ভিন্ন রূপে চবি ছাত্রলীগ

ভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট

  • Font increase
  • Font Decrease

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে: চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ছাত্রলীগকে দেখল এক ভিন্নরূপে। সম্প্রতি ট্রেনে কাটা পড়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী দুই পা হারান। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শাটলের বগি বৃদ্ধিসহ ৬ দফা দাবিতে আন্দোলনের ডাক দেয় ছাত্রলীগ বিশ্ববিদ্যালয় শাখা।

ছাত্রলীগের এই আন্দোলনে স্বতঃস্ফূর্তভাবে সাড়া দেয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা। শিক্ষার্থীরা মনে করছেন, নিজেদের মধ্যে মারামারি ও সংঘর্ষ বাদ দিয়ে শিক্ষার্থীদের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট ইস্যুতে শিক্ষার্থীদের পাশে থাকলে ছাত্রলীগ সম্পর্কে শিক্ষার্থীদের যে ধরনের নেতিবাচক ধারণা আছে তা কেটে যাবে।

ভাষাবিজ্ঞান বিভাগের ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী তানভীর তুষার বার্তা২৪.কমকে বলেন, অনেকেই ভাবেন, ছাত্রলীগ মানেই মারামারি, কাটাকাটি। কিন্তু এই কর্মসূচির কারণে সেই ধারণা অনেকটাই পাল্টে গেল। আশা করি, ছাত্রলীগ সব সময় সাধারণ শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক আন্দোলনে পাশে থাকবে।

শিক্ষা ও গবেষণা ইনিস্টিটিউটের শিক্ষার্থী কাজী রহমত বলেন, কয়েকদিন আগে একই ইস্যুতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করছিল বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি। ছাত্রলীগের কর্মীরা এতে বাধা দেয় কিনা, এই ধারণা থেকে তাতে অংশ নিতে পারিনি। কিন্তু গতকাল ছাত্রলীগই আন্দোলন করল।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপু বার্তা২৪.কমকে বলেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ শিক্ষার্থীদের সঙ্গে নিয়ে নতুন শাটল দেওয়া, শাটলের বগি বৃদ্ধিসহ বিভিন্ন দাবিতে মাঠেনে মেছে। শিক্ষার্থীদের যেকোনো যৌক্তিক দাবি আদায়ে ছাত্রলীগ সব সময় সোচ্চার। আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগকে পুনরায় জয়ী করতে কাজ করছে ছাত্রলীগ।

আপনার মতামত লিখুন :