Barta24

মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯, ১ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

কাঠমান্ডুতে পাঠাও

কাঠমান্ডুতে পাঠাও
ছবি: সংগৃহীত
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

বাংলাদেশের রাইড শেয়ারিং ও খাবার সরবরাহ সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান 'পাঠাও' ৮০ জন রাইডার নিয়ে পরীক্ষামুলক ভাবে কাজ শুরু করেছে নেপালের কাঠমান্ডুতে।

নেপালের একটি নিউজ পোর্টালের টেকটক এর এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, খুব শীঘ্রই বাংলাদেশ ভিত্তিক এই পরিবহন প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান পরিপূর্ণভাবে নেপালের বাজারে তার পরিচালনা কার্যক্রম শুরু করবে । ইতোমধ্যে প্রতিষ্ঠানটি নেপালে কার্যক্রম পরিচালনায় প্রয়োজনীয় লোকবল নিয়োগের জন্য নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিও দিয়েছে।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Sep/14/1536893841412.jpg

নেপালে পাঠাও এর কার্যক্রম শুরু করা সম্পর্কে প্রতিষ্ঠানটি ভাইস প্রেসিডেন্ট আহমেদ ফাহাদ বলেন ‘নেপালে কাজ শুরু করাটা প্রথম দিকে বাংলাদেশে শুরু করার মতই চ্যালেঞ্জিং তাই আমরা এই ব্যাবসা সম্প্রসারণ এর ব্যাপারে ভীত নই বরং অত্যন্ত আগ্রহী ।

তিনি আরো উল্লেখ করেন নেপালের কাঠমান্ডু শহরের সবচেয়ে ভালো দিক হচ্ছে সেখানে অনেক বাইক আছে তাই সেখানে যদি গ্রাহক ও চালকের মাঝে বিশ্বাস, নিরাপত্তা ও গ্রাহকের সুবিধাগুলো নিশ্চিত করা যায় তবে অবশ্যই পাঠাও সেখানেও অনেক ভালো করবে ।

মুভিং নেপাল এর মাধ্যমে এর কার্যক্রম শুরু করতে যাওয়া পাঠাও দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম ক্রমবর্ধমানশীল স্টার্টআপ প্রযুক্তি ভিত্তিক কোম্পানি। ই-কমার্স ভিত্তিক এই কোম্পানিটি ডেলিভারি সার্ভিস ও রাইড শেয়ারিং ভিত্তিক কার্যক্রম দিয়ে শুরু করলেও পরবর্তীতে ফুড ডেলিভারি সার্ভিসও চালু করে যা পরবর্তীতে অনেক জনপ্রিয় হয়।

আপনার মতামত লিখুন :

ব্যাংক নোটে কম্পিউটার বিজ্ঞানের জনক

ব্যাংক নোটে কম্পিউটার বিজ্ঞানের জনক
ব্যাংক নোটে অ্যালান টুরিং, ছবি: সংগৃহীত

কম্পিউটার জগতের অগ্রদূত এবং কোডব্রেকার অ্যালান টুরিংয়ের ছবি দিয়ে ব্যাংক অব ইংল্যান্ডের ৫০ পাউন্ডের নতুন নোটের ডিজাইন করা হবে।

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় টুরিং প্রত্যক্ষভাবে জার্মান নৌবাহিনীর গুপ্তসংকেত উদ্ধার করে যুদ্ধ জয়ের জন্য গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন।

ব্যাংক অব ইংল্যান্ডের গভর্নর মার্ক কার্নি বলেন, ‘অ্যালান টুরিং একজন অসাধারণ গণিতবিদ ছিলেন। তার আবিষ্কার এবং কর্মের ফল আমরা আমাদের নিত্যদিনের কাজের মধ্যে উপলব্ধি করছি।’

এই ৫০ পাউন্ডের নোটটি হবে ব্যাংক অব ইংল্যান্ডের শেষ নোট যা পেপার থেকে পলিমারে রূপান্তর হবে। এই নোটটি ২০২১ সালের শেষের দিকে ছাড়া হবে। ৫০ পাউন্ডের নোটটি ব্যাংক অব ইংল্যান্ডের সর্বোচ্চ-মূল্যের নোট। যা প্রতিদিনকার লেনদেনে খুব কমই ব্যবহৃত হয়।

অ্যালান টুরিং একজন ব্রিটিশ গণিতবিদ, যুক্তিবিদ ও ক্রিপ্টোবিশেষজ্ঞ ছিলেন। তাকে কম্পিউটার বিজ্ঞান এবং আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সের জনক বলা হয়। আর দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে জার্মান নৌবাহিনীর গুপ্তসংকেত উদ্ধারে অবদান রাখায় তাকে দেশটির বীরযোদ্ধাও বলা হয়।

তবে অন্য আর দশ জন সাধারণ মানুষের মতো সাধারণ মৃত্যু হয়নি টুরিংয়ের। ইংল্যান্ডের তৎকালীন আইন অনুযায়ী ১৯৫২ সালের দিকে সমকামিতার অপরাধে তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। পরবর্তীতে ১৯৫৪ সালে ৪১ বছর বয়সে আত্মহত্যা করেন টুরিং।

গত ২০১৩ সালে টুরিংকে দোষী সাব্যস্ত করার অপরাধে রাজকীয় ক্ষমা করা হয়েছিল তাকে।

এর আগে মানবাধিকার এবং এলজিবিটিদের অধিকার আদায়ের জন্য কাজ করেন পিটার টাচেল, টুরিংকে ক্ষমা এবং তার ছবি ব্যাংক নোটে নির্বাচনের জন্য ক্যাম্পেইন পরিচালনা করেছিলেন।

সূত্র: বিবিসি

ঘড়ির জন্য প্রাণে বেঁচে গেলেন

ঘড়ির জন্য প্রাণে বেঁচে গেলেন
অ্যাপেল ওয়াচ, ছবি: সংগৃহীত

অ্যাপেল ডিভাইসের সঙ্গে এখন অন্যতম একটি অনুষঙ্গ হচ্ছে অ্যাপেল ওয়াচ বা ঘড়ি। যা অন্যসব স্মার্ট ওয়াচের মতোই কাজ করে। কিন্তু এবার অ্যাপেল ওয়াচ যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো অঞ্চলের এক ব্যক্তিকে পানিতে ডুবে যাওয়া থেকে রক্ষা করেছে বলে দাবি করেন তিনি।

নাইন টু ফাইভ ম্যাক নিউজ পোর্টালের প্রতিবেদনে বলা হয়, ফিলিপ ইশো নামের ঐ ব্যক্তি স্পিড বোডে চড়ে হারবোর থেকে ম্যাককরমি যাচ্ছিলেন শিকাগো শহরের ছবি তোলার জন্য। সেই মূহুর্তে হঠাৎ একটি ঢেউ এসে তাকে পানিতে ফেলে দেয়। পানিতে পড়ে তার ফোনটিও হারিয়ে যায়। কিন্তু সাহায্যে চাওয়ার জন্য তার কাছে বার্তা পাঠানোর কিছু ছিল না। পরক্ষণেই ইশো তার হাতে থাকা অ্যাপেল ওয়াচ থেকে সোফেস্টিকেটেড অপারেটিং সিস্টেম (এসওএস) প্রযুক্তির সাহায্যে জরুরি নাম্বারে (৯১১) তে যোগাযোগ করেন। তার পরেই শিকাগো পুলিশ হেলিকপ্টার নিয়ে তাকে উদ্ধার করতে আসে এবং তিনি প্রাণে বেঁচে যান।

সম্প্রতি অ্যাপল ওয়াচ ‘সিরিজ ফোর’ এই  স্মার্ট ঘড়ির জগতে প্রথম ইলেক্ট্রিক্যাল কার্ডিওগ্রাম বা ইসিজি সুবিধা নিয়ে আসে। যা দিয়ে শরীরের রিয়েল টাইম পরিবর্তনগুলো সম্পর্কে জানতে পারবেন। শুধুমাত্র এর ক্রাউন স্ক্রলিং বাটনটিকে ৩০ সেকেন্ড চেপে ধরে রাখলেই আপনি দেখতে পারবেন আপনার রিয়েল টাইম ইসিজি হার্ট রেট।

উল্লেখ্য এসওএস কল হচ্ছে জরুরি ভিত্তিতে সাহায্যের জন্য আইন শৃঙ্খলা, দমকল বাহিনী কিংবা চিকিৎসা সেবার জন্য ফোন করা।

এনডি টিভি অবলম্বনে

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র