মাতৃভাষার ইতিহাস জানে না নতুন প্রজন্ম!

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, চুয়াডাঙ্গা, বার্তা২৪.কম
শুধু বেদিতে ফুল নয়, জানতে হবে মাতৃভাষার ইতিহাস, ছবি: বার্তা২৪.কম

শুধু বেদিতে ফুল নয়, জানতে হবে মাতৃভাষার ইতিহাস, ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

শাসকের রক্ত চক্ষুকে উপেক্ষা করে ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি বাংলার দামাল ছেলেরা ছিনিয়ে এনেছিল তাদের মাতৃভাষার মর্যাদা। তাদের সেই জীবনের বিনিময়ে আমরা পাই বাংলা ভাষা। তবে নতুন প্রজন্মের অনেকেই শুধু ১৯৫২ সালের ২১শে ফেব্রুয়ারি সম্পর্কে জানে। এর পেছনের ধারাবাহিক আন্দোলন সম্পর্কে জানে না। এর পরের কথাও অনেকের অজানা । আর এই না জানার কারণ সঠিক ইতিহাস সম্পর্কে না জানা এবং স্কুল-কলেজের পাঠ্যপুস্তকের বাইরে কিছু না জানাতে না চাওয়াকেই দোষ দিচ্ছে সংশ্লিষ্টরা।

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের পটভূমি, একুশে ফেব্রুয়ারির সঙ্গে বাংলাদেশের ভাষা আন্দোলনের সম্পর্ক কি তা সর্ম্পকে এখনও ভালো করে জানে না নামিদামি অনেক স্কুল-কলেজের শিক্ষাথীরা।

চুয়াডাঙ্গার বেশ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের ২১ ফেব্রুয়ারি সম্পর্কে জানতে চাওয়া হলে পাওয়া যায়নি কোনো সঠিক উত্তর। অনেক কলেজের শিক্ষার্থীরা আবার ব্যঙ্গ করে অভিমত প্রকাশ করেছেন বায়ান্নর একুশে ফেব্রুয়ারি সম্পর্কে। অনেক শিক্ষার্থী জনিয়েছেন, ফেব্রুয়ারি মাস আসলে বছরে একটি দিন অর্থাৎ ২১ ফেব্রুয়ারি উপলক্ষে আসা হয় শহীদ বেদিতে। ফলে এই সম্পর্কে গভীরভাবে কখনও জানা হয়নি।

চুয়াডাঙ্গা রিজিয়া খাতুন প্রভাতি সরকারি প্রথমিক বিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী বলেন, ২১ ফেব্রুয়ারি শহীদ বেদিতে ফুল দিতে যাওয়া ছাড়া কিছুই জানে না সে।

চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের এক শিক্ষার্থী জানান, বায়ান্নর ২১ ফেব্রুয়ারি সম্পর্কে কিছু না পারলেও ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধ সম্পর্কে সে অনেক কিছু জানে সে।

স্বাধীনতার এত বছর পরেও নতুন প্রজন্মের শিক্ষার্থীরা কেন বায়ান্নর ভাষা আন্দোলন সম্পর্কে এমন অজ্ঞ- এমন প্রশ্নে ভি,জে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক শহিদুল ইসলাম বার্তা২৪.কমকে বলেন. ছেলে-মেয়েরা পড়াশোনার পর যেটুকু সময় পায় তা ইন্টারনেট ব্যবহারেই চলে যায়। বাইরের ইতিহাস সম্পর্কে তারা জানবে কিভাবে? তবে বায়ান্নর ইতিহাস জানাতে হলে অবশ্যই তাদের ভাষা আন্দোলনের ইতিহাস সম্পর্কে জানতে হবে। তার জন্য প্রয়োজন দেশপ্রেম।

আপনার মতামত লিখুন :