অটোরিকশা বিক্রি করতে এসে গণপিটুনি

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, লক্ষ্মীপুর, বার্তা২৪.কম
লক্ষ্মীপুর ছিনতাই করা সিএনজি  বিক্রি করতে এলে  তিন ছিনতাইকারীকে গণপিটুনি দেয় স্থানীয়রা, ছবি: বার্তা২৪

লক্ষ্মীপুর ছিনতাই করা সিএনজি বিক্রি করতে এলে তিন ছিনতাইকারীকে গণপিটুনি দেয় স্থানীয়রা, ছবি: বার্তা২৪

  • Font increase
  • Font Decrease

লক্ষ্মীপুরে ছিনতাই করা সিএনজি অটোরিকশা বিক্রি করতে এসে জনগণের হাতের ধরা পড়েছেন ছিনতাইকারী চক্রের তিন সদস্য। এসময় তাদের গণপিটুনি দিয়েছে বিক্ষুব্ধরা। খবর পেয়ে রোববার (২৬ মে) রাত ১০টার দিকে সদর উপজেলার মান্দারী পূর্ব বাজার থেকে ওই তিনজনকে আটক করে পুলিশ।

আটক তিনজন হলেন, সদর উপজেলার চন্দ্রগঞ্জ ইউনিয়নের রামকৃষ্ণপুর গ্রামের মৃত আবুল কাশেমের ছেলে শামছুল আলম, একই এলাকার নুরুল হুদার ছেলে ফয়সাল ও চরচামিতা গ্রামের মৃত ইউসূফের ছেলে জাকির হোসেন। তারা সিএনজি ছিনতাই ও মাদক কারবারি চক্রের সক্রিয় সদস্য বলে অভিযোগ রয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, উপজেলার মটবী গ্রামে একটি অটোরিকশা ৮০ হাজার টাকায় বিক্রি করতে এসে ধরা পড়েন ছিনতাইকারী চক্রের সদস্য শামছুল আলম। পরে কৌশলে তাকে দিয়ে চক্রের অন্য সদস্যদের ডেকে আনা হয়। অটোরিকশা বিক্রির টাকার ভাগ নেওয়ার জন্য এসে চক্রের সদস্য ফয়সাল ও জাকির স্থানীয়দের কাছে ধরা পড়েন।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/May/27/1558902294159.jpg

এ সময় মিঠু নামে একজনের মাথা ফাটিয়ে পালিয়ে যায় হাজিরপাড়া ইউনিয়নের ইউসুফপুর গ্রামের সম্রাট নামে চক্রের আরও এক সদস্য। পরে উত্তেজিত জনতা আটক তিনজনকে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে।

এদিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে ছিনতাই হওয়া অটোরিকশাটি শনাক্ত করেন মালিক নুরুল হক। তিনি নোয়াখালীর অনন্তপুর গ্রামের বাসিন্দা।

জানতে চাইলে নুরুল হক বলেন, গত বৃহস্পতিবার (২৩ মে) রাত ১১টার দিকে তার সিএনজিটি ছিনতাই হয়। ছিনতাইকারী চক্রের সদস্যরা যাত্রী সেজে নোয়াখালীর একলাশপুর থেকে সিএনজি রিজার্ভ ভাড়া নিয়ে লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার চরচামিতা এলাকায় আসেন। পরে সিএনজি চালক সোলাইমানকে মারধর করে সিএনজিটি ছিনতাই করে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় পরদিন চন্দ্রগঞ্জ থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন তিনি।

চন্দ্রগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাকির হোসেন বলেন, তিন ছিনতাইকারীকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করে সদর হাসপাতাল নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। তাদের থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। ছিনতাইয়ের ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

 

আপনার মতামত লিখুন :