Alexa

পিরোজপুরের ৭ উপজেলায় ৯ প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার

পিরোজপুরের ৭ উপজেলায় ৯ প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার

পিরোজপুরের ৭ উপজেলায় ৯ প্রার্থী মনোনয়ন প্রত্যাহার করেছেন, ছবি: বার্তা২৪

উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন বুধবার (১৩ মা্র্চ) পিরোজপুর জেলার ৭ উপজেলায় চেয়ারম্যান ও ভাইস-চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনের ঘোষণা দিয়ে শেষ পর্যন্ত নির্বাচনী ময়দান থেকে সরে দাঁড়ালেন ৯ প্রার্থী। প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ দিনে তারা মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহার করেন।

পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মো. মিরাজুল ইসলাম ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে আসমা আক্তার এবং নাজিরপুর উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান (পুরুষ) পদে মো. মোস্তাফিজুর রহমান রঞ্জু একক প্রার্থী থাকায় তারা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন।

মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের পরে পিরোজপুর সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান মো. মুজিবুর রহমান খালেক, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মতিউর রহমান সরদার, ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় নেতা মাকসুদুর ইসলাম (লিটন) সিকদার এবং জাতীয় পার্ট (এরশাদ) মনোনীত তৌনিক উল হক।

পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন- বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান রেজাউল করিম মন্টু সিকদার, তৌহিদুল ইসলাম হিরু এবং শেখ মো. বায়েজীদ। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীরা হলেন- শিরীনা আফরোজ, শাহনাজ পারভীন শানু, শারমীন সুলতানা লুনা ও নাসিমা আক্তার।

ভান্ডারিয়া উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে একক প্রার্থী হলেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বর্তমান উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. মিরাজুল ইসলাম মিরাজ।
ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীরা হলেন- জাতীয় পার্টি (জেপি) মনোনীত মশিউর রহমান মৃধা, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান খান মো. রুস্তুম আলী, শাহাদাৎ হোসেন, ফরিদ উদ্দিন হাওলাদার ও ওয়াহিদুজ্জামান অপু। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে একক প্রার্থী রয়েছেন জাতীয় পার্টি-জেপি মনোনীত বর্তমান মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আসমা আক্তার।

কাউখালী উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি কাজী রুহিয়া বেগম (হাসি) এবং জাতীয় পার্টি (জেপি) মনোনীত প্রার্থী আবু সাইদ মিঞা মনু।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীরা হলেন, জাতীয় পার্টির-জেপি মনোনীত প্রার্থী উপজেলা জেপির সাধারণ সম্পাদক শাহ আলম নসু, বর্তমান উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান মিঠু, রফিকুল ইসলাম (পলাশ সিকদার), ছাত্রলীগের সভাপতি মৃদুল আহম্মেদ সুমন, মো. লাইকুজ্জামান মিন্টু তালুকদার, শাহীন মাহামুদ, মোস্তাফিজুর রহমান। মহিলা ভাইস-চেয়ারম্যান পদে রয়েছেন জাতীয় পার্টির-জেপি মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ফাতেমা ইয়াসমিন পপি, নার্গিস আক্তার, লিপি আক্তার ও সীমা আক্তার।

ইন্দুরকানী উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম মতিউর রহমান, জেপি মনোনীত প্রার্থী মো. শাহীন হাওলাদার, জেলা বিএনপির সদস্য ও সাবেক উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক বর্তমান উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ফায়জুল কবির তালুকদার।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা জেপির সহ-সভাপতি কাওসার আহম্মেদ দুলাল, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মাহমুদুল হক দুলাল, উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি রুহুল আমীন বাঘা ও যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ইকরামুল শিকদার। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীরা হলেন- মহিলা জেপির সাধারণ সম্পাদিকা সুলতানা রাজিয়া রাণী, উপজেলা মহিলা লীগের সভানেত্রী দিলরুবা মিলন ও দিলারা পারভীন লাভলী।

নেছারাবাদ (স্বরূপকাঠি) উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সম্পাদক সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান এস এম মুইদুল ইসলাম মুহিদ, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী আলহাজ¦ আব্দুল হক এবং ন্যাশনাল পিপলস পার্টির নেতা মো. সিদ্দিকুর রহমান।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী প্রার্থীরা হলেন- বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান মো. লাভলু আহমেদ, মো. মেহেদী হাসান সাগর, মো. মাসুম বিল্লাহ, মো.বায়েজিদ আহসান, রনি দত্ত ও মাছুম বিল্লাহ। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন- বর্তমান মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জাহানারা বেগম, তুলি মন্ডল, মোসাম্মৎ সাহারা নাসরিন, মোসাম্মৎ নার্গিস জাহান ও মাহিনুর বেগম মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

নাজিরপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদের প্রার্থীরা হলেন- আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান অমূল্য রঞ্জন হালদার এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য এডভোকেট দীপ্তিষ চন্দ্র হালদার।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে একক প্রার্থী হিসেবে আছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক মো. মোস্তাফিজুর রহমান রঞ্জু। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন-বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান সেলিনা বেগম, শাহারিয়ার ফেরদাউস রুনা, অঞ্জলি শিকদার, মোসাম্মাৎ স্বপ্না বেগম, আলো শিকদার ও নয়ন রানী হাওলাদার মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

মঠবাড়িয়া উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারীরা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী হোসাইন মোশাররফ হোসেন সাকু এবং জাতীয় পার্টির (এরশাদ) নূরুজ্জামান লিটন। ভাইস চেয়ারম্যান পদে সাকিল আহমেদ নওরোজ, রাহাত আহমেদ এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে মোসাম্মৎ মাকসুদা আক্তার বেবী, নাসরিন জাহান ও রমা রানী প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :