শ্রীমঙ্গলের ডুবাগাঁও মাদরাসায় কোচিংয়ের অভিযোগ

উপজেলা করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, শ্রীমঙ্গল (মৌলভীবাজার)
শ্রীমঙ্গলের ডুবাগাঁও বাহরুল উলুম দাখিল মাদরাসা/ ছবি: বার্তা২৪.কম

শ্রীমঙ্গলের ডুবাগাঁও বাহরুল উলুম দাখিল মাদরাসা/ ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে ডুবাগাঁও বাহরুল উলুম দাখিল মাদরাসায় টানা সাত ঘণ্টা কোচিং করানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে। পবিত্র রমজান মাসে দারুল ক্বেরাতের ফাঁকে নিয়মিত ক্লাসের পরিবর্তে ৫ম ও ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের টানা ৭-৮ ঘণ্টা কোচিং করানো হচ্ছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন শিক্ষার্থীর অভিভাবক অভিযোগ করেন, মাদরাসায় ক্লাস না নিয়ে সব বিষয়ের ওপড় কোচিং ক্লাস করানো হচ্ছে। ফলে শিক্ষার্থীদের ওপড় লেখাপড়ার চাপ বেড়েছ এবং তাদের বাড়তি খরচ হচ্ছে।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/01/1559371138112.jpg

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, মাদরাসায় শিক্ষার্থীরা কোচিং ক্লাস করছে। কয়েকজন শিক্ষার্থীকে জিজ্ঞাসা করলে, তারা কোচিং করছে বলে জানায়।

মাদরাসার সহকারী শিক্ষক আব্দুল বাছিত বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘কর্তৃপক্ষের নির্দেশনায় আমরা দারুল ক্বেরাত্বের পাশাপাশি ৫ম ও ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের সব বিষয়ের ওপড় কোচিং ক্লাস নিচ্ছি।’

মাদরাসায় খণ্ডকালীন দুইজন শিক্ষকসহ মোট ১৫ জন শিক্ষক রয়েছেন। ১৯৬৫ সালে উপজেলার সিন্দুরখাঁন ইউনিয়নের সিক্কা গ্রামে মাদরাসাটি স্থাপন করা হয়।

আপনার মতামত লিখুন :