Alexa

কাজ শেষ হওয়ার আগেই সেতুতে ফাটল

কাজ শেষ হওয়ার আগেই সেতুতে ফাটল

কাজ শেষ হওয়ার আগেই সেতুতে ফাটল। ছবি: বার্তা২৪.কম

নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহার করায় নির্মাণাধীন একটি সেতুতে ফাটল দেখা দিয়েছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের অর্থায়নে পটুয়াখালী সদর উপজেলার লোহালিয়া ইউনিয়নের কুড়িপাইকা গ্রামে কুমারখালী খালের উপর ৪০ ফুট দৈর্ঘ্যের ওই সেতুটি নির্মিত হচ্ছে।

এ ব্যাপারে স্থানীয় বাসিন্দা মো. আবু বকর ওরফে কবির মোল্লা জেলা প্রশাসকের কাছে একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন। এ ঘটনায় সদর উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। সম্প্রতি ওই কমিটি গঠন করা হয়েছে।

অভিযোগে তিনি জানান, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের উদ্যোগে ২০১৭-১৮ অর্থবছরে ৩০ লাখ ৭৭ হাজার ৬৫৭ টাকা ব্যয়ে কুমারখালী খালের উপর এ সেতুটি নির্মাণের জন্য ‘মা এন্টারপ্রাইজ’ নামের একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে দায়িত্ব দেয়া হয়। প্রতিষ্ঠানটির মালিক মো. শহিদুল ইসলাম সম্প্রতি সেতুর ঢালাই সম্পন্ন করেছেন। এটি এখনো মানুষের চলাচলের জন্য খুলে দেয়া না হলেও কয়েকটি স্থানে ফাটল দেখা দিয়েছে। কয়েকটি স্থানে রড বের হয়ে গেছে। নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহারের কারণেই এ ঘটনা ঘটেছে। সেতুর কিছু কাজ এখনো বাকি আছে।

পটুয়াখালী জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা মো. নজরুল ইসলাম জানান, বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে।

এদিকে অভিযোগ অস্বীকার করে ঠিকাদার মো. শহিদুল ইসলাম বলেন, ‘শিডিউল অনুযায়ী কাজ করা হয়েছে। কাজে কোনো ধরনের অনিয়ম করা হয়নি।’

জেলা প্রশাসক মো. মতিউল ইসলাম চৌধুরী জানান, এ ঘটনায় সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠনের জন্য নির্দেশ দেয়া হয়েছে। কমিটির রিপোর্ট হাতে পেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সদর উপজেলার নির্বাহী অফিসার লতিফা জান্নাতী জানান, সদর উপজেলার সহকারী কমিশনারকে (ভূমি) প্রধান করে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আগামী তিন কার্যদিবসের মধ্যে কমিটি তাদের প্রতিবেদন দাখিল করবেন।