পটুয়াখালীতে ভিপি নুরের ওপর হামলা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, পটুয়াখালী
ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুর/ ফাইল ছবি

ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুর/ ফাইল ছবি

  • Font increase
  • Font Decrease

পটুয়াখালীর দশমিনায় খালার বাড়ি বেড়াতে যাওয়ার পথে দশমিনা ও গলাচিপা উপজেলার সংযোগ সেতু উলানিয়া বন্দরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নুরুল হক নুরের ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার (১৪ আগস্ট) দুপুরে এ হামলার ঘটনা ঘটে। এতে নুরুল হক নুরের সাথে থাকা তার অন্তত ২৫ জন সঙ্গী আহত হয়েছেন।

এ সময় নুরুল হক নুরের মোটরসাইকেল বহরে থাকা ১০টি মোটরসাইকেল ভাঙচুর করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

নুরুল হক নুরের খালাতো ভাই মোহাম্মদ উল্লাহ মধু বলেন, ‘গলাচিপা থেকে মোটরসাইকেলযোগে দশমিনায় তাদের বাড়ি যাবার পথে উলানিয়া ব্রিজের কাছে একদল সন্ত্রাসী তাদের উপর অতর্কিত হামলা চালায়। এতে নুরুল হক নুর গুরুতর আহত হন। বর্তমানে তিনি অজ্ঞান অবস্থায় রয়েছেন।’

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Aug/14/1565777212762.gif

এই হামলায় নুরের সাথে থাকা আরও অন্তত ২৫ জন আহত হয়েছেন এবং বর্তমানে তারা অবরুদ্ধবস্থায় রয়েছেন বলে জানিয়েছেন মোহাম্মদ উল্লাহ।

গলাচিপা থানার অফিসার ইনচার্জ আক্তার মোর্শেদ জানান, ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানে হয়েছে।

এদিকে পটুয়াখালীর গলাচিপা ও দশমিনার স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের নেতৃত্বে নুরের ওপর হামলা হয়েছে বলে বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম-কে জানান কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম-আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খান।

মুহাম্মদ রাশেদ খান বলেন, ‘দশমিনা উপজেলার এক ভাইয়ের দাওয়াতে  যোগ দিতে যাচ্ছিলেন নুর। এসময় আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা তাকে অবরুদ্ধ করে। তার সাথে তার ভাইসহ আরও কয়েকজন ছিল তাদেরকেও বেধড়ক মারধর করা হয়। এক পর্যায়ে ছাত্রলীগ কর্মীরা রড দিয়ে তাকে মেরে একটি স্টিলের দোকানে অবরুদ্ধ করে রাখে।’

আপনার মতামত লিখুন :