Alexa

সমন্বিত সেবার ব্যতিক্রম আয়োজনে ৫ শতাধিক গ্রহীতার সেবা গ্রহণ

সমন্বিত সেবার ব্যতিক্রম আয়োজনে ৫ শতাধিক গ্রহীতার সেবা গ্রহণ

স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে সেবা নিচ্ছেন সেবা গ্রহীতারা, ছবি: বার্তা২৪

‘সরকারি অফিসমুখী হন, আপনার সেবা করার সুযোগ দিন’- এই প্রতিপাদ্য নিয়ে সরকারি সেবা প্রাপ্তিতে জনগণকে সরকারি অফিসমুখী করা ও দুর্ভোগবিহীন সেবা প্রাপ্তিতে ব্যতিক্রম আয়োজন ‘সমন্বিত সেবা উদ্যোগে’ প্রায় ৫শতাধিক সেবা গ্রহীতা সেবা গ্রহণ করেছেন।

বুধবার (১৫ মে) রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলা অডিটোরিয়াম হলরুমে সকাল ১০টা থেকে শুরু হওয়া এই বিশেষ সেবা চলে বেলা ১টা পর্যন্ত।

বার্তা২৪ barta24

এতে উপজেলার সরকারি ৯টি দফতর স্বাস্থ্য, কৃষি, প্রাণী সম্পদ, মৎস্য, ভূমি, মহিলা বিষয়ক, শিক্ষা (প্রাথমিক ও মাধ্যমিক) ও সমাজসেবার কর্মকর্তারা সেবা প্রদান করেন।

বার্তা২৪ barta24

কৃষি দফতরে সেবা নিতে আসা নারুয়া ইউনিয়নের এলেঙ্গাডাঙ্গী গ্রামের কৃষক ছামসুদ্দিন মন্ডল (৭০) ও সমাজসেবা দফতরে সেবা নিতে আসা জামালপুর ইউনিয়নের ডাঙ্গাহাতিমোহন গ্রামের শিফালী রাণী (৬০) বার্তা ২৪.কমকে জানান, এ ধরনের উদ্যোগে তারা বেশ উপকৃত হয়েছে। এক সাথে একই সময়ে অধিক সেবা পাওয়ায় তাদের সময় অনেক কম লেগেছে। তাছাড়া কোনো সমস্যা নিয়ে আসলে অনেক সময় ঐ কর্মকর্তা অফিসে থাকেন না। তারা বিভিন্ন সময়ে অফিসের বিভিন্ন কাজে বাইরে চলে যান। সেক্ষেত্রে প্রতি সপ্তাহে নির্দিষ্ট একটি দিনে এধরণের সমন্বিত সেবার উদ্যোগ নিঃসন্দেহে প্রশংসার দাবিদার।

বার্তা২৪ barta24

ব্যতিক্রমী এই সেবার উদ্যোগদাতা বালিয়াকান্দি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: মাসুম রেজা বার্তা২৪.কমকে জানান, সরকারি দফতর হতে সরকারি সেবা প্রাপ্তিতে জনগণকে অনেক সময় ও শ্রম অপচয় করতে হয়। তাই ভাবলাম জনগণের ভোগান্তি লাঘবে দুর্ভোগবিহীন জনসেবা দ্রুতকরণের লক্ষ্যে এ ধরণের উদ্যোগ কাজে লাগতে পারে। তারই ধারাবাহিকতায় আজকে প্রায় ৫ শতাধিক সেবা গ্রহীতা এই সমন্বিত সেবায় উপস্থিত হয়ে তাদের কাঙ্ক্ষিত সেবা গ্রহণ করেন।

বার্তা২৪ barta24

এ সময় তিনি আরও জানান, এই সেবার ধারা অব্যাহত রাখার জন্য প্রতি সপ্তাহের মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে বেলা ১টা পর্যন্ত নিয়মিত এই কার্যক্রম চলবে।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/15/1557909767290.jpg

উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মো: আবুল কালাম আজাদ বার্তা ২৪.কমকে জানান, ইউএনও মহোদয়ের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানাই। কারণ একই সাথে সরকারি সকল দফতরের কর্মকর্তাদের কাছ থেকে সেবা গ্রহণ করাটা খুবই দুঃসাধ্য ব্যাপার। ব্যতিক্রম এই উদ্যোগটি যদি সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ মডেল হিসেবে গ্রহণ করেন তাহলে হয়তো বাংলার জনগণের সেবা নিশ্চয়তায় অনেকটা এগিয়ে যাবে।

আপনার মতামত লিখুন :

জেলা এর আরও খবর