সকলে মিলে শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করি।’

এ সময় তিনি ভারত-বাংলাদেশের সম্পর্কে কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক এখন নতুন উচ্চতায়। প্রতিবেশীর সঙ্গে আমাদের সম্পর্কের কোনো সমস্যা নেই। আমাদের দেশের অমীমাংসিত সমস্যাগুলো সমাধানে করে এই সম্পর্ক আরেক ধাপ এগিয়ে যাব।’

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Aug/23/1566561163289.jpg

অনুষ্ঠানে ডিএমপি কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, ‘বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির রোল মডলে। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি দেখতে হলে বাংলাদেশে আসতে হবে। দেশে নির্বিঘ্নে নিরাপদে মানুষ ধর্মীয় অনুষ্ঠান পালন করছে। এটা রাষ্ট্রীয় সিদ্ধান্ত।’

তিনি বলেন, ‘উৎসব করবেন আপনারা, নিরাপত্তা পালনের দায়িত্ব সরকারের। তবে নাগরিক দায়িত্ব পালন করতে হবে। যেন অন্য কারো ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যে আঘাত না লাগে সেই বিষয়টি আপনাদের লক্ষ রাখতে হবে।’

পরে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন আনুষ্ঠানিকভাবে জন্মাষ্টমীর শোভাযাত্রা উদ্বোধন করেন। উদ্বোধনের পরেই হাজারো কৃষ্ণভক্ত শোভাযাত্রা শুরু করেন।

আপনার মতামত লিখুন :