ঢাকা ১২: মাঠে আ.লীগ, খোঁজ নেই বিএনপির!

ঢাকা ১২: মাঠে আ.লীগ, খোঁজ নেই বিএনপির। ছবি: বার্তা২৪.কম

রাজধানীর অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ একটি সংসদীয় আসন ঢাকা-১২। তেজগাঁও, তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল, হাতিরঝিল, শের-এ-বাংলা নগর ও রমনার এক অংশ নিয়ে গঠিত এই সংসদীয় আসনে নির্বাচনের কাজ শুরু করে দিয়েছে আওয়ামী লীগ। তবে এখন পর্যন্ত মাঠে দেখা যায়নি গতবারের নির্বাচনে অংশ না নেয়া দল বিএনপিকে।

সরেজমিনে সাধারণ ভোটারদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, আওয়ামী লীগ থেকে ইতোমধ্যে ভোটের জন্য গেলেও, বিএনপির পক্ষ থেকে এখনো কাউকে আসতে দেখা যায়নি।

নির্বাচন উৎসাহী ভোটাররা বলছেন, দুই প্রার্থী নিয়ে বিএনপির হিসাব-নিকাশ একটু জটিল রয়েছে। তবে পরপর দুইবার ক্ষমতায় থাকা আওয়ামী লীগের প্রার্থী নিয়ে ওই ধরনের সংশয় নেই।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ২৪, ২৫, ২৬, ২৭, ৩২, ৩৫, নম্বর ওয়ার্ড অন্তর্ভুক্ত এই ১৮৫ নং আসন ঘুরে দেখা যায়, প্রত্যেক ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের অস্থায়ী অফিস বানানো হয়েছে। সকাল দুপুর চলছে নির্বাচনী আড্ডা।

কিন্তু একই এলাকায় বিএনপি সমর্থকদের কোনো নির্বাচনী কার্যক্রমে অংশগ্রহণের চিত্র চোখে পড়েনি।

জানতে চাইলে ২৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি শামীম হাসান বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘আমাদের আওয়ামী লীগ প্রার্থী বর্তমান এমপি ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তিনি এর আগেও এ আসন থেকে দুইবার নির্বাচিত হয়েছেন। ব্যাপক উন্নয়নমূলক কার্যক্রম আর পরিষ্কার ইমেজের মানুষ হওয়ায় খুব সহজেই আমরা সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছাতে পারছি। যেটা আগুন নিয়ে খেলা করা দল বিএনপি পারছে না। আশা করি আসন্ন নির্বাচনে আওয়ামী লীগের জন্য আমরা আবারো সফলতা বয়ে নিয়ে আসব।

২৪ নম্বর ওয়ার্ড তেজগাঁও থানা আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য সফিউল্লা বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘জনকল্যাণমুখী কর্মকাণ্ডে সম্পৃক্ত থাকায় তেজগাঁও এবং তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল আওয়ামী লীগের ভোটব্যাংক রয়েছে। তাই আমরা শুরু থেকেই নির্বাচনের কার্যক্রমে অংশ নিতে পেরেছি।’

অন্যদিকে এই আসনে দুইজন প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ হওয়ায় বিপাকে পড়েছে বিএনপি। এদের মধ্যে একজন হলেন সাইফুল আলম নীরব। তিনি জাতীয়তাবাদী যুবদল কেন্দ্রীয় সভাপতি। অপরজন হলেন মহানগর উত্তর বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান।

বিএনপি সমর্থক পরিচয় দেওয়া রাজধানীর ইন্দিরা রোডের ব্যবসায়ী খালেক বলেন, ‘দুই প্রার্থীর একজনকেও দৃশ্যমান কোনো নির্বাচনী কার্যক্রমে অংশ নিতে দেখিনি আমরা।‘

বিএনপির আনোয়ারুজ্জামান ও সাইফুল আলম সক্রিয় থাকলেও ভোটের মাঠে সমর্থকরা কেন চুপ? এ বিষয়ে বিএনপি সমর্থিত ২৬ নম্বর ওয়ার্ড সভাপতি ও তেজগাঁও থানা বিএনপির সেক্রেটারি লতিফুর রহমান বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘একাধিক প্রার্থী থাকায় মাঠ পর্যায়ের কর্মীরা দুইভাগে বিভক্ত। চূড়ান্তভাবে প্রার্থী নির্ধারিত হওয়ার পরে এই সমস্যা আর থাকবে না। আমাদের প্রস্তুতি রয়েছে, আমরা সবাই একত্রিত হয়ে শক্তভাবে মাঠে নামব এবং এই আসনটি বিএনপির করে নেব।’

নির্বাচন এর আরও খবর

//election count down //sticky sidebar