পর্যটকদের পদচারণায় মুখর সাগর কন্যা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট, বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম, পটুয়াখালী
কুয়াকাটায় পর্যটকরা, ছবি: সংগৃহীত

কুয়াকাটায় পর্যটকরা, ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ঈদের ছুটিতে পর্যটকদের পদচারণায় মুখর সমুদ্র সৈকত কুয়াকাটা। বর্ষার কারণে মঙ্গলবার (১৩ আগস্ট) পর্যটকদের চাপ কিছুটা কম থাকলেও বুধবার (১৪ আগস্ট) সকাল থেকে পর্যটকদের উপস্থিত বাড়তে শুরু করে। এবার পর্যটকদের আকৃষ্ট করতে বিভিন্ন অফার ও ছাড় দিয়েছেন এখানকার হোটেল-মোটেল ব্যবসায়ীরা।

পর্যটন মৌসুম না হলেও ঈদের ছুটিতে প্রতি বছর কুয়াকাটায় পর্যটকদের একটা বাড়তি চাপ লক্ষ করা যায়। এ সময় পর্যটকদের জন্য বিভিন্ন ধরনের অফার ঘোষণা করা হয়। আর এবারও এর ব্যতিক্রম ঘটেনি। তাইতো সাগর কন্যা কুয়াকাটার হোটেল মোটেলগুলোতে পর্যটকদের সরব উপস্থিতি।

এদিকে সকাল থেকেই সমুদ্র সৈকতে গোসল করতে নামেন পর্যটকরা। কেউ বা বিচে ফুটবল সহ বিভিন্ন খেলাধুলায় মেতে উঠেন। এছাড়া বিচ বাইক সহ ওয়াটার বাইকে করে প্রিয়জনকে সঙ্গে নিয়ে আনন্দ মুখর সময় কাটাচ্ছেন পর্যটকরা।

১৮ কিলোমিটার দীর্ঘ সমুদ্র সৈকত, লাল কাঁকড়ার চর, গঙ্গামতি, লেম্বুরবন কুয়াকাটা বোদ্ধ মন্দির সহ বিভিন্ন পর্যটন স্পটগুলোর পাশাপাশি কুয়াকাটার আকর্ষণীয় রাখাইন মার্কেটের দোকানগুলোতে পর্যটকদের উপচে পরা ভিড় দেখা গেছে।

কুয়াকাটা হোটেল মোটেল ওনার্স এসোসিয়েশন সাধারণ সম্পাদক মোতালেব হাওলাদার বলেন, 'ঈদের ছুটির পাশাপাশি জাতীয় শোক দিবসের ছুটি এবং শুক্র, শনিবার যোগ হওয়ায় পর্যটকদের টানা এ উপস্থিতি থাকবে।'

প্রতি বছর ঈদ এবং কোরবানিতে কুয়াকাটায় প্রায় অর্ধ লাখ পর্যটকের আগমন ঘটে। আর এ বছরও পর্যটকদের এমন উপস্থিতি প্রত্যাশা করছেন ব্যবসায়ীরা। এদিকে পর্যটকদের নিরাপত্তা ও সামাল দিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষ থেকেও প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে বলে জানান সংশ্লিষ্টরা।

আপনার মতামত লিখুন :