Alexa

ফরিদপুরের সালথায় সংঘর্ষে যুবক নিহত

ফরিদপুরের সালথায় সংঘর্ষে যুবক নিহত

ফরিদপুরের সালথায় সংঘর্ষে নিহত যুবকের পরিবার/ছবি: বার্তা২৪

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ফরিদপুর

ফরিদপুরের সালথা উপজেলায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুইদল গ্রামবাসীর সংঘর্ষে রোববার সকাল ৮ টার দিকে রাসেল শেখ (২৪) নামে এক যুবক নিহত  হয়েছে। সংঘর্ষে আরো ১০ জন আহত হয়েছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ১১ রাউন্ড শর্টগানের গুলি ও ২ রাউন্ড টিয়ার সেল নিক্ষেপ করে। এ সময় অভিযান চালিয়ে সংঘর্ষে জড়িত থাকার অভিযোগে ঘটনাস্থল থেকে ১২ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

জানা গেছে,  রামকান্তপুর ইউনিয়নের বড় বাহিরদিয়া গ্রামের ইউপি সদস্য মঞ্জু মাতুব্বরের সাথে সাবেক ইউপি সদস্য লুৎফর মোল্যার এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিরোধ চলছিল। এর জের ধরে সকালে মঞ্জু মাতুব্বরের সমর্থক রাসেলসহ কয়েকজন স্থানীয় বাজারের চায়ের দোকানে বসে গল্প করছিলো।

এ সময় লুৎফর মোল্যার সমর্থকেরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। খবর পেয়ে মঞ্জু মাতুব্বরের সমর্থকেরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে পাল্টা হামলা চালালে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়।

সংঘর্ষে বড় বাহিরদিয়া গ্রামের খালেক শেখের পুত্র রাসেল শেখ দেশীয় অস্ত্রের কোপে গুরুতর আহত হয়। আহত অবস্থায় ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।  

রাসেলের বড় ভাই জামাল শেখ মৃত্যুর নিশ্চিত করে বলেন, রাসেলের স্ত্রী ও দেড় বছরের এক ছেলে সন্তান রয়েছে।

সালথা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) দেলোয়ার হোসেন খান বলেন, বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। সংঘর্ষে পরিস্থিতি সামাল দিতে ১১ রাউন্ড শর্টগানের গুলি ও ২ রাউন্ড টিয়ার সেল নিক্ষেপ করা হয়েছে। ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ১২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

জেলা এর আরও খবর